Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৫ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

বাংলাদেশ-ভারত মৈত্রী এক্সপ্রেস বন্ধ

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৪ মার্চ, ২০২০, ১২:০২ এএম

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে বাংলাদেশ-ভারত মৈত্রী এক্সপ্রেস ট্রেন চলাচল বন্ধের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।
ঢাকাস্থ ভারতীয় হাইকমিশনার রীভা গাঙ্গুলি দাশ গতকাল শুক্রবার পররাষ্ট্র মন্ত্রী একে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে তার বাসায় বৈঠক করেন। পরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেন।
করোনাভাইরাসের কারণে বিশ্বের সব দেশের নাগরিকদের ভিসা স্থগিত করেছে ভারত সরকার। ১৩ মার্চ সন্ধ্যা ৬টা থেকে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত এ স্থগিতাদেশ বহাল থাকবে। করোনার সংক্রমণ বন্ধে ঢাকা-দিল্লি রুটের বিমানের ফ্লাইট ও ঢাকা-কলকাতা রুটের বাস বন্ধ করা হয়েছে। তবে গতকাল শুক্রবার পর্যন্ত চালু ছিল ঢাকা-কলকাতা রুটে চলাচলকারী ট্রেন মৈত্রী এক্সপ্রেস। গতকাল স্বল্পসংখ্যক যাত্রী নিয়েই রাজধানীর ক্যান্টনমেন্ট স্টেশন থেকে কলকাতার উদ্দেশে ছেড়ে গেছে ট্রেনটি।
বাংলাদেশ রেলওয়ে মার্কেটিংয়ের উপ-পরিচালক কালীকান্ত ঘোষ বলেন, আমরা যথারীতি ট্রেন চালাচ্ছি, অপরদিকে কলকাতা থেকেও সকালের ট্রেন ছেড়ে এসেছে ঢাকার উদ্দেশে। শুক্রবার সন্ধ্যা ছয়টা পর্যন্ত ভারত ইমিগ্রেশন এক্সটেনশন করেছে। সাধারণ ট্যুরিস্টদের ইমিগ্রেশন করা হবে, কোনো সমস্যা হবে না।
আগামীতে ট্রেনটি বন্ধ হতে পারে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, কলকাতায় আমাদের আগের যেসব যাত্রী আছেন, তাদেরতো নিয়ে আসতে হবে। তাই আমাদের সিদ্ধান্ত হয়েছে, আমরা কয়েকদিন ট্রেন চালাব। যদিও বেশিরভাগ সিট খালি যাবে। তিনি জানান, গতকাল ১৩ মার্চের টিকেট কেটেছিলেন ২৩৪ জন। তার মধ্যে ১১৪ জন যাত্রী নিয়ে বাংলাদেশ থেকে কলকাতার উদ্দেশে চলে গেল মৈত্রী এক্সপ্রেস। বাকিরা যাত্রা বাতিল করেছেন। অপরদিকে ৩১৩ জন যাত্রী নিয়ে কলকাতা থেকে ঢাকার পথে রওনা হয় ট্রেনটি।
এদিকে গতকাল শুক্রবার থেকে ঢাকা-কলকাতা রুটের বাস চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে আন্তর্জাতিক রুটে বাস পরিচালনা করা পরিবহন মালিকরা।
উল্লেখ্য, করোনা ভাইরাসের কারণে বিশ্বের সব দেশের নাগরিকদের ভিসা স্থগিত করেছে ভারত সরকার। গতকাল ১৩ মার্চ সন্ধ্যা ৬টা থেকে ১৫ এপ্রিল পর্যন্ত এ স্থগিতাদেশ বহাল থাকবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ