Inqilab Logo

ঢাকা শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১২ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ১২ ঘণ্টা পর ভিসিসহ শতাধিক শিক্ষক কর্মকর্তা-কর্মচারী মুক্ত

পটুয়াখালী জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০২ এএম

পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের রাগিং এর দায়ে বহিষ্কৃত শিক্ষার্থীদের বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের দাবিতে বহিষ্কৃতসহ তাদের সহপাঠীদের হাতে তালাবদ্ধ থাকার পরে প্রায় ১২ ঘণ্টা পর পটুয়াখালী জেলা প্রশাসনের সহায়তায় ভোর সাড়ে ৪ টায় তালাবদ্ধ অবস্থা থেকে মুক্তি পেয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যসহ শতাধিক শিক্ষক কর্মকর্তা-কর্মচারী।
বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, গত ২৩ জানুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শেরেবাংলা হল ১, ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের (১ লেভেল, সেমিস্টার ১) এর শিক্ষার্থীদের র‌্যাগিং এর দায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বর্ষের ১৫ জন শিক্ষার্থীর বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহারের দাবিতে গতকাল সকাল থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে বহিষ্কৃতসহ তাদের সহপাঠী প্রায় দুইশতাধিক শিক্ষার্থীরা আন্দোলন শুরু করে।
গতকাল বিকেল পাঁচটার দিকে ওই আন্দোলনকারীরা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের মূল গেটে তালা লাগিয়ে দেয় ফলে প্রশাসনিক ভবনের অবস্থানরত বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যসহ শতাধিক শিক্ষক কর্মকর্তা-কর্মচারী তালাবদ্ধ হয়ে পড়ে। পরে মধ্যরাতে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ জেলা প্রশাসনের কাছে তাদের অবরুদ্ধ অবস্থা থেকে মুক্তির জন্য সহায়তা চান । রাত আনুমানিক ২ টার দিকে পটুয়াখালীর জেলা প্রশাসক মতিউল ইসলাম চৌধুরী ও পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মঈনুল হাসান পটুয়াখালী বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় গিয়ে আন্দোলনকারীসহ বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের সাথে কথা বলেন। পরবর্তীতে রাত আনুমানিক সাড়ে ৪ টার দিকে উভয় পক্ষের সাথে আলোচনা সাপেক্ষে সিদ্ধান্ত হয় আগামী ২২ ফেব্রæয়ারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা বোর্ডের সভায় ওই শিক্ষার্থীদের বিষয়ে সিদ্ধান্ত জানানো হবে। এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক পরিষদ ১ জরুরি সভায় আগামী ২৩ তারিখ পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল পরীক্ষাসহ সকল ক্লাস বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে বলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর প্রফেসর আবুল কাশেম চৌধুরী জানিয়েছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ