Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ০৫ এপ্রিল ২০২০, ২২ চৈত্র ১৪২৬, ১০ শাবান ১৪৪১ হিজরী

অশান্ত শান্তর ‘ডাবল’ প্রস্তুতি , সানজামুলের ৭ উইকেট

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

ফাইনালে যেতে হলে জেতার কোন বিকল্প নেই মধ্যাঞ্চলের। অন্যদিকে কোন মতে হার এড়াতে পারলেই ফাইনাল নিশ্চিত দক্ষিণাঞ্চলের। কিন্তু তারপরও প্রথম ইনিংসে উদ্ভট এক সিদ্ধান্ত নিয়ে মাত্র ১১৪ রানেই ইনিংস ঘোষণা করেছিল তারা। আর তার খেসারৎ হয়তো দিতে হচ্ছে দলটির। নাজমুল হোসেন শান্ততর ডাবল সেঞ্চুরিতে বড় লক্ষ্যই ছুঁড়ে দেয় মধ্যাঞ্চল। গতকাল তৃতীয় দিন শেষে ৩৪৭ রানে পিছিয়ে দিন শেষ করেছে দক্ষিণাঞ্চল। এর মধ্যেই হারিয়েছে টপ অর্ডারের ৪ উইকেট। ম্যাচ বাঁচাতে হলে শেষ ৬ উইকেট নিয়ে শেষ দিনে লড়তে হবে দলটিকে। অন্যদিকে অপর ম্যাচে পূর্বাঞ্চলের বিপক্ষে দ্বিতীয় ইনিংসে ৫ উইকেটের বিনিময়ে ১৪৫ রান তুলেছে উত্তরাঞ্চল। প্রথম ইনিংসে ইয়াসির আলীর ১৬৫ তে ৩৩১ রান তুলে অল আউট হয় পূর্বাঞ্চল। দ্বিতীয় ইনিংসে ৮৬ রানে পিছিয়ে থেকে চতুর্থ দিনের খেলা শুরু করবে তারা। হয়ে ৭ উইকেট নিয়েছেন সানজামুল ইসলাম।

আগের দিন প্রতিপক্ষের বোনাস পয়েন্ট ঠেকাতে আগেভাগে ইনিংস ঘোষণা করেছিল দক্ষিণাঞ্চল। কিন্তু সেটা ঠেকাতে গিয়ে বড় হারই মানতে হতে পারে দলটিকে। কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামের একাডেমী মাঠে মধ্যাঞ্চলের ছুঁড়ে দেওয়া ৫০৭ রানের বিশাল লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে রোববার ম্যাচের তৃতীয় দিন শেষে ৪ উইকেটে ১৫৯ রান তুলেছে দক্ষিণাঞ্চল।

এর আগে মধ্যাঞ্চলকে বিশাল লক্ষ্য ছুঁড়ে দেওয়া পুঁজিটা এদিন তরুণ নাজমুল হোসেন শান্তই গড়ে দিয়েছিলেন। আগের দিনই সেঞ্চুরি তুলে নেওয়া এ ব্যাটসম্যান এদিন তুলে নিয়েছিলেন নিজের ডাবল সেঞ্চুরি। ক্যারিয়ারে এটাই প্রথম ডাবল শান্তর। হয়তো ইনিংস বড় করতে পারতেন আরও। কিন্তু ব্যক্তিগত ২৫৩ রান করার পর ইনিংস ঘোষণা করেন অধিনায়ক শুভাগত হোম।

তবে শান্ত নিজের ডাবল সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন অনেকটা ওয়ানডে স্টাইলে। আগের দিন ১৮৯ বল ১২২ রানে অপরাজিত থাকা এ ব্যাটসম্যান এদিন আরও ১৩১ রান করেছেন মাত্র ১২১ বলে। ২৯১ বলে ডাবল সেঞ্চুরি তুলে নেওয়ার পরের ১৯ বলে করেছেন ৫২ রান। ম‚লত তার ইনিংসে ভর করেই বড় লক্ষ্য ছুঁড়ে দিতে সক্ষম হয় দলটি। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৩৬ রান করেন জাবিদ হোসেন। ৮ উইকেটে ৩৮৫ রান তোলার পর ইনিংস ঘোষণা করে মধ্যাঞ্চল। দক্ষিণাঞ্চলের পক্ষে ৮৫ রানের খরচায় ৪টি উইকেট নিয়েছেন নাসুম আহমেদ। এছাড়া শফিউল ইসলামের শিকার ২টি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর (৩য় দিন শেষে)
মধ্যাঞ্চল-দক্ষিণাঞ্চল, কক্সবাজার একাডেমি
মধ্যাঞ্চল : ২৩৫ ও ২য় ইনিংস : ১০৭ ওভারে ৩৮৫/৮ (ডিক্লে.) (আগের দিন ২০৯/৬) (সাইফ ১, মজিদ ১৪, শান্ত ২৫৩*, রকিবুল ৩৯, মার্শাল ১১, শুভাগত ১৮, মিরাজ ৬, জাবিদ ৩৬; শফিউল ২/৩৮, রেজা ০/২৫, মেহেদী ১/১৩১, রাজ্জাক ১/৯৩, নাসুম ৪/৮৫)। দক্ষিণাঞ্চল : ১১৪/৪ (ডিক্লে.) ও ২য় ইনিংস : ৫২ ওভারে ১৫৯/৪ (নাফিস ৫, বিজয় ৮৩, ফজলে ২৫, শামসুর ৪৪*; মুস্তাফিজ ১/১৭, মিরাজ ২/৫৫, সানি ০/৫৩, শুভাগত ১/২১)।

উত্তরাঞ্চল-পূবাঞ্চল, কক্সবাজার
উত্তরাঞ্চল : ২৭১ ও ২য় ইনিংস : ৬৭ ওভারে ১৪৫/৫ (রনি ৫, জুনায়েদ ৩৬, তানবির, ১৪, নাঈম ৩৫, মুশফিক ২৩*, আরিফুল ৯, আকন ২২*; মাহমুদ ১/১৪, নাঈম ২/৫৮, সজিব ১/৩১, আশরাফুল ০/৬, রাহাতুল ০/৪)। পূর্বাঞ্চল ১ম ইনিংস : ১১৬.৩ ওভারে ৩৩১ (আগের দিন ২৬১/৭) (ইয়াসির ১৬৫, নাঈম ৩১, রাহাতুল ৫*, মাহমুদ ০*; সানজামুল ৭/১১৫, সাইফউদ্দিন ০/৩৮, সঞ্জিত ৩/৭৫, নাঈম ০/৮, আরিফুল ০/৪৮)।


পাঁচদিনে ফাইনাল
আজ শেষ হল বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের (বিসিএল) শেষ রাউন্ডের খেলা। এই রাউন্ড খেলার পর হবে বিসিএলের অষ্টম আসরের ফাইনাল। এবার ডাবল লিগ পদ্ধতিতে খেলা না হওয়ায় পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষ দুই দল খেলবে ফাইনাল ম্যাচ। শুরুতে বলা হয়েছিল, বিসিএল ফাইনাল হবে দিবারাত্রির। গোলাপি বলে খেলোয়াড়দের অভ্যস্ত করতে এমন প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল। বিসিবিও সেই প্রস্তাবে ইতিবাচক মত দিয়েছিল। কিন্তু শেষমেশ কিছুই হচ্ছে না।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ২২ ফেব্রæয়ারি থেকে অনুষ্ঠিত হবে বিসিএলের ফাইনাল। দিবারাত্রির ম্যাচ আয়োজনের সিদ্ধান্ত থেকে সরে এলেও ফাইনাল ম্যাচ চারদিনের পরিবর্তে অনুষ্ঠিত হবে পাঁচদিনে। গতকাল বিসিবির সিনিয়র মিডিয়া ম্যানেজার রাবীদ ইমাম জানিয়েছেন, ‘বিসিএলের ম্যাচ হবে পাঁচদিনের। তবে দিবারাত্রিতে নয়। ডে গেম অনুষ্ঠিত হবে।’

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ক্রিকেট


আরও
আরও পড়ুন