Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ০১ নভেম্বর ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭, ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

পশ্চিমবঙ্গে বসবাসকারী সব বাংলাদেশিই ভারতের নাগরিক : মমতা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৪ মার্চ, ২০২০, ১২:২৭ পিএম

‘পশ্চিমবঙ্গে বসবাসরত সব বাংলাদেশিই ভারতের নাগরিক। নাগরিকত্বের জন্য নতুন করে তাদের আবেদন করার দরকার নেই।’ গতকাল মঙ্গলবার পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এসব কথা বলেন বলে ভারতের সরকারি সংবাদ সংস্থা পিটিআই এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।
কলকাতায় এক সমাবেশে অংশ নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, বাংলাদেশ থেকে যারা এসেছেন এবং নির্বাচনে ভোট দিয়েছেন; তাদের সবাই ভারতের নাগরিক। পুনরায় নাগরিকত্বের জন্য তাদের আবেদন করার দরকার নেই।
দিল্লির সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থতার দায়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দেশটির ক্ষমতাসীন সরকারের তীব্র সমালোচনা করেন মমতা। দিল্লির বিভিন্ন এলাকায় গত রোববারের ওই দাঙ্গায় অন্তত ৪৭ জনের প্রাণহানি ঘটে। কেন্দ্রীয় সরকারের সমালোচনা করে মমতা বলেন, তিনি পশ্চিমবঙ্গকে আরেকটি দিল্লি হতে দেবেন না।
তিনি বলেন, ‘যারা বাংলাদেশ থেকে এদেশে এসেছেন, তাদের সবাই ভারতের নাগরিকৃতারা নাগরিকত্ব পেয়েছেন। আবারও নাগরিকত্ব পাওয়ার জন্য আবেদন করার দরকার নেই। আপনারা ভোটাধিকার প্রয়োগ করে প্রধানমন্ত্রী এবং মুখ্যমন্ত্রী নির্বাচিত করেছেন। এখন তারা বলছেন যে, আপনারা নাগরিক নন- তাদের এসব কথা বিশ্বাস করবেন না।’
একজন মানুষকেও পশ্চিমবঙ্গ থেকে তাড়াতে দেবেন না বলে আশ্বাস দেন তৃণমূল কংগ্রেসের এই নেত্রী। তিনি বলেন, এই রাজ্যে বসবাসরত একজন শরণার্থীও নাগরিকত্বের তালিকা থেকে বাদ পড়বেন না।
মোদি সরকারের তীব্র সমালোচনা করে মমতা বলেন, ’দিল্লি রক্তে রঞ্জিত। ভুলে যাবেন না যে, এটা পশ্চিমবঙ্গ। দিল্লিতে যা ঘটেছে, তা কখনই এখানে ঘটবে না। আমরা পশ্চিমবঙ্গকে আরেকটি দিল্লি কিংবা উত্তরপ্রদেশ হতে দেব না।’



 

Show all comments
  • Sunrise. ৪ মার্চ, ২০২০, ১২:৪৬ পিএম says : 0
    West Bengal Muslim consideration would be great, if you are the peace leader.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মমতা

২০ ডিসেম্বর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন