Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ৪ কার্তিক ১৪২৭, ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

স্বতন্ত্র পরিচালকদের উপর নির্ভর করে বিনিয়োগকারীদের আস্থা : খায়রুল হোসেন

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২ মার্চ, ২০২০, ৭:০৯ পিএম

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের চেয়ারমান ড. এম খায়রুল হোসেন বলেন, স্টক এক্সচেঞ্জকে কেন্দ্র করে শেয়ারবাজারের সমস্ত কর্মকান্ড পরিচালিত হয়। তাই স্টক এক্সচেঞ্জের পরিচালনা পরিষদের কাছে বিনিয়োগকারীদের প্রত্যাশা অনেক বেশী। বিশেষ করে স্বতন্ত্র পরিচালকদের কর্মকান্ডের উপর নির্ভর করে বিনিয়োগকারীদের আস্থা। সেই সাথে নির্ভর করে বাজারের গতিশীলতা। সোমবার (০২ মার্চ) ডিএসইর নবগঠিত পরিচালনা পরিষদের সৌজন্য সাক্ষাতের সময় তিনি এসব কথা বলেন। এদিন ডিএসইর নতুন চেয়ারমান মো. ইউনুসু রহমানের নেতৃত্বে পরিচালনা পরিষদ কমিশনের সঙ্গে সাক্ষাত করেন। এ সময় বিএসইসির কমিশনার প্রফেসর মো. হেলাল উদ্দিন নিজামী, ড. স্বপন কুমার বালা, খোন্দকার কামালুজ্জামানসহ নির্বাহী পরিচালকরা উপস্থিত ছিলেন।

ডিএসইর নবগঠিত পরিচালনা পরিষদকে স্বাগত জানিয়ে বিএসইসি’র চেয়ারম্যান বলেন, সকলের উদ্দেশ্য শেয়ারবাজারকে সামনের দিকে এগিয়ে নেয়া। এর জন্য বিএসইসি’র পক্ষে যে সহযোগীতা করার দরকার, তা করা হবে।

সাক্ষাতকালে ডিএসই’র চেয়ারম্যান মো. ইউনুসুর রহমান বলেন, শেয়ারবাজারে যে উদ্দেশ্য নিয়ে ডিমিউচ্যুয়ালাইজেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে, সেই উদ্দেশ্যকে বাস্তবায়নের জন্য সংশ্লিষ্ট সকলের সঙ্গে আলাপ আলোচনার মাধ্যমে এগিয়ে নিয়ে যাবো। এ বিষয়ে সকলের সহযোগীতা কামনা করেন তিনি।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ ২০২১ সালে স্বাধীনতার ৫০ বর্ষ পূর্ণ হবে। এই ৫০ বছরের মধ্যে গত ১৫ বছরে অর্থনৈতিক অগ্রগতি দৃশ্যমান। বাংলাদেশ ১৫ বছরে সামাজিক ও আর্থিক খাতের সুচকে অনেকাংশে পার্শ্ববর্তী দেশগুলোর তুলনায় এগিয়ে আছে। একই সঙ্গে পার্শ্ববর্তী দেশগুলোর তুলনায় বাংলাদেশের জিডিপির অনুপাতে বাজার মূলধনের পরিমান খুবই কম। বাংলাদেশের জিডিপির অনুপাতে বাজার মূলধনের অনুপাত ১০০ শতাংশে উন্নীত করতে হবে। এর জন্য প্রয়োজন ভালো মৌলভিত্তি সম্পন্ন সিকিউরিটিজ। সকলের সমন্বিত প্রচেষ্টায় দেশের এই সম্ভাবনাময় খাতকে পুঁজি উত্তোলনের মূল চালিকা শক্তি হিসেবে পরিনত করে প্রধানমন্ত্রীর ভিশন ২০৩০ এবং ২০৪১ সালকে সামনে রেখে বাংলাদেশের অর্থনীতির অন্যান্য সেক্টর যে গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে, দেশের শেয়ারবাজারকেও সেভাবে এগিয়ে নিতে।

ডিএসই’র প্রতিনিধিদলে ছিলেন স্বতন্ত্র পরিচালক প্রফেসর ড. মো. মাসুদুর রহমান, সালমা নাসরিন, মো. মুনতাকিম আশরাফ, প্রফেসর ড. এ কে এম মাসুদ ও শেয়ারহোল্ডার পরিচালক মোহাম্মদ শাহজাহান, মো. শাকিল রিজভী, মিনহাজ মান্নান ইমন, ব্যবস্থাপনা পরিচালক কাজী সানাউল হক এবং মহাব্যবস্থাপক ও কোম্পানি সচিব মোহাম্মদ আসাদুর রহমান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ডিএসই


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ