Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ২২ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

টেকনাফে ৭ গ্রামবাসীকে ডাকাত দলের অপহরণ

তিন লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবী

বিশেষ সংবাদদাতা, কক্সবাজার | প্রকাশের সময় : ৩০ এপ্রিল, ২০২০, ১২:১০ পিএম

টেকনাফের হোয়াইক্ষ্যং ইউনিয়নের মিনাজার এলাকার ৭ গ্রামবাসীকে অপহরণ করে পার্শ্ববর্তী পাহাড়ে নিয়ে মুক্তিপণ দাবী করে রোহিঙ্গা ডাকাত হাকিম বাহিনীর সদস্যরা। তাদের উদ্ধারে আজ অভিযানে নেমেছে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী।

জানা গেছে, ২৮ এপ্রিল রাত ৯ টার দিকে হোয়াইক্যং ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের মিনাবাজার পশ্চিম পাড়ার শাহেদ (২৫) পিতা- মোহাম্মদ হোছন, আকতার উল্লাহ্‌ (২৫) পিতা- মৌং আবুল কাসেম, মোঃ ইদ্রিস (২৬) পিতা- কাসেমসহ আরও ৪ জনসহ মোট ৭ জনকে একটি রোহিঙ্গা ডাকাত গ্রুপ অপহরণ করে পার্শ্ববর্তি পাহাড়ে নিয়ে যায়।

ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শামসুদ্দিন আহমদ জানান, গ্রামের ওই লোক গুলো তখন মিনাবাজারের পশ্চিমে পাহাড়ের ঘোনায় তাদের ধান ও ক্ষেত পাহারা দিতে সেখানে গিয়েছিল।

পরবর্তীতে ৪ জনকে ছেড়ে দিয়ে অপহৃত ইদ্রিস এর মোবাইল থেকে তার বাড়িতে কল দিয়ে নগদ তিন লক্ষ টাকা দাবী করে ডাকাতরা। টাকা না দিলে তাদেরকে খুন করা হবেবলে হুমকি দেয়া হয়। তারা আরো বলে দাবী কৃত টাকা না দিলে বা এই কথা পুলিশ বা অন্য কাউকে বললে পরিনতি আরো ভয়াবহ হবে।
এই ঘটনায় অপহৃতদের পরিবারের লোকজন আতঙ্কে রয়েছেন। অপহৃতদেরকে ডাকাতদের কবল থেকে উদ্ধারের আবেদন জানিয়েছেন।

এ প্রসঙ্গে হোয়াইক্যং পুলিশ ফাঁড়ীর ইনচার্জ এসআই মশিউর রহমান এর বক্তব্য হচ্ছে-তিনি বিষয়টি শুনেছেন। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করছেন।
উল্লেখ্য হোয়াই্যং ইউনিয়ন এর মীনা বাজার এলাকার পশ্চিমে পাহাড়ে রয়েছে রোহিঙ্গা ডাকাতদের একাধিক ঘাটি। সেখান থেকে রোহিঙ্গা ডাকাতরা মাদক নিয়ন্ত্রণ করে ডাকাতি ও সন্ত্রাসী কার্যকলাপ সংগঠিত করে আসছে দীর্ঘদিন থেকে। এমন খবরো আছে কুখ্যাত রোহিঙ্গা ডাকাত আব্দুল হাকিম এসব আস্তানায় ঘুরে বেড়ায়। আর সুবিধামতো সময়ে অপহরণ রাহাজানি সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করে এবং সেখান থেকেই মাদক পাচার নিয়ন্ত্রণ করে থাকে।

দুর্গম হওয়ায় এসব আস্তানা গুলোতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর নিয়মিত অভিযান একপ্রকার কঠিন ব্যাপার। তারপরেও কিছুদিন আগে র‍্যাব
হেলিকপ্টার নিয়ে এ সমস্ত আস্তানা গুলোতে অভিযান চালিয়েছিল।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: অপহরণ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ