Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৪ ফাল্গুন ১৪২৬, ০২ রজব ১৪৪১ হিজরী

‘মিথ্যা বলে এসেছি তাই...’

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

গত ১৩ বছর ধরে মিথ্যা বলায় দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চাইলেন ইরানের রাষ্ট্রীয় সম্প্রচারমাধ্যম আইআরআইবির উপস্থাপক গেল্লারে জাব্বারি। তিনি কাজও ছেড়ে দিয়েছেন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইনস্টাগ্রামে এক পোস্টে তিনি লেখেন, ‘দেশবাসীকে হত্যা করা হয়েছে, এটি আমার জন্য বিশ্বাস করা অত্যন্ত কঠিন। আমাকে ক্ষমা করবেন, আমি এত দেরিতে জেনেছি এবং ১৩ বছর ধরে মিথ্যা বলেছি, এ জন্য ক্ষমা করবেন।’
তার সাথে কাজ ছেড়েছেন আইআরআইবি’র আরেক উপস্থাপক জাহরা খাতামি। তিনি লেখেন, ‘আজকের দিন পর্যন্ত উপস্থাপক হিসেবে আমাকে গ্রহণ করায় আপনাদের ধন্যবাদ। আমি টিভির চাকরিতে আর কোনো দিন ফিরব না। আমাকে ক্ষমা করবেন।’

তেহরানের আকাশে ইউক্রেনের একটি যাত্রীবাহী বিমানকে মাত্র ১০ সেকেন্ডের সিদ্ধান্তে ভুল করে ভ‚পাতিত করার কথা ইরান প্রথমে অস্বীকার করে। পরে আবার চাপে পড়ে স্বীকার করার পরপরই দেশটির বিভিন্ন স্থানে গত শনিবার থেকে ব্যাপক বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। সরকারের বিরুদ্ধে ওঠা আস্থার সঙ্কটকে কেন্দ্র করেই ইস্তফা দিলেন রাষ্ট্রীয় সম্প্রচারমাধ্যমের দুই উপস্থাপক।

তৃতীয় আরেক উপস্থাপক বলেছেন, তিনি বেশ কিছু সময় আগে কাজ ছেড়ে দিয়েছেন একই কারণে, অর্থাৎ ১৩ বছর ধরে সরকারের পক্ষে মিথ্যা বলেছেন বলে। জাহরা খাতামির সহকর্মী সাবা রাড বলেন, ‘রেডিও ও টেলিভিশনে ২১ বছর ধরে কাজ করার পর আমি বলছি, গণমাধ্যমে আমার পক্ষে কাজ করা সম্ভব নয়। আমি পারব না।’

তেহরানভিত্তিক অ্যাসোসিয়েশন অব ইরানিয়ান জার্নালিস্টস এক বিবৃতিতে বলেছে, যাত্রবাহী বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় সরকারের প্রতি জনগণের আস্থার সঙ্কট তৈরি হয়েছে। সূত্র : দ্য গার্ডিয়ান।



 

Show all comments
  • ফখরুল ইসলাম ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৪৭ এএম says : 1
    প্রপাগাণ্ডার মূল শর্তই মিথ্যাচার- হিটলারের গোয়েবলস, ইরানি রেজিম বা বাংলাদেশের বিএনপি জামাত সবার ক্ষেত্রে একই কথা প্রযোজ্য।
    Total Reply(0) Reply
  • Rashidullah ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৪৭ এএম says : 0
    সেনাবাহিনী ইরানের সরকার টিকিয়ে রেখেছে।
    Total Reply(0) Reply
  • জাবের পিনটু ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৪৮ এএম says : 0
    ইরানের প্রতিপক্ষ যখন পরাশক্তি আমেরিকা থেকে শুরু করে ইসরায়েল,সৌদি আরব,সংযুক্ত আরব আমিরাত হয়ে ওঠে তখন ইরানের সরকারকে বাধ্য হয়েই দেশের অথৈ খনিজ সম্পদ রক্ষার্থে কঠোর হতে হয়।
    Total Reply(0) Reply
  • Mahbub ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৪৮ এএম says : 0
    দ্বিতীয় ধাপের আক্রমণ শুরু ইরানে, দেখার বিষয় এটাও কি ইরান বসন্তের রূপ নেয় কি-না। সরাসরি যুদ্ধের চেয়ে এভাবে যুদ্ধ আরো মারাত্মক
    Total Reply(0) Reply
  • নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৪৮ এএম says : 0
    চাপে বেচাপে নাচাপে ঠাপে নাঠাপে কম বেশী সবাই মিথ্যা বলে....জান বাচানো ফরজ বলে স্বীকৃত...ধর্মীয় অনুষঙ্গ ভোলে না কিন্তু ভন্ডামি করে।
    Total Reply(0) Reply
  • aziz mohammed mohsin ১৬ জানুয়ারি, ২০২০, ১:৪৮ এএম says : 0
    বাংলাদেশেও আ.লীগের এই রিজিমে বাধ্য হয়ে মিডিয়া হাজারো মিথ্যে বলছে।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইরান

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২০ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
১২ ফেব্রুয়ারি, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন