Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০৫ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৩ জামাদিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

মিরপুরে বস্তিতে আগুন শতাধিক ঘর পুড়ে ছাই;

ঢামেকে ভর্তি ২

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৫ জানুয়ারি, ২০২০, ১২:০০ এএম

রাজধানীর মিরপুরে চলন্তিকা বস্তিতে অগ্নিকাÐের ঘটনা ঘটেছে। গতকাল ভোরে আগুনের সূত্রপাত হয়। পরে ফায়ার সার্ভিসের প্রায় দেড় ঘটনা কাজ করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে আগুনে শতাধিক ঘর পুড়ে ছাই হয়ে যায়। এছাড়াও দুই জন দগ্ধ হন। পরে তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ফায়ার সার্ভিস সদর দফতরের ডিউটি অফিসার রাসেল শিকদার জানান, মিরপুর ৬ নম্বর সেকশনের ই বøাকের ওই বস্তিতে ভোর ৪টা ৯ মিনিটের সময় আগুনের সূত্রপাত হয়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ১৫ টি ইউনিট ঘটনাস্থলে যায় এবং ৫টা ৪৫ মিনিটের সময় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে সকাল ৯টা ১০ মিনিটের সময় আগুন পুরোপুরি নেভানো হয়। তবে আগুন লাগার কারণ ও ক্ষয়ক্ষতির পরিমান এখনো জানা যায়নি।
তিনি আরো জানান, এ ঘটনায় ৫ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটির প্রতিবেদন পাওয়ার পর আগুন লাগার কারণ ও ক্ষয়ক্ষতির পরিমান জানা যাবে।
তবে বস্তির বাসিন্দারা জানান, ঘুমের মধ্যে আগুনের তাপ গায়ে লাগল। ঘুম ঘুম চোখেই কোনো কিছু বুঝার আগেই ঘর পুড়ে ছাই হয়ে যায়। তখন আর ঘরের মালামাল বা দামি জিনিসপত্র রক্ষার দিকে নজর কারো ছিল না। কোনোভাবে প্রাণ নিয়ে ঘর থেকে বাইরে আসেন বস্তিবাসী। তারা আরো জানান, চলন্তিকা বস্তিটি ঝিলের উপর কাঠের পাটাতন দিয়ে তৈরি। বিশাল জায়গা জুড়ে এখানে গড়ে উঠেছে তিনটি আলাদা বস্তি। যার নিয়ন্ত্রক স্থানীয় তিনজন প্রভাবশালী। গ্যাস, বিদ্যুতের সংযোগও রয়েছে এই বস্তিতে। নেয়া হয় বিল। কিন্তু সংযোগ বৈধ কিনা, তা নিয়ে রয়েছে সংশয়। এখানে বসবাসকারীদের বেশির ভাগই ভাড়াটিয়া। অল্প টাকায় ঘর ভাড়া নিয়ে বস্তিটিতে বসবাস করেন নিম্ন আয়ের মানুষ।
এদিকে ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা গেছে, চারিদিকে পড়ে আছে পোড়া টিন-আসবাবপত্র। বস্তিতে পোড়া ধ্বংসস্তুপ হাতড়ে বেড়াচ্ছেন ক্ষতিগ্রস্তরা। কেউ কেউ পুড়ে যাওয়া জিনিস হাতড়ে মূল্যবান জিনিসপত্র খোঁজার চেষ্টা করছেন। অনেকে মাথায় হাত দিয়ে বিলাপ করছেন।
বস্তিবাসী জানান, গত বছরের ১৬ আগস্ট ভয়াবহ আগুনের শিকার হয়েছিল এই বস্তিটি। সেই সময় আড়াই হাজারের বেশি ঘর পুড়ে যায়। এসব ঘরে বসবাসকারীদের সেদিনের আর্তনাতে সপ্তাহব্যাপী শোকের ছায়া ছিল চলন্তিকা মোড় এলাকায়। ছাই হয়ে গিয়েছিল ঘর, সম্পদ।
এদিকে অগ্নিকাÐে বস্তির বাসিন্দা পারভিন (৩৫) ও শহিদুল ইসলাম (২০) নামে দুই জন দগ্ধ হয়েছেন। পরে তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হসাপাতালে পাঠানো হয়। চিকিৎসকের বরাত দিয়ে ঢামেক পুলিশ ফাঁড়ির এসআই মো. বাচ্চু মিয়া জানান, গতকাল সকাল ৭টার দিকে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন। দগ্ধ নারীর শরীরের ৯০ শতাংশ পুড়ে গেছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন