Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৫ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

কাশ্মীরের বাসিন্দাদের সংজ্ঞা বদলে দিলো মোদি সরকার

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১২:০৩ এএম

জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা বিলুপ্ত করে রাজ্যটিকে দুই কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভাগ করার প্রায় সাত মাস পর সেখানকার স্থায়ী বাসিন্দার সংজ্ঞাও বদলে দেয়া হয়েছে। বুধবার গভীর রাতে একটি প্রজ্ঞাপন প্রকাশ করেছে নরেন্দ্র মোদির সরকার। তাতে কাশ্মীদের বাসিন্দাদের নতুন পরিচয় দেয়া হয়েছে। খবর আলজাজিরা ও আনন্দবাজার পত্রিকার। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, যারা জম্মু-কাশ্মীরে ১৫ বছর ধরে বসবাস করছেন বা সাত বছর সেখানে পড়াশোনা করে সেখান থেকেই দশম বা দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষা দিয়েছেন, তারাই কেবল স্থায়ী বাসিন্দার (ডোমিসাইল) সনদ পেতে পারেন। কেন্দ্রীয় সরকার, রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা, কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় বা সরকারি গবেষণাগারের যেসব কর্মী জম্মু-কাশ্মীরে কাজ করেছেন, তাদের সন্তানরাও এ সুযোগ পাবেন। এতে মুসলমান সংখ্যাগরিষ্ঠ হিমালয় অঞ্চলটির জনমিতির অবস্থান বদলে যাবে বলে ধারণা বিশেষজ্ঞদের। অর্থাৎ রাজ্যটি আর মুসলমান সংখ্যাগরিষ্ঠ না থাকতে পারে। বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, শুধু এই স্থায়ী বাসিন্দারাই জম্মু-কাশ্মীর সরকারের নন-গেজেটেড স্তরের লেভেল ফোর পর্যন্ত সব পদে আবেদন করতে পারবেন। লেভেল ফোরের পদের মধ্যে আছে কনস্টেবল, জুনিয়র অ্যাসিস্ট্যান্ট। জম্মু-কাশ্মীর সরকারের বাকি পদগুলোর জন্য সব ভারতীয় নাগরিকই আবেদন করতে পারবেন বলে নতুন এ প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে। এএফপি।

 



 

Show all comments
  • আবুল হাসেম ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১:৩৯ এএম says : 1
    কাশ্মীরকে চুড়ান্ত স্বাধীনতার দিকেই ঠেলে দিলো! এখন আর জাতিসংঘের বসে থাকার সময় নেই! পূর্ব তিমুর, দক্ষিণ সুদানে যেভাবে স্বাধীনতা দিয়েছে, কাশ্মীরকে সেভাবেই স্বাধীনতা দিতে হবে! কাশ্মীরের জনগণ যা চায় তাই হবে! আমরা আরেকটি ফিলিস্তিন দেখতে চাইনা! দ্যা রিপাবলিক অব কাশ্মীর চাই!
    Total Reply(0) Reply
  • Mgm Kamrul ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১:৩৯ এএম says : 1
    ভারত ১০ টুকরা হবে। সেইটা আর বেশী দিন নেই।
    Total Reply(0) Reply
  • Miraj Hossain ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১:৩৯ এএম says : 1
    যত সংকট হবে তত তাড়াতাড়ি সমাধানের পথ বের হবে। কাশ্মীর স্বাধীনতার পথে আছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Habib Rahman ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১:৪০ এএম says : 1
    ভারতকে অবশ্যয় এই হত্যাযজ্ঞ,লাখ লাখ মায়ের কান্না,এত রক্তের মূল্য চোকাতে হবে,বহুবিভক্ত ইন্ডিয়ার মাধ্যমে।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Dilawar Patwary ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১:৪১ এএম says : 1
    এর মধ্য দি‌য়েই বিজয় হ‌বে ইসলা‌মের
    Total Reply(0) Reply
  • Abdur Rahman ৩ এপ্রিল, ২০২০, ৭:৪৬ এএম says : 0
    কাশ্মীরের মুসলমানেরা আপনারা সকলেই ইসলাম যে পদ্ধতিতে সংগ্রাম করতে বলেছেন নিজেকে স্বাধীন করতে বলেছেন আপনারা কাশ্মীরিরা ওই আল্লাহর দেওয়া পদ্ধতি অনুসরণ করেন,যতদিন পর্যন্ত আল্লাহর দেওয়া পদ্ধতি অনুসরণ না করবেন ততদিন পর্যন্ত ইসলাম এবং কাশ্মীরি কখনোই বিজয়ী হবে না । স্বাধীনতা চাই স্বাধীনতা চাই বলে চিল্লাচিল্লি করলে হবেনা, স্বাধীনতার জন্য সঠিক পদ্ধতিতে সামনে এগোতে হবে,তখন আর মুখে চিল্লাচিল্লি করে বলতে হবেনা স্বাধীনতা চাই স্বাধীনতা চাই আমাদেরকে স্বাধীনতা দিন, বরং তখন আপনারা এবং ইসলাম এমনি এমনিতেই বিজয়ী স্বাধীন হয়ে যাবে। আল্লাহপাক বলেন, وقاتلوا في سبيل الله حتى لاتكون فتنه ،হে নবী আপনি জিহাদ চালিয়ে যান যতক্ষণ না পর্যন্ত ফেতনা শেষ হয়ে যায়, তথা রাষ্ট্রীয়ভাবে ইসলাম বিজয় হয়ে যায় ।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কাশ্মীর


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ