Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৫ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

ইউরোপে লক্ষাধিক যুক্তরাষ্ট্রে বাড়ছে

শনাক্ত : ২৩,৭৩,০৭৭ মৃত : ১,৬৩,৬৪১ সুস্থ : ৬,১১,৮১০

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ এপ্রিল, ২০২০, ১১:৫২ পিএম

করোনার ত্রাসে ইউরোপ ও আমেরিকা জুড়ে আতঙ্ক বাড়ছেই। দুই মহাদেশেই কার্যত তান্ডবলীলা শুরু করেছে সংক্রমণ। এর মধ্যে শুধুমাত্র ইউরোপেই লক্ষাধিক মানুষ মারা গিয়েছেন যা সমগ্র পৃথিবীতে করোনায় মোট মৃতের সংখ্যার তিন ভাগের প্রায় দু’ভাগ।
গতকাল পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ২৩ লাখ ৭৩ হাজার ৭৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৬৩ হাজার ৬৪১ জনের। চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়েছেন ৬ লাখ ১১ হাজার ৮১০ জন। এর মধ্যে আমেরিকায় এখনও পর্যন্ত মারা গিয়েছেন ৩৯ হাজার মানুষ। দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গিয়েছেন এক হাজার ৮৯১ জন। আমেরিকায় সংক্রমণ ধরা পড়েছে সাত লাখ ২৫ হাজার মানুষের।
এদিকে গতকাল রাত পৌনে ১১টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মারা গেছে- যুক্তরাষ্ট্রে ৬৩৭, যুক্তরাজ্যে ৫৯৬, ইতালিতে ৪৩৩, স্পেনে ৪১০, ফ্রান্সে ৩৯৫, বেলজিয়ামে ২৩০, তুরস্কে ১২৭, মেক্সিকোতে ১০৪, ইরানে ৮৭, হল্যান্ডে ৮৩, রাশিয়ায় ৪৮, ইন্দোনেশিয়ায় ৪৭, কানাডায় ৩৯, ভারত ও সুইডেনে ২৯, পর্তুগালে ২৭ পাকিস্তানে ২৫ এবং হাঙ্গেরীতে ১৭ জন।
সময় যত এগোচ্ছে ততই ভয়াবহ আকার নিচ্ছে করোনা সংক্রমণ। দীর্ঘ থেকে দীর্ঘতর হচ্ছে মৃত্যুমিছিল। প্রতিদিনই তৈরি হচ্ছে একের পর এক সংখ্যার রেকর্ড। মৃতের সংখ্যার নিরিখে শীর্ষে পৌঁছে গিয়েছে আমেরিকা। এর পর রয়েছে ইটালি। দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ২৩ হাজার ২২৭, স্পেনে ২০ হাজার ৬৩৯, এরপরে ফ্রান্স, সেখানে ১৯ হাজার ৩২৩, ব্রিটেনে ১৫ হাজার ৪৬৪। পরিস্থিতি সবচেয়ে খারাপ আমেরিকায়। শুধুমাত্র নিউইয়র্কেই ১৩ হাজার ১৫৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে গত দু’সপ্তাহে এই প্রথম বার নিউইয়র্কে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা ৫৫০-র কম, এ কথা জানিয়েছেন সেখানকার গভর্নর অ্যান্ড্রু কুমো।
ইউরোপের মধ্যে জার্মানিতেই আক্রান্তের সংখ্যার তুলনায় মৃত্যুহার সবচেয়ে কম। মহামারি পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আছে জানিয়ে ধীরে ধীরে লকডাউন তুলে নেয়ারও চিন্তা করছে দেশটির সরকার। জার্মানিতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার নতুন রোগী শনাক্তের সংখ্যা কিছুটা কমেছে। এদিন সেখানে নতুন করে ২ হাজার ৪৫৮ জনের শরীরে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস পাওয়া গেছে। এর আগে শনিবার ৩ হাজার ৬০৯ জন রোগী শনাক্তের কথা জানিয়েছিল জার্মান কর্তৃপক্ষ। দেশটিতে এ পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে মোট ১ লাখ ৩৯ হাজার ৮৯৭ জন। গত কয়েকদিনে মৃত্যুহার কিছুটা কমেছে জার্মানিতে। গত শুক্রবার দেশটিতে করোনায় প্রাণহানির সংখ্যা বলা হয়েছিল ২৯৯ জন। শনিবার এ সংখ্যা কমে দাঁড়ায় ২৪২ জনে। সোমবার থেকেই কিছু দোকানপাট খুলে দেয়া হচ্ছে, সপ্তাহখানেকের মধ্যেই চালু হবে স্কুলগুলোও।
চীনে নতুন করে আরও ১৮ জনের সংক্রমণ ধরা পড়েছে। গত গত ১৭ মার্চের পর নতুন সংক্রমণের এই পরিসংখ্যানটা সবচেয়ে কম। পাকিস্তানে ইতিমধ্যেই আট হাজার মানুষের করোনা ধরা পড়েছে। দক্ষিণ কোরিয়ায় গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আট জনের শরীরে সংক্রমণ ধরা পড়েছে, যা গত দু’মাসে সবচেয়ে কম। ভারতে ১৫ হাজার ৭১২ জন শনাক্ত হয়েছে, মৃত্যু হয়েছে ৫০৭ জনের।
করোনা থাবা বসিয়েছে ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, মেক্সিকোর মতো লাতিন আমেরিকার দেশগুলিতেও। মিশর, নাইজেরিয়া-সহ আফ্রিকার একাধিক দেশেও করোনা সংক্রমণ ছড়িয়েছে। তবে সেখানে সংক্রমণের হার অনেকটাই কম। দক্ষিণ আফ্রিকায় এখন পর্যন্ত ২০ হাজার শনাক্ত এবং ১ হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে।
এদিকে, করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা নিয়ে অবাক হওয়ার মতো তথ্য দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ার স্টানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক। তাদের দাবি, বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ২৩ লাখ বলা হলেও এ সংখ্যাটি কম করে হলেও ১১ কোটি ৫০ লাখ। সূত্র : রয়টার্স, এএফপি।



 

Show all comments
  • Rony Ahmed ২০ এপ্রিল, ২০২০, ১:৪৩ এএম says : 0
    লকডাউননের জন্য বাংলাদেশ অনবদ্য উদাহরন।বি-বাড়ীয়া লকডাউনের মডেল পুরো বিশ্ব সমাদৃিত।
    Total Reply(0) Reply
  • Sikder Josim Harcuci ২০ এপ্রিল, ২০২০, ১:৪৩ এএম says : 0
    মূলকথা,, এই ভাইরাস এতো সহজে দুনিয়া থেকে যাচ্ছে না,, যদি মহান আল্লাহ রহম না করে,,,
    Total Reply(0) Reply
  • Abdul Khalek Mondal ২০ এপ্রিল, ২০২০, ১:৪৪ এএম says : 0
    বাংলাদেশের অবস্থা ভালো। বাংলাদেশে অনেক চিকিৎসা সামগ্রী আছে। আমাদের দেশে কোন কিছুরই অভাব নেই। বলতে টাকা লাগেনা তাই বললাম।
    Total Reply(0) Reply
  • Rasel Ahamed ২০ এপ্রিল, ২০২০, ১:৪৭ এএম says : 0
    পৃথিবীর সীমানা পেরিয়ে এবার মহাকাশেও থাবা বসিয়েছে করোনা। মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়া এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এক রুশ নভোচারী। গত শুক্রবার মহাকাশ থেকে ফেরার পর এভজিনি মিকরিন নামের ওই মহাকাশচারীর শরীরে করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে। মিকরিন কীভাবে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলেন তার কোনও স্পষ্ট ধারণা এখনও পাওয়া যায়নি। তবে এ ঘটনার পর উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন বিভিন্ন দেশের মহাকাশবিজ্ঞানীরা। খবর জিনিউজের। সায়েন্স জার্নাল নেট জানিয়েছে, গত সপ্তাহে একটি রকেট রাশিয়া থেকে মহাকাশের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছিল। সেই রকেটে এনার্জিয়া রকেট অ্যান্ড স্পেস করপোরেশনের ডেপুটি হেড এভজিনি মিকরিন ছিলেন। গত শুক্রবার তিনি মহাকাশ থেকে ফিরে এসেছেন। ফিরে আসার পরই তার শরীরে করোনার জীবাণু মিলেছে।
    Total Reply(0) Reply
  • মোঃ আনোয়ার আলী ২০ এপ্রিল, ২০২০, ৬:০১ এএম says : 0
    আল্লাহর ক্ষমতা অসীম! মানূষের ক্ষমতা সসীম। সারা বিশ্বের মানূষ হাড়ে হাড়ে টের পাচ্ছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Mohammed Kowaj Ali khan ২০ এপ্রিল, ২০২০, ৮:২৪ এএম says : 0
    ইনশাআল্লাহ। করোনা ভাইরাস মুক্ত থাকিতে সবাই পড়িবেন। লাহাওলাউয়ালা ক্বোয়াতা ইল্লা বিল্লা হিল আলিইল আযীম প্রত্যেক দিন একশত বার এবং সকল সময় অযু সহকারে থাকিবেন। এবং নাক্বের ব্যায়াম করিবেন। নাকের ব্যায়াম হইলো নাকের এক চাইট বন্ধ করিয়া অন্য সাইট দিয়া মূখ বন্ধ করিয়া বাতাস নাকের ভিতরে নেওয়া এবং বন্ধ সাইট খোলে স্বাস ছেরে দেওয়া। দেখিবেন। ইনশাআল্লাহ। সুস্থ থাকিতে পারিবেন। ইনশাআল্লাহ।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনা


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ