Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯ আশ্বিন ১৪২৭, ০৬ সফর ১৪৪২ হিজরী

চীনের অলিম্পিক স্বর্ণজয়ী সাঁতারু সুন ৮ বছর নিষিদ্ধ

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ৮:৩১ পিএম

ডোপ পরীক্ষা না দেওয়ার কারণে ৮ বছরের জন্য নিষিদ্ধ হলেন চীনের তিন অলিম্পিক স্বর্ণজয়ী সাঁতারু সুন ইয়াং। ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে তার ডোপ পরীক্ষা দেয়ায় কথা থাকলেও তিনি তা দেননি। ফলে তাকে নিষিদ্ধ করার মতো কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হয় আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালতকে। শুক্রবার সুনকে নিষিদ্ধ করার কথা জানায় তারা। তবে এই শাস্তির বিরুদ্ধে আপিল করবেন বলে জানান চীনের তিনবারের অলিম্পিকজয়ী এই সাঁতারু। স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমকে সুন বলেন, ‘এটি অন্যায়। দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, আমি নিরপরাধ।’

সুন নিষিদ্ধ হলেও গত মাসে বিশ্ব সুইমিং ফেডারেশন বা ফিনা জানিয়েছিল ২৮ বছর বয়সী এই সাঁতারু ডোপিং-বিরোধী কোনো নিয়ম ভাঙেননি। পরে আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালতে আপিল করে বিশ্ব ডোপিং-বিরোধী সংস্থা বা ওয়াডা। তবে সেখানে সিদ্ধান্ত পাল্টায়। নিষিদ্ধ হন সুন।

সুনের এটি দ্বিতীয় অপরাধ। সে কারণেই নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ ৮ বছর। এর আগে ২০১৪ সালে নিষিদ্ধ উপাদান নেওয়া কারণে তিন মাস নিষিদ্ধ ছিলেন তিনি।

আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালত জানায়, ৮ বছর নিষিদ্ধের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আগামী ৩০ দিনের মধ্যে সুইস ফেডেরাল ট্রাইবুনালে চ্যালেঞ্জ করতে পারবেন সুন। গত নভেম্বরে আপিল শুনানিতে সুন বলেছিলেন, পরীক্ষাকারীরা তার বাড়িতে যাওয়ার পর তাদের পরিচয়ের প্রমাণ দিতে ব্যর্থ হওয়ায় তিনি তখন ডোপ পরীক্ষা দেননি।

চীনের ইতিহাসের অন্যতম সেরা সাঁতারু সুন ইয়াং ২০১৬ রিও অলিম্পিকে ২০০ মিটার ফ্রিস্টাইলে স্বর্ণ জিতেছিলেন। এর আগে ২০০৮ সালের অলিম্পিকে মাত্র ১৬ বছর বয়সে অংশ নিয়ে সুন ৪০০ মিটার ফ্রিস্টাইলে হয়েছিলেন ২৮তম। তবে চার বছর পর ২০১২ লন্ডন অলিম্পিকে সেই সুন প্রথম চীনা পুরুষ সাঁতারু হিসেবে দেশকে এনে দেন অলিম্পিক স্বর্ণপদক। জেতেন ৪০০ ও ১৫০০ মিটারের ফ্রিস্টাইলে সোনা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সাঁতার

১৪ সেপ্টেম্বর, ২০২০
৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন