Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৬ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

বিশ্বনাথে ৬ জুয়াড়িকে আটকের পর ছেড়ে দিল পুলিশ

বিশ্বনাথ (সিলেট) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১ এপ্রিল, ২০২০, ২:৫৩ পিএম

৩৫ হাজার টাকা ও জুয়ার সরঞ্জাম সহ হাতে নাতে ধরার পরও ৬ জুয়াড়িকে ছেড়ে দিয়েছে বিশ্বনাথ থানা পুলিশ। পুলিশের এমন কাণ্ডে এলাকার সাধারণ মানুষের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। (৩এপ্রিল) বুধবার রাত অনুমান ৮টার দিকে শরিষপুর গ্রামের ফারুক মিয়ার কলোনিতে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, বেশ কিছু দিন ধরে উপজেলার শরিষপুরস্থ ফারুক মিয়ার কলোনিতে, ট্রাক ড্রাইভার আবু তাহেরের রুমে জুয়া খেলা চলছে। বিষয়টি ওই এলাকার সচেতন মহলের নজরে পড়লে তারা এক যুবলীগ নেতার স্মরনাপন্ন হন। যুবলীগ নেতা বিষয়টি বিশ্বনাথ থানার এসআই রিগানকে জানান। এসআই রিগান খবর পেয়ে তাৎক্ষনিক একদল পুলিশ নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে জুয়া খেলার বোর্ড থেকে জুয়ার সরঞ্জাম ও ৩৫ হাজার টাকাসহ ৬ জুয়াড়িকে আটক করেন। জুয়াড়ীদের আটকের পর বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হয়ে যায় এবং এক পর্যায়ে জুয়াড়িদের তদবিরো ৬০ হাজার টাকার বিনিময়ে ৬ জুয়াড়ীকে ছেড়ে দেয়া হয়।

জুয়াড়ীরা হচ্ছেন, পূর্বচানসীর কাপন গ্রামের, মৃত আব্দুল্লার পুত্র নুর ইসলাম, একই গ্রামের মৃত ছমছু মিয়া (বান্দর) এর পুত্র রাজন আহমদ, মন্ডলকাপন গ্রামের তৈমুছ আলীর পুত্র সিরাজ আলী, হরিকলস গ্রামের আক্তার হোসেন, শরিষপুর গ্রামের মৃত স্বপন মিয়ার পুত্র মোক্তার হোসেন ও ভাঙ্গাড়ী ব্যবসায়ি আব্দুল কুদ্দুস।
এ ব্যাপারে এস আই রিগানকে টেলিফোনে কয়জন জুয়াড়ী আটক করেছেন জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিক পরিচয় জেনে, সাক্ষাতে আলাপ হবে এ কথা বলে ফোন কেটে দেন। সাবেক মেম্বার নুর মিয়া জানান, জুয়া খেলার আসরে পুলিশ হানা দিবে এমন খবরে অনেক লোক জড়ো হয়। কিন্তু ৬ জনকে হাতে নাতে আটক করা পর ৬০ হাজার টাকার বিনিময়ে তাদের ছেড়ে দেয়া হয়ায় এলাকায় প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে।

বিশ্বনাথ থানার ওসি শামীম মুসা জানান, এ ব্যাপারে তিনি কিছুই জনেন না। তবে বিষয়টি খতিয়ে দেখছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: পুলিশ

২৮ নভেম্বর, ২০২০
২৩ নভেম্বর, ২০২০
১৯ নভেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ