Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ০৩ এপ্রিল ২০২০, ২০ চৈত্র ১৪২৬, ০৮ শাবান ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

উখিয়ায় বন্দুকযুদ্ধে ইয়াবাকারবারি নিহত

উখিয়া (কক্সবাজার) উপজেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

কক্সবাজারের উখিয়ায় বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) সদস্যদের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মংকিউ তংচঙ্গা (২৫) নামে এক ইয়াবাকারবারি নিহত হয়েছেন। পরে ঘটনাস্থল তল্লাশি চালিয়ে এক লাখ ৪০ হাজার ইয়াবা, দেশে তৈরি একটি বন্দুক ও তিনটি গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার ভোর ৫টার দিকে উপজেলার পালংখালী ইউনিয়নের বালুখালীর পানবাজার এলাকার নাফ নদীর তীরবর্তী কাঁকড়া ব্রিজ সংলগ্ন বেড়িবাঁধে এ ঘটনা ঘটে। বিজিবির কক্সবাজার ৩৪ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আলী হায়দার আজাদ আহমেদ এ তথ্য জানিয়েছেন। নিহত মংকিউ তংচঙ্গা বান্দরবান জেলার নাইক্ষংছড়ি উপজেলার ঘুমধুম ইউনিয়নের বাইশফাঁড়ি এলাকার চাচিংহ্লা তংচঙ্গার ছেলে। লেফটেন্যান্ট কর্নেল আলী হায়দার বলেন, বৃহস্পতিবার ভোর রাতে নাফ নদীর তীরবর্তী কাঁকড়া ব্রিজ এলাকার বেড়িবাঁধ দিয়ে ইয়াবার বড় একটি চালান আসার খবরে বিজিবির একটি দল সেখানে অবস্থান নেয়। এক পর্যায়ে মিয়ানমারের দিক থেকে ৫/৬ জন সন্দেহভাজন লোককে আসতে দেখে বিজিবির সদস্যরা তাদের থামানোর চেষ্টা করে। এসময় সন্দেহভাজন লোকেরা বিজিবি সদস্যদের লক্ষ্য করে অতর্কিত গুলি ছুড়তে থাকে। বিজিবির সদস্যরাও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি ছুড়ে। সন্দেহভাজন ইয়াবা পাচারকারিরা তখন গুলি ছুড়তে ছুড়তে রাতের অন্ধকারে মিয়ানমারের দিকে পালিয়ে যায়। পরে গোলাগুলি থেমে গেলে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে পাওয়া যায় এক লাখ ৪০ হাজার ইয়াবা, দেশে তৈরি একটি লম্বা বন্দুক ও তিনটি গুলি।’
তিনি বলেন, এসময় বিজিবির সদস্যরা গুলিবিদ্ধ এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করে উখিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। পরে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এসময় স্থানীয় লোকজন তার পরিচয় শনাক্ত করে।’ বিজিবির দাবি, নিহত মংকিউ তংচঙ্গা একজন চিহ্নিত মাদকপাচারকারি। সে মিয়ানমার সীমান্ত দিয়ে দীর্ঘদিন ধরে সংঘবদ্ধ চক্রের মাধ্যমে ইয়াবাপাচারে সক্রিয় ছিল। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বন্দুকযুদ্ধ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ