Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬ আশ্বিন ১৪২৭, ০৩ সফর ১৪৪২ হিজরী

মেয়াদ বাড়াল ফিফা বাফুফের নির্বাহী কমিটির

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩ এপ্রিল, ২০২০, ১২:০৩ এএম

বিশ্বব্যাপী প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের কারণে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) সাধারণ সভা ও নির্বাচন স্থগিত হওয়ার সিদ্ধান্তের অনুমোদন দিয়েছে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা। এ সংক্রান্ত একটি নির্দেশনা বাফুফেকে দিয়েছে তারা। যেখানে বাফুফের বর্তমান নির্বাহী কমিটির মেয়াদ বাড়িয়েছে ফিফা। গতকাল বাফুফের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়। এছাড়া করোনার প্রভাবে দুস্থ মানুষদের পাশে থাকায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে বাফুফের ভূয়সী প্রশংসা করেছে ফিফা।

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের প্রভাবে বর্তমানে বিশ্বের সবকিছুই যেন স্থবির। ইতোমধ্যে বিশ্বের প্রায় ১৯৯ টি দেশের সাড়ে ৯ লাখেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন করোনাভাইরাসে। যেখানে মৃত্যুর সংখ্যা সাড়ে ৪৮ হাজারেরও বেশি। বাংলাদেশে এই ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ৫৬। যাদের মধ্যে মারা গেছেন ৬ জন। এই পরিস্থিতিতে বাফুফে তাদের সাধারণ সভা ও নির্বাচন অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করে গত ২৭ মার্চ। পরের দিন তারা ফিফাকে চিঠি দিয়ে নিজেদের সিদ্ধান্তের কথা জানায়। যে প্রেক্ষিতে ফিফা ৩১ মার্চ পাল্টা চিঠির মাধ্যমে বাফুফে নির্দেশনা দেয়। নির্দেশনায় বলা হয়, করোনাভাইরাস আতঙ্ক শেষ হলে এবং পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়া মাত্রই বাফুফে তাদের সাধারণ সভা ও নির্বাচনের আয়োজন করবে। এবং নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়া পর্যন্ত বাফুফের বর্তমান কার্যনির্বাহী কমিটিই দায়িত্বে থাকবে। এই কমিটির অধীনেই অনুষ্ঠিত হবে বাফুফের আগামী নির্বাচন। নতুন নির্বাচন না হওয়া পর্যন্ত বাফুফের বর্তমান কার্যনিবাহী কমিটিই দায়িত্ব পালন করবে।

এ প্রসঙ্গে বাফুফের সাধারণ সম্পাদক মো. আবু নাঈম সোহাগ বলেন, ‘ফিফা তাদের চিঠিতে জানিয়েছে, করোনাভাইরাস পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলেই যেন আমরা সাধারণ সভা ও নির্বাচন সেরে ফেলি। কারণ, নির্বাচন কবে হবে তা নির্ভর করছে পরিস্থিতি কবে স্বাভাবিক হবে তার উপর।’
পূর্ব নির্ধারিত দিনক্ষণ অনুযায়ী আগামী ২০ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল বাফুফের সাধারণ সভা ও নির্বাচন। এই নির্বাচনকে সামনে রেখে গঠিত নির্বাচন কমিশন ক’দিন আগে সিদ্ধান্ত নিয়েছিল আজ (৩ এপ্রিল) তারা তফসিল ঘোষণা করবে। কিন্তু এরপরেই করোনাভাইরাসের কারণে সরকার অফিস-আদালত বন্ধ ঘোষণা করলে বাফুফে নির্বাচন স্থগিত করে দেয়।

৩০ এপ্রিল শেষ হবে বাফুফের বর্তমান কমিটির মেয়াদ। এর আগেই নির্বাচন করার বাধ্যবাধকতা রয়েছে। তাই বাফুফে নির্বাচন স্থগিত করলেও ফিফার অনুমোদন প্রয়োজন ছিল। ফিফা সেই অনুমোদন দেয়ায় এখন ৩০ এপ্রিলের পর সাধারণ সভা ও নির্বাচন করার ব্যাপারে আর কোনো বাধা থাকলো না বাফুফের।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফিফা


আরও
আরও পড়ুন