Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৬, ০৩ রজব ১৪৪১ হিজরী

ডায়রিয়া ও পুষ্টি বিষয়ক এশীয় সম্মেলন শুরু মঙ্গলবার

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ জানুয়ারি, ২০২০, ৮:৩২ পিএম

আগামী মঙ্গলবার (২৮ জানুয়ারি) থেকে শুরু হচ্ছে তিন দিনব্যপী টাইফয়েড, কলেরা, অপুষ্টি এবং অন্ত্রের অন্যান্য রোগের চ্যালেঞ্জ এবং সমাধান নিয়ে ডায়রিয়া ও পুষ্টি বিষয়ক এশীয় সম্মেলন (অ্যাসকড)। রোববার (২৬ জানুয়ারি) রাজধানীর একটি হোটেলে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানানো হয়।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, নি¤œ ও মধ্যম আয়ের দেশসমূহে টাইফয়েড, কলেরা, অপুষ্টি এবং অন্ত্রের অন্যান্য রোগ-সংক্রান্ত চ্যালেঞ্জ এবং এসবের মোকাবেলার উপায় সম্পর্কে আলোচনার উদ্দেশ্যে আন্তর্জাতিক ও স্থানীয় জনস্বাস্থ্য বিজ্ঞানী ও বিশেষজ্ঞরা আগামী ২৮ থেকে ৩০ জানুয়ারি ঢাকার প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁ হোটেলে সমবেত হবেন। পঞ্চদশ অ্যাসকড-এর আয়োজন করছে আইসিডিডিআর,বি এবং এতে সহযোগিতা করছে বাংলাদেশ সরকার, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা, সুইডিশ ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্ট কোঅপারেশন এজেন্সি এবং বিল অ্যান্ড মেলিন্ডা গেইটস ফাউন্ডেশন।

এ সময় আইসিডিডিআর,বি’র নির্বাহী পরিচালক প্রফেসর জন ক্লেমেন্স বলেন, আমরা ঢাকায় পঞ্চদশ অ্যাসকড-এ মিলিত হতে যাচ্ছি। আমাদের লক্ষ্য পৃথিবীল অগণিত মানুষ বৈশ্বিক জনস্বাস্থ্য-সংক্রান্ত চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করে চলেছে, তা সমাধানের উদ্দেশ্যে নতুন জ্ঞান অর্জন, জ্ঞান বিনিময় এবং আমাদের গবেষণা, উদ্ভাবন ও কর্মকৌশলসমূহ আলোচনা ও মূল্যায়ন করা।

আইসিডিডিআর,বি’র সিনিয়র সায়েন্টিস্ট ও অ্যাসকড-এর সভাপতি ড. ফেরদৌসী কাদরী বলেন, তিন দিনের এই সভায় ৮১টি মৌখিক এবং ১১৩টি পোস্টার উপস্থাপনা করা হবে। এশিয়া, ইউরোপ, আফ্রিকা ও আমেরিকার ৪৫০ জনেরও বেশি সংখ্যক অংশগ্রহণকারী, এবং ৪৫টিরও বেশি প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞানী, গবেষক, জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ এবং নীতি নির্ধারক এই সম্মেলনে বক্তা হিসেবে অংশগ্রহণ করছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (পকিল্পনা ও উন্নয়ন) এবং সংক্রামক রোগ নিয়ন্ত্রণ কর্মসূচির পরিচালক প্রফেসর ডা. সানিয়া তহমিনা বলেন, আমি মনে করি এই সম্মেলনের মধ্য দিয়ে আমরা কিভাবে আরো ভালোভাবে পানিবাহিত রোগের ব্যবস্থাপনা করা যায় তা জানতে সক্ষম হব। এখন আমাদের জন্য অগ্রগণ্য বিষয় হল ২০৩০ সালের মধ্যে কলেরা রোগ নির্মূল করা এবং এই সম্মেলন এই ব্যাপারে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বক্তব্য রাখেন যুক্তরাস্ট্রের হার্ভার্ড মেডিকেল স্কুলের মেডিসিনের অধ্যাপক এডওয়ার্ড টি রায়ান, রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) পরিচালক প্রফেসর ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা, আইসিডিডিআর,বি’র উপ-নির্বাহী পরিচালক সৈয়দ মন্জুরুল ইসলাম, সংক্রামক রোগ বিভাগের সিনিয়র পরিচালক অ্যালেন রস প্রমুখ।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, সম্মেলনে আন্ত্রিক সংক্রমণ, পুষ্টি নীতি এবং প্রচলিত অনুশীলনের সাম্প্র্রতিক বিষয়গুলোর ওপর আলোকপাত করা হবে। এক্ষেত্রে, বর্তমান বিশ্বের চাহিদার কথা বিবেচনা করে সম্মেলনে চারটি বিশেষ সিম্পোজিয়াম রাখা হয়েছে, সেগুলো হলÑটাইফয়েড কনজুগেট ভ্যাকসিন: এশিয়া ও আফ্রিকাতে ব্যবহারের সম্ভাবনা, ২০৩০ সালের মধ্যে কলেরা নির্মূলকরণ: উদ্যোগ এবং চ্যালেঞ্জ, এনভায়রনমেন্টাল এন্টারোপ্যাথি, আন্ত্রিক মাইক্রোবায়োটা, শৈশবকালীন অপুষ্টি, এবং অ্যান্টিবায়োটিক প্রতিরোধ ও আন্ত্রিক সংক্রমণের চিকিৎসার ওপর এর প্রভাব।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সম্মেলন


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ