Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৫ মে ২০২০, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০১ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

করোনা মোকাবেলায় সকলকে ঐক্যবদ্ধ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন মির্জা ফখরুল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৯ মার্চ, ২০২০, ৬:৫১ পিএম

প্রাণঘাতি বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে সৃষ্ট সমস্যাকে জাতীয় সঙ্কট অভিহিত করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল আলমগীর এই দুর্যোগময় পরিস্থিতিতে দেশ ও জনগণের স্বার্থে সকলকে ঐক্যবদ্ধ ভূমিকা রাখার আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, বর্তমান পরিস্থিতি সন্দেহাতীতভাবে একটি বৈশ্বিক সমস্যা ও সকল রাষ্ট্রের জন্য সেটি জাতীয় সংকট। এই মহা-সংকট ও দুর্যোগময় পরিস্থিতিতে দেশ এবং জনগণের স্বার্থে সবাইকে যেকোন মূল্যে ঐক্যবদ্ধ ভূমিকা রাখার আহবান জানাচ্ছি।

বিশ^ব্যাপী মরণঘাতি কোভিড-১৯ করোনাভাইরাসের ছোবলে প্রবাসী বাংলাদেশীসহ ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে অগণিত মানুষের মর্মান্তিক প্রাণহানিতে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে রোববার গণমাধ্যমে পাঠানো এক শোক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের ভয়াবহতায় বিশ^বাসী এখন সীমাহীন আতঙ্কে দিন অতিবাহিত করছেন। করোনাভাইরাসের মহা আতঙ্কে সমগ্র বিশ্ব এক চরম অনিশ্চয়তার মধ্যে হাবুডুবু খাচ্ছে। প্রতি মুহূর্তে নতুন আক্রান্ত আর লাশের সারি যেন লম্বা হয়েই যাচ্ছে। লক ডাউন, আইসোলেশন, সেল্ফ কোয়ারেন্টাইনে সম্পূর্ণরুপে স্তব্ধ হয়ে পড়েছে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। চীন থেকে প্রথম ছড়িয়ে পড়া এই মহামারি ভাইরাস রোধে বাংলাদেশ সরকার উদাসীন না থাকলে এদেশে এর তীব্রতা হয়তো এতো প্রকট হতো না। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্রে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বেশী সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশী মৃত্যুবরণ করেছেন। আশঙ্কা করা হচ্ছে-এই মহামারিটি আরো কঠিন আকার ধারণ করে বাংলাদেশসহ বিশ^বাসীকে গ্রাস করতে লাগামহীন হয়ে ধেয়ে আসছে। প্রাণসংহারী এই ভাইরাসের আতঙ্কে বাংলাদেশসহ বিশ্ববাসী চরম উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছে। এই অবস্থার দ্রæত অবসান না হলে মানবসভ্যতার ভবিষ্যৎ কি হবে তা সহজেই অনুমেয়।

সকলকে কোয়ারেন্টাইনে থাকার আহ্বান জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, সরকারের সমন্বিত উদ্যোগে দলমত, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে প্রতিটি মানুষকে ‘লক ডাঊন’ ‘কোয়ারেন্টাইন’ কিংবা ‘সেলফ আইসোলেশন’ প্রক্রিয়া সম্পর্কে স্পষ্ট ধারণা দিতে হবে। নইলে এটি রোধ করা আদৌ সম্ভবপর নয়।

তিনি করোনাভাইরাসের আগ্রাসী ছোবল থেকে ইউরোপ, আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য, এশিয়া কিংবা বাংলাদেশসহ বিশে^র প্রতিটি মানুষকে রক্ষার জন্য মহান আল্লাহর করুণা ভিক্ষা চান। পাশাপাশি এই মরণঘাতি ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বাংলাদেশসহ সারাবিশে^ বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশী ও বিশে^র অগণিত মৃত্যুবরণকারীদের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন।



 

Show all comments
  • Alauddin ২৯ মার্চ, ২০২০, ৭:৩৯ পিএম says : 0
    Knowing yourself is better than advice other.
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Shah Alam Khan ২৯ মার্চ, ২০২০, ১০:২৮ পিএম says : 0
    বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফকরুল আলমগীর বলেছেন, “সরকারের সমন্বিত উদ্যোগে দলমত, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে প্রতিটি মানুষকে লক ডাউন, কোয়ারেন্টাইন কিংবা সেফ আইসোলেশন প্রক্রিয়া সম্পর্কে স্পষ্ট ধারনা দিতে হবে।“ আমদের দেশ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী যিনি শক্ত হাঁতে দেশের হাল ধরে আছেন তিনি এই মহামারি শুরু হওয়া থেকেই এসব সম্পর্কে পত্রপত্রিকায় ও ইল্কট্রনিক মিডিয়ার মাধ্যমে করোনাভাইরাস থেকে মুক্ত থাকার প্রকৃয়া সকলকে জানানোর জন্যে প্রচার চালিয়ে যাচ্ছিলেন। এখনও তিনি শক্ত হাতেই এই মহামারির সাথে মোকাবেলা করে যাচ্ছেন তবে তাঁর প্রচেষ্টার মধ্যে প্রবাসী বাংলাদেশীরা ব্যতিক্রম ঘটাচ্ছেন তাঁর কথা না শুনে। যেকারনে আজ বাংলাদেশে এই মহামারির থাবা লেগেছে। সর্বপ্রথম ইতালী থেকে ফেরত প্রবাসী তাঁর গ্রামে গিয়ে ঘরে আব্ধ থেকে কোয়ারেন্টাইনে থাকার কথা কিন্তু তিনি সেটা না করে স্বাভাবিক ভাবে চলাফেরা করায় করোনাভাইরাসের জীবানু অন্যের গায়ে সংক্রামিত হয়েছে। এর জন্যে সরকারকে দায়ী করা যায়না দায়ী করতে হবে এই ইতালী ফেরত ব্যাক্তিকে। আমার মতে তাঁকে সরকারের নির্দেশ কোয়ারেন্টাইনে না থাকার জন্যে উপযুক্ত সাজা দেয়া সরকারের দায়িত্ব। আল্লাহ্‌ আমাদেরকে নিজের ও অন্যের ভাল মন্দ বুঝে সেইভাবে চলার ক্ষমতা দান করুন। আমিন
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মির্জা ফখরুল


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ