Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৩১ মার্চ ২০২০, ১৭ চৈত্র ১৪২৬, ০৫ শাবান ১৪৪১ হিজরী

ভারতে পরিকল্পিত মুসলিম গণহত্যা চলছে

বিভিন্ন ইসলামী দলের নেতৃবৃন্দ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০০ এএম

ভারতে পরিকল্পিতভাবে মুসলিম গণহত্যা চলছে। ভারতে নতুন নাগরিকত্ব আইন ও নাগরিকপঞ্জি তৈরির বিরুদ্ধে শান্তিপূর্ণভাবে প্রতিবাদের কারণে দেশটির সংখ্যালঘু মুসলমান স¤প্রদায়ের উপর নির্মম হত্যাযজ্ঞ শুরু হয়েছে। ইতোমধ্যে প্রায় ২৫ ব্যক্তি নিহত হয়েছে এবং বহু মানুষ আহত হয়ে জীবন-মৃত্যুর সঙ্গে লড়ছেন।

ভারতীতে মুসলিম গণহত্যা বন্ধে অবিলম্বে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক স¤প্রদায়কে কার্যকরী উদ্যোগ নিতে হবে। বিভিন্ন ইসলামী দলের নেতৃবৃন্দ পৃথক পৃথক বিবৃতিতে এসব কথা বলেন।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ : জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ এর মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী ভারতে মুসলিম গণহত্যার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে হত্যাযজ্ঞ বন্ধে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে কার্যকরী উদ্যোগ নেয়ার জোর দাবি জানিয়েছেন।

এক বিবৃতিতে জমিয়ত মহাসচিব আরো বলেছেন, ভারতের রাজধানী দিল্লিতে কয়েক দিন যাবত পদ্ধতিগত এই হত্যা চললেও দেশটির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, আদালত, রাজ্য সরকার; কেউই তা থামাতে এগিয়ে আসেনি।

তিনি বলেন, দিল্লীতে একের পর এক মসজিদে হামলা চলছে। সেখানে মসজিদের মিনারগুলোতে হিন্দুধর্মীয় প্রতীক স্থাপন করা হচ্ছে। যা মুসলমানদের ঈমান বিশ্বাস অনুভ‚তির প্রতি চরম অবমাননাকর।
এই হামলার সময় দেশটিতে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট উপস্থিত থাকলেও তিনি এ বিষয়ে উচ্চবাচ্য করেননি। যা যুক্তরাষ্ট্রের গণতান্ত্রিক ভাব-মর্যাদার জন্য চরম লজ্জাজনক।

খেলাফত মজলিস : ভারতের রাজধানী দিল্লীতে উগ্র হিন্দুত্ববাদীদের আক্রমণে ২১ জন নিহত, মুসলমানদের মসজিদ, ঘর-বাড়ী, ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানে অগিসংযোগের ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে খেলাফত মজলিসের আমীর মাওলানা মোহাম্মদ ইসহাক ও মহাসচিব ড. আহমদ আবদুল কাদের বলেছেন, ভারতে নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন হিন্দুত্ববাদী বিজেপি সরকার ও প্রশাসনের ছত্রছায়ায় দিল্লীতে নির্বিচারে মুসলমানদের হত্যা করা হচ্ছে।

নেতৃদ্বয় বলেন, মসজিদের মিনারে হনুমান পতাকা টাঙ্গিয়ে দেয়া হচ্ছে। গত ৩ দিনে সেখানে ২১ জনকে হত্যা করা হয়েছে। ভারতে মুসলমানদের বিরুদ্ধে এ ভয়াবহ আক্রমন ও হত্যাযজ্ঞ মানবাধিকারের চরম লঙ্ঘন। দিল্লীতে চলমান দাঙ্গায় মুসলমানদের জান-মাল ও ধর্মীয় স্থাপনা রক্ষায় ভারত সরকার সর্ম্পূণরূপে ব্যর্থ হয়েছে। অবিলম্বে দিল্লীতে চলমান এ ভয়াবহ দাঙ্গা ও পৈচাশিকতা বন্ধ করতে হবে। মুসলমানদেরর রক্ত নিয়ে হোলি খেলা বন্ধ করতে হবে। মুসলমানদের জান মাল রক্ষায় বিশ^ সম্প্রদায়কে এগিয়ে আসতে হবে।

ইসলামী ঐক্যজোট ঃ ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টির সভাপতি মাওলানা আবদুল লতিফ নেজামী ভারতের রাজধানী দিল্লীর অশোকনগরের একটি মসজিদে গেরুয়া পোশাকধারী বিজেপীর একদল উন্মত্ত সন্ত্রাসীর অগ্নিসংযোগ ও মসজিদের মিনারে হনুমানের পতাকা ঝুলানোর মতো ঘৃণ্য ঘটনার বিরুদ্ধে তীব্র ক্ষোভ ও নিন্দা প্রকাশ করে বলেছেন, বিজেপি যে ইসলাম ও মুসলমান বিদ্বেষের প্রতিচ্ছবি, তা আরেকবার বিশ্ব্ববাসির কাছে উলঙ্গভাবে ফুটে উঠেছে। এতে বিজেপি কর্মীদের ফ্যাসিবাদী চরিত্রের আবার নগ্ন বহিঃপ্রকাশ ঘটেছে।

তিনি চরম হিন্দুত্ববাদী উগ্রবাদী বিজেপি পরিচালিত ইসলাম ও মুসলমান বিরোধী ষড়যন্ত্র ও আগ্রাসন থেকে ভারতীয় মুসলমানদের ও তাঁদের ধর্মীয় প্রতিষ্ঠন রক্ষায় ঐক্যবদ্ধভাবে সোচ্চার হওয়ার জন্যে বিশে^র শান্তিকামী এবং মুসলিম উম্মাহ’র প্রতি আহ্বান জানান।



 

Show all comments
  • MH Feroz ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১১ এএম says : 0
    মোদি কে বলে দিও মসজিদে আগুন দিলে কি ইসলাম ধ্বংস হবেনা কারন মসজিদ রক্ষাকর্তা সৃষ্টিকর্তা নিজেই। মোদির থেকে বড় বড় জাতি ধ্বংস হয়েছে ।কিন্তু ইসলাম ইসলামের জায়গায় আছে।।।
    Total Reply(0) Reply
  • এস. এম. হাসান ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১২ এএম says : 0
    ভারতে মসজিদের মিনারে হনুমান ভক্তের পতাকা ঝুলানোর প্রানন্তর চেষ্টা!! ওরা কি জানেনা? ঈমানের পতাকা মসজিদে না অন্তরের আকাশে পত পত করে উড়ে..ওরা কি দেখেনা? চীন সরকার ইসলামের বাতি নিভাতে গিয়ে আল্লাহর এক গজব করোনা ভাইরাসে পুরো চীন ই অন্ধকারে নিমজ্জিত হয়ে গেছে!! এ ভারতবর্ষ ইংরেজদের থেকে স্বাধীন করেছিলো মুসলমানরাই,আজ তোমরা তার ক্রেডিট নিচ্ছো? মুসলমানদের অবদানকে অস্বীকার করছো? ভারত টিকে আছে একমাত্র মুসলমানদের জন্যই!! খুব বেশি দেরি নাই চীনের মত হয়তো তোমাদের উপরেও আসমানী গজব নাজিল হবে। দিল্লীর দাঙ্গা, হয়ত মুসলিম জাগরনের নব চেতনার প্রারম্ভিকা!!! হে আল্লাহ তুমি ভারতের প্রায় ২০কোটি আমার মুসলিম ভাইদের হেফাজত করো(আমীন)
    Total Reply(0) Reply
  • Yusuf Manik ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১২ এএম says : 2
    আল্লাহ তুমি মুসলিমদেরকে তোমার কুদরতি রহমত দ্বারা হেফাজত কর এবং তোমার ঘরকে তুমিই রক্ষা কর।আর জালিমদেরকে হেদায়েত দান কর নয়তো করোনার মতো একটু হাওয়া প্রবাহিত করে দেও, যেন মসজিদ বা ইসলামের ছায়াতল ছাড়া নিস্তার না পায়।
    Total Reply(0) Reply
  • Shahin Alam Talukdar ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১২ এএম says : 2
    বাংলাদেশ সরকারের উচিৎ রাস্টিয় ভাবে প্রতিবাদ করা,
    Total Reply(0) Reply
  • S M Sohag Rana ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১৩ এএম says : 4
    "ষড়যন্ত্র যদি দিল্লি থেকে রচিত হয় তবে ষড়যন্ত্রের জবাব আরশে আজীম থেকে রচিত হবে।"
    Total Reply(0) Reply
  • Payal Kamal ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১৩ এএম says : 3
    তবুও মুসলিম নামের কিছু জানুয়ারের ইন্ডিয়া প্রীতি দেখে মুখে থুথু দিতে ইচ্ছে করে।
    Total Reply(0) Reply
  • Thamina Rina ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১৩ এএম says : 2
    আসুন আমরা সবাই ভারতের সব জিনিস কেনা থেকে বিরত থাকি,
    Total Reply(0) Reply
  • Abu Sayid ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১৩ এএম says : 0
    এরা যে বাড়াবাড়ি শুরু করছে তাদের উপরে অচিরেই আল্লাহর গজব নেমে আসবে ইনশাআল্লাহ্ যেমন করে চীনে পবিত্র কোরআন মাজীদকে সংস্কার করার ঘোষনা দেয়ার পর পরই করোনা ভাইরাস আক্রমন করেছে,,
    Total Reply(0) Reply
  • Saeed Md Humayun Kobir ‌ ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১৪ এএম says : 0
    জিন্নাহ‌কে ধন্যবাদ দেশভা‌গের জন্য । তি‌নি এই কুচক্রী‌দের ম‌নোভাব বুঝ‌তে পে‌রে‌ছি‌লেন ।
    Total Reply(0) Reply
  • jack ali ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১১:৫৪ এএম says : 0
    O'Allah help the helpless muslims... and Punish Ibless modi and his party... wipe them out from the world... Ameen
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ