Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

যথাসময়েই টোকিও অলিম্পিক

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ মার্চ, ২০২০, ১২:০২ এএম

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনা ভাইরাসকে মহামারী হিসেবে আখ্যায়িত করলেও সঠিক সময়েই অলিম্পিক গেমস অনুষ্ঠিত হওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি (আইওসি)। যদিও করোনা ভাইরাসের কারণে বিশ্বব্যাপী সমস্ত ক্রীড়া ইভেন্ট স্থগিত হয়ে গেছে। এর মাঝে করোনাকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি (আইওসি) আশাবাদী, ঠিক সময়েই শুরু হবে টোকিও অলিম্পিক। পরশু ইন্টারন্যাশনাল অলিম্পিক কমিটি (আইওসি) নিজেদের প‚র্ব অবস্থানের পুনরাবৃত্তি জানিয়ে বলেছে, ২৪ জুলাই নির্ধারিত সময়েই শুরু হবে টোকিও অলিম্পিক। গেমসে অংশ নিতে যাওয়া ৩৩টি খেলার বৈশ্বিক কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলাপের পর নিজেদের এমন অবস্থানের কথা জানায় আইওসি। এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, দুইশ’র বেশি দেশ থেকে যে ১১ হাজারের বেশি অ্যাথলেট অংশ নেবেন, তারা যেন ‘যতটা সম্ভব সর্বোচ্চ’ প্রস্তুতি নিয়ে রাখেন।

আইওসির কোÐঅর্ডিনেশন কমিশনের কর্মকর্তা জন কোটস জানান, মে মাস পর্যন্ত দেখে অলিম্পিক বাতিল করার ঘোষণা করা হবে বলে যা প্রচার হচ্ছে, তা ঠিক নয়। অলিম্পিক ঠিক সময়েই হবে। তিনি আরো বলেন, ‘আমরা ২৪ জুলাইয়ে অলিম্পিক শুরু করার তোড়জোড় করছি।’

কিন্তু আইওসির বর্তমান ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং অস্ট্রেলীয় অলিম্পিক কমিটির প্রধান কোটস সুইজারল্যান্ড থেকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘টোকিও অলিম্পিকের এখনও চারমাস বাকি আছে। তাই আমরা সঠিক সময়েই অলিম্পিক আয়োজনের ব্যাপারে আশাবাদী।’

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে টোকিও অলিম্পিক নিয়ে মাস দুয়েক ধরেই অনিশ্চয়তা চলছে। গত সপ্তাহে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গেমস পিছিয়ে দেওয়ার অনুরোধ করেছিলেন। সোমবার জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের কথায় গেমস পেছানোর ইঙ্গিতও ছিল। তবে গতকাল গেমসে অংশ নেওয়া খেলাগুলোর সর্বোচ্চ কর্তৃপক্ষের অনলাইনে আলোচনার পর নির্ধারিত স‚চিতেই অনড় অবস্থান জানিয়েছে আইওসি।
আইওসির বর্তমান ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং অস্ট্রেলীয় অলিম্পিক কমিটির প্রধান কোটস সুইজারল্যান্ড থেকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘টোকিও অলিম্পিক আয়োজন করতে এখনও বদ্ধপরিকর আইওসি। যেহেতু গেমসের এখনও চার মাস বাকি, আমরা তাই এখন বড় সিদ্ধান্ত নেওয়ার দরকার দেখছি না। গেমসের জন্য অ্যাথলেটদের যথাসম্ভব সর্বোচ্চ প্রস্তুতি নিতে উদ্বুদ্ধ করছে আইওসি।’

আর্থিকসহ বিভিন্ন কারণে অলিম্পিক গেমস পেছানোর সিদ্ধান্ত না নেওয়া হলেও সম্ভাব্য একটি জটিলতায় পড়তে পারে আইওসি। এবারের আসরের দুইশ’র বেশি দেশের যে ১১ হাজারের মতো অ্যাথলেটের অংশ নেওয়ার কথা, তাদের মধ্যে ৫৭ শতাংশের খেলা নিশ্চিত হয়েছে। বাকি ৪৩ শতাংশ চ‚ড়ান্ত হওয়ার কথা বাছাইপর্বের মাধ্যমে। কিন্তু করোনাভাইরাসের প্রকোপে প্রায় সব দেশেই এখন খেলা বন্ধ। এমন অবস্থা বাকিদের চ‚ড়ান্ত করার বিষয়ে তাদের সংশ্নিষ্ট খেলার র‌্যাংকিং বা প‚র্বের সাফল্য বিবেচনায় নেওয়া হতে পারে বলে জানিয়েছে অলিম্পিকের বৈশ্বিক কর্তৃপক্ষ। এদিকে টোকিও গেমসের অর্গানাইজিং কমিটি জানিয়েছে, প‚র্ব স‚চি অনুযায়ী ২৬ মার্চ জাপানে অলিম্পিক মশালের র‌্যালি শুরু হবে।

উল্লেখ্য, সারা বিশ্বে এ পর্যন্ত প্রায় পৌনে দুই লাখ মানুষ এই মরণ ব্যাধি ভাইরাসে আক্রান্ত। আর এই ভাইরাসের কারণে মৃত্যু হয়েছে প্রায় সাত হাজার। যার বেশির ভাগই চীনে। সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সংখ্যার দিক থেকে এখনও চীনই এগিয়ে। স¤প্রতি অস্ট্রেলীয় সরকার পাঁচশোর বেশি মানুষের জমায়েতের উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। এরই মধ্যে বাতিল করা হয়েছে বেশির ভাগ ফুটবল টুর্নামেন্ট। সেই সঙ্গে অনেক দেশ স্থগিত করেছে তাদের ঘরোয়া সব ধরনের খেলা।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: অলিম্পিক

২৩ মার্চ, ২০২০
১৬ মার্চ, ২০২০
১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
১০ জানুয়ারি, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন