Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ০৫ এপ্রিল ২০২০, ২২ চৈত্র ১৪২৬, ১০ শাবান ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

দিল্লিকে কাশ্মীরের মতো করেই ঠান্ডা করা হবে : বিজেপি নেতা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:১২ পিএম

গত বৃহস্পতিবার (২৭ ফেব্রয়ারি) বিজেপির পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেছেন, ‘কাশ্মীরে উপদ্রবকারীদের সরকার যেভাবা ঠান্ডা করেছে, দিল্লিতেও সেই রাস্তাই নেওয়া হবে সবাইকে ঠান্ডা করতে। আমাদের সরকারই তা করবে।’ তাঁর প্রশ্ন, ‘জামিয়াতে গন্ডগোলের সময় পুলিশকে বাধা দিয়েছিল, এখন কেন ওরা পুলিশকে খোঁজাখুঁজি করছে?’
যদিও দিল্লি হিংসা নিয়ে এবারই প্রথম নয়। মঙ্গলবার এ প্রসঙ্গে তিনি বলেছিলেন, ‘যারা পুলিশকে পাথর মারছে, গুলি করছে তাদের কি ডেকে চা খাওয়ানো উচিত ছিল? এই ধরণের দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে আরও কড়া আচরণ করা উচিত।’ এখানেই থামেননি তিনি। তাঁর সংযোজন, ‘জামিয়াতে পুলিশ ঢুকে যখন দশজনকে গ্রেফতার করেছিল, তারা কেউ ছাত্র ছিল না। অথচ গোটা দেশে তুলকালাম হয়ে গেল। আর আজকে যখন তারাই আগুন জ্বালাচ্ছেন, তখন বিরোধী নেতারা দাঁড়িয়ে সেলফি তুলছেন, বলা হচ্ছে প্রশাসন কোথায়? সরকার অনেক সহ্য করেছে, আর নয়।’
তবে দিল্লি নিয়ে আক্রমণ করতে গিয়ে কংগ্রেস নেতা অধীর চৌধুরীকেও আক্রমণ করেছিলেন তিনি। বলেন, ‘অধীরবাবু চাকরি করেন সোনিয়া গান্ধীর অধীনে। তিনি একজন কর্মচারী। তিনি ভাবেন, এ দেশের মালিক গান্ধী পরিবার। সেটা হচ্ছে না। এর আগে যতবার আমেরিকার রাষ্ট্রপ্রধান এসেছেন, পাকিস্তান হয়ে এসেছেন। মোদী সরকার সেই ট্র্যাডিশন ভেঙে দিয়েছে। এর জন্যই সকলের খুশি হওয়া উচিত।’
এদিন অবশ্য দিল্লির পরিস্থিতি নিয়ে বলতে গিয়ে কাশ্মীর প্রসঙ্গ টেনে এনেছেন দিলীপ ঘোষ। ৩৭০ ধারা বিলোপের পর এখনও স্বাভাবিক হয়নি কাশ্মীর। যদিও বিজেপির রাজ্য সভাপতি বলছেন, ‘আমাদের সরকার একদম ঠিকঠাক ব্যবস্থা নিয়েছে। কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের পর উপদ্রবকারীদের ঠান্ডা করেছিল। এবার দিল্লিতেও সবাইকে ঠান্ডা করবে সরকার। কোনও চিন্তা করতে হবে না। ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে শান্ত হয়ে যাবে দিল্লি।’

 



 

Show all comments
  • jack ali ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ৪:৫০ পিএম says : 0
    O'Allah Iblees modi and party they are killing muslim--O'Allah destroy them-- No muslim country is helping-- O'Allah send your troops and destroy them forever and throw them into hellfire,, ameen
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ