Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০৬ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৪ জামাদিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

সন্তান জন্ম দিলেই পাওয়া যাবে সাড়ে ছয় লাখ টাকা!

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ জানুয়ারি, ২০২০, ১২:৫৮ পিএম

রাশিয়ায় প্রতিনিয়ত কমছে শিশু জন্মহার। এমন পরিস্থিতিতে এটিকে ভবিষ্যতের জন্য ‘প্রত্যক্ষ হুমকি’ হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। সন্তান জন্ম দেওয়ার জন্য দেশটির নাগরিকদের আর্থিক প্রণোদনা দেয়ারও ঘোষণা দিয়েছেন তিনি। বুধবার টেলিভিশনে প্রচারিত এক ভাষণে এ ঘোষণা দেন পুতিন।
তিনি বলেন, দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধি স্থিতিশীল রাখা রাশিয়ার নাগরিকদের ঐতিহাসিক দায়িত্ব। জনসংখ্যা প্রতিনিয়ত কমতে থাকলে তা দেশটির জন্য প্রত্যক্ষ হুমকিস্বরূপ। তাই দেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধিতে সন্তান জন্ম দিলে পিতা-মাতাকে আর্থিক প্রণোদনা দেওয়া হবে।
সন্তান জন্ম দিলে বাবা-মাকে আর্থিক প্রণোদনা দেওয়ার অঙ্গীকার করে পুতিন বলেন, প্রথম সন্তান জন্ম দিলে পিতা-মাতাকে এককালীন ৭ হাজার ৬০০ ডলার বা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় সাড়ে ছয় লাখ টাকা দেওয়া হবে। এ আর্থিক প্রণোদনা অন্তত ২০২৬ সাল পর্যন্ত দেওয়া হবে।
এর আগে ২০০৭ সাল থেকে দেশটিতে কোন দম্পতি দ্বিতীয় সন্তান জন্ম দিলে তাদের এই পরিমাণ অর্থ দিয়ে আসছে রাশিয়ার সরকার।
এছাড়া শিশু সন্তান আছে এমন দরিদ্র পিতা-মাতাকেও আর্থিক সহায়তা দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন রুশ প্রেসিডেন্ট। যদিও বর্তমানে এমন পরিবারগুলো শিশু সন্তানের বয়স তিন বছর না হওয়া পর্যন্ত এমনিতেই অর্থ পেয়ে থাকে। তবে নতুন সিদ্ধান্ত অনুয়ায়ী এবার থেকে শিশুর বয়স সাত বছর না হওয়া পর্যন্ত অর্থ পাবেন তারা।
প্রসঙ্গত, গত শতকের নব্বইয়ের দশকের আর্থিক মন্দার কারণে রাশিয়াতে জন্মহার অনেকখানি কমে যায়। সেসময় দেশটিতে যাদের জন্ম হয়েছিল, তারাই এখন নতুন শিশুর জন্ম দিচ্ছেন। তবে বর্তমানে আবার একই প্রভাব পড়ছে দেশটিতে। তাই এমন আর্থিক প্রণোদনার ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রাশিয়া


আরও
আরও পড়ুন