Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

ক্যান্সার প্রতিরোধে সচেতনতার গুরুত্বারোপ বিশেষজ্ঞদের

মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে ১০০ রোগীকে বিনামূল্যে চিকিৎসা দিবে আহছানিয়া মিশন ক্যান্সার হাসপাতাল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ৬:২৯ পিএম

২০৩০ সালের মধ্যে বিশ্বে ক্যান্সার রোগীর সংখ্যা দাঁড়াবে ২৪ মিলিয়ন। সেই অনুযায়ী শুধু বাংলাদেশেই এই রোগের চিকিৎসার জন্য ২০৩০ সালে প্রয়োজন হবে ৩০০ ক্যান্সার ট্রিটমেন্ট সেন্টারের। বর্তমানে দেশে রোগীর চাহিদা অনুযায়ী প্রয়োজন ১৬০টি ক্যান্সার ট্রিটমেন্ট সেন্টার। মেডিক্যাল জার্নাল দি ল্যানসেটের বরাত দিয়ে বুধবার (৫ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ব ক্যান্সার দিবস উপলক্ষে রাজধানীর উত্তরাস্থ আহ্ছানিয়া মিশন ক্যান্সার এন্ড জেনারেল হসপিটাল (এএমসিজিএইচ) প্রাঙ্গনে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় বক্তারা এ তথ্য জানান।

তারা বলেন, ক্যান্সার চিকিৎসার ক্ষেত্রে এতগুলো ট্রিটমেন্ট সেন্টার প্রতিষ্ঠা করা কষ্টসাধ্য ব্যাপার। তাছাড়া প্রয়োজন অনুযায়ী ক্যান্সার বিশেষজ্ঞও এখন অনেক বড় চ্যালেঞ্জ। এজন্য সচেতনতায় এখন মুখ্য লক্ষ্য। সঠিকভাবে সচেতন করতে পারলে ক্যান্সার প্রতিরোধ করা সম্ভব হবে। বিশেষ করে দেহ ও মনের পরিচ্ছন্নতা ও পবিত্রতা বজায় রাখতে পারলে ক্যান্সারসহ সবধরনের রোগ প্রতিরোধ করা সম্ভব।

তারা আরো বলেন, বিশ্ব ক্যান্সার দিবসে শুধু সচেতনতা নয়। বরং বছরের প্রতিটি দিনেই ক্যান্সার বিষয়ে সচেতনতা ছড়িয়ে দিতে পারলে এই রোগকে রুখে দেয়া সম্ভব হবে। নিয়মমাফিক প্রতিদিনের খাদ্যভ্যাস এবং মানসিক স্থিতিশীলতা হতে পারে ক্যান্সার প্রতিরোধের অন্যতম হাতিয়ার।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক মন্ত্রী ও সংসদ সদস্য এডভোকেট সাহারা খাতুন এমপি এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য ও চলচ্চিত্র অভিনেতা আকবর হোসেন পাঠান এমপি (চিত্রনায়ক ফারুক)। সভাপতিত্ব করেন ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের প্রেসিডেন্ট কাজী রফিকুল আলম।

ক্যান্সার প্রতিরোধ ও সচেতনতার ওপর আলোচনা করেন জাতীয় ক্যান্সার গবেষণা ইনস্টিটিউটের প্রাক্তন পরিচালক ও এএমসিজিএইচ’র গভর্নিং বডির সদস্য ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ এম এ হাই, সিনিয়র কন্সালটেন্ট এবং এএমসিজিএইচ-এর মেডিকেল সার্ভিসেস ও হেড অব রেডিয়েশন অনকোলজি’র ডিরেক্টর অধ্যাপক ডা. কামরুজ্জামান চৌধুরী, সিনিয়র কন্সালটেন্ট ও এএমসিজিএইচ-এর হেড অব ক্লিনিক্যাল অনকোলজি অধ্যাপক ডা. এ.এম.এম শরিফুল আলম এবং ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের সাধারণ সম্পাদক ড. এস এম খলিলুর রহমান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ক্যান্সার

১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০
২০ ফেব্রুয়ারি, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন