Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ০৮ কার্তিক ১৪২৬, ২৪ সফর ১৪৪১ হিজরী

আবাসন ও স্বাস্থ্যে ১৬০০ কোটি টাকা দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক

প্রকাশের সময় : ১ জুলাই, ২০১৬, ১২:০০ এএম

অর্থনৈতিক রিপোর্টার : স্বাস্থ্য ও আবাসন খাতের উন্নয়নে বাংলাদেশ সরকারকে দুটি আলাদা প্রকল্পে ১৬০০ কোটি টাকা (২০ কোটি মার্কিন ডলার) ঋণ দেবে বিশ্বব্যাংক। এ লক্ষ্যে বহুজাতিক এ উন্নয়ন সহযোগী সংস্থাটির সঙ্গে বৃহস্পতিবার দুপুরে এনইসি সম্মেলন কেন্দ্রে দুটি পৃথক চুক্তি হয়।
সরকারের পক্ষে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) অতিরিক্ত সচিব কাজী সফিকুল আযম এবং বিশ্বব্যাংকের পক্ষে ভারপ্রাপ্ত কান্ট্রি ডিরেক্টর ও ঢাকা অফিসের প্রধান অর্থনীতিবিদ ড. জাহিদ হোসেন স্বাক্ষর করেন। চুক্তি মোতাবেক নিম্ন আয়ের জনগোষ্ঠীর আবাসন সহায়তা প্রকল্পের জন্য বিশ্বব্যাংক পাঁচ কোটি মার্কিন ডলার যোগান দেবে। এ প্রকল্পের লক্ষ্য বিভিন্ন পৌর এলাকায় বসবাসরত নিম্ন আয়ের ও অস্থায়ী বিভিন্ন বসতিতে বসবাসকারীদের আশ্রয় ও জীবনমানের উন্নয়ন। ২০২১ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে এ প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার কথা রয়েছে।
অন্যদিকে দ্বিতীয় প্রকল্পের আওতায় দেশের স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ও স্বাস্থ্যসেবার উন্নয়নের, বিশেষত দরিদ্র জনগোষ্ঠীর জন্য বিশ্বব্যাংক ১৫ কোটি মার্কিন ডলার যোগান দেবে। অতিরিক্ত এ অর্থায়ন দেশের স্বাস্থ্য খাতের চ্যালেঞ্জ, বিশেষত প্রসূতি সেবা ও জনস্বাস্থ্য সম্পর্কিত ইস্যু এবং যক্ষ্মা মোকাবিলায় সহায়ক হবে।
অনুষ্ঠানে জানানো হয়, স্বাস্থ্য, জনসংখ্যা এবং পুষ্টি খাত উন্নয়নের কর্মসূচিতে এই বাড়তি অর্থ ব্যয় করা হবে। অন্যদিকে নিম্ন আয়ের মানুষদের গৃহায়ন সহায়তা প্রকল্পটি গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয় এবং পল্লীকর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে বাস্তবায়ন করা হবে।
কাজী সফিকুল আযম বলেন, পিকেএসএফ-এর সহযোগী এনজিওর মাধ্যমে নারায়ণগঞ্জ, সিরাজগঞ্জসহ কয়েটি শহর/পৌরসভাগুলোতে ঋণ বিতরণ কার্যক্রম পরিচালনা করবে। ভারতের সফল প্রকল্পের অনুসরণে বাংলাদেশে এ ধরনের প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে।
এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, চলতি অর্থবছর সবমিলিয়ে বিশ্বব্যাংকের সাথে ১ কোটি ২০ লাখ ডলারের ঋণ চুক্তি স্বাক্ষর হলো। গতবছর হয়েছিলো ১ কোটি ৮০ লাখ ডলার। গত বছরের তুলনায় কিছু কম হলেও চলতি অর্থবছরে লক্ষ্যমাত্রা পূরণ করা সম্ভব হয়েছে। এটি বড় অর্জন। আগামি জুলাই মাসে বিশ্বব্যাংকের সাথে আরো ৪টি ঋণ চুক্তি অনুষ্ঠিত হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন