Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০, ১১ কার্তিক ১৪২৭, ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

পরিকল্পনার অভাবে পাঠক হারাচ্ছে লোকজ সাহিত্য

বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

বাঙালীর ইতিহাস ঐতেহ্যের সাথে জড়িত অমর একুশে বইমেলায় প্রতিদিন প্রকাশিত হচ্ছে নতুন নতুন বই। কিন্তু পরিকল্পনার অভাবে দেশীয় ঐতিহ্যের অংশ লোকজ সাহিত্য পাঠক হারাচ্ছে বলে মনে করছেন এরসাথে সংশ্লিষ্টরা। ফলে বাঙালীর হাজার বছরের ইতিহাসের অংশ এই বিশেষ সাহিত্য বিলুপ্তির শঙ্কা তৈরী হয়েছে। বাংলা সাহিত্যের এই বিশেষ ধারাকে টিকিয়ে রাখতে বিস্তর পরিকল্পনা গ্রহণের প্রস্তাব বিজ্ঞ মহলের।
লোকজ সাহিত্য বাংলার মাটি ও শেকড় পরতে পরতে মিশে আছে। এই বিষয়ে রচিত হয়েছে গল্প, কবিতা, গান, নাটক ও ছড়া। সাহিত্যের ইতিহাসের মত এটাও রয়েছে দীর্ঘ ইতিহাস। বাংলা সাহিত্যে সাধক, বাউলের জীবনী, দর্শন কর্ম নিয়েও লেখালেখি রয়েছে। মাটির গন্ধমাখা ও শেকড়সন্ধানী এসব সৃষ্টিকর্ম, বই মানুষকে খুব টানে। সারা বছর ধরেই এসব বইয়ের পাঠক পাওয়া যায়। এমনকি বছরের নানা সময়ে লোকজ ধারার বই প্রকাশও হয়। কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ সাহিত্যটি নিয়ে বাংলা একাডেমির কোন উদ্যোগ নেই।

তবে লোকজ সাহিত্যের নগন্য সংখ্যক বই প্রতিবছর মেলায় প্রকাশ হয় বলে জানা যায়। বইয়ের বিভিন্ন ক্যাটাগরি নিয়ে বাংলা একাডেমি আলাদা করে নতুন বইয়ের সংখ্যা প্রকাশ করলেও লোকজ সাহিত্য নিয়ে আলাদা কোন ক্যাটাগরি রাখা হয়না। ফলে এই সংশ্লিষ্ট বইয়ের সঠিক সংখ্যা জানাতে সক্ষম হয়নি বাংলা একাডেমির তথ্য ডেস্ক এর কর্মকর্তারা। তবে মেলার বিভিন্ন স্টল ঘুরে ১০ টির মত বই পাওয়া যায়। প্রকাশকরা বলছেন, লোকজ ধারার বইয়ের পাঠক সব শ্রেণীর মানুষ। এ ধারার বইয়ের কাটতিও বেশ ভালো। এ সাহিত্যের পাঠক দেশের বাইরে ভারতেও রয়েছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, লোকজ সাহিত্যের ধারাকে টিকিয়ে রাখতে এ সংশিষ্ট স্টলকে মেলায় সুযোগ করে দেয়ার পাশাপাশি নতুন প্রকাশিত বইয়ের প্রচারণায় মনোযোগ দিতে হবে। এর মাধ্যমে এ সাহিত্যকে ধরে রাখার পাশাপাশি মুনাফা অর্জনেরও সুযোগ রয়েছে।
শেষ সময়ে বিক্রির ধুম: বইমেলা তার নির্দিষ্ট সময়ের শেষ অংশে এসে উপনীত। ফলে শেষ সময়ে বেচাবিক্রি ভালো বলে জানাচ্ছেন বিক্রয়কর্মীরা। বইপ্রেমীরা মেলার শেষ দশকে এসে ঘোরাঘুরি থেকে পছন্দের বইটি কেনায় বেশি মনোযোগ দিচ্ছেন। মেলায় ঘুরতে আসা আব্দুর রহমান নামের এক সরকারি কর্মকর্তা বলেন, মেলায় এসে প্রতিবছরই বই কিনি। এ বছর শুরুর দিকে আসা হয়নি। তাই এখন আসলাম। ৫টা বই কিনেছি। তালিকায় আরও কয়েকটা বই রয়েছে। এগুলোও কিনে নেব।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বইমেলা

১ মার্চ, ২০২০
২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন