Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১৩ কার্তিক ১৪২৭, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

করোনা মহামারিতে নওগাঁ জেলা আনসার ভিডিপির গরীব ও অসহায় সদস্যরা ত্রাণ পেল

নওগাঁ জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৩ মে, ২০২০, ৪:০৪ পিএম | আপডেট : ৫:৫৬ পিএম, ৩ মে, ২০২০

অচেনা করোনা ভাইরাস গোটা দুনিয়াকে আতংকিত করে তুলেছে। সমগ্র বিশ্বের ন্যায় বাংলাদেশেও মহামারী করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) ভয়ংকর সংকট তৈরি করেছে। দেশ জুড়ে এ করোনা ভাইরাসে জনজীবন আজ মারাত্মকভাবে বিপর্যস্ত। ঠিক তখনই গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার জরুরি ভিত্তিতে এটি নিয়ন্ত্রণে দ্রুততার সঙ্গে বহুমুখী কার্যকরি পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। করোনা ভাইরাসের কারণে কর্মহীন হয়ে পড়াসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষদের সরকার ঘরে ঘরে প্রধানমন্ত্রী উপহার সামগ্রিসহ নগদ টাকা ও ত্রাণ সামগ্রি পৌঁছে দিচ্ছে।
এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর মহাপরিচালক, মেজর জেলারেল কাজী শরীফ কায়কোবাদ, এনডিসি, পিএসসি, জি, এর নির্দেশনায় এ বাহিনীর প্রান্তিক পর্যায়ে প্রায় ৬১ লক্ষ সদস্যের মধ্যে স্বেচ্ছাসেবী ভিডিপি সদস্য-সদস্যাদের মাঝে পর্যায়ক্রমে সারাদেশে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ কার্যক্রম শুরু করেছে। গতকাল রাজশাহী রেঞ্জের নওগাঁ জেলার ১১ টি উপজেলায় ৯৯ টি ইউনিয়নে ৩ হাজার ৩ শত স্বেচ্ছাসেবী ভিডিপি সদস্য -সদস্যাদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ কাযর্ক্রম উদ্বোধন করা হয়েছে। আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর রেঞ্জ পরিচালক, মোঃ ফকরুল ইসলাম এর তত্ত্বাবধানে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ কাযর্ক্রম উদ্বোধন করেন আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর নওগাঁ জেলা কমান্ড্যান্ট মো: জহুরুল ইসলাম। এ সময় অন্যাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা মুহাঃ আব্দুল কাদীর, সদর উপজেলা আনসার ও ভিডিপির প্রশিক্ষক মোঃ মামুনুর রশিদ ও মোছা: রওশান আরা বেগমসহ অন্যান্য কর্মকর্তা–কর্মচারীগণ ও বাহিনীর অন্যান্য সদস্যবৃন্দ।
জানা গেছে, এই কর্মসূচির মাধ্যমে প্রায় ৫ লক্ষ ৫০ হাজার মানুষের এক সপ্তাহের খাবারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। দেশের ৬৪টি জেলার প্রতি উপজেলায় ৩০০ টি পরিবার হিসেবে ৪৯২ টি উপজেলায় মোট ১ লক্ষ ৪৭ হাজার ৬শত পরিবারে এক সপ্তাহের খাবার হিসেবে চাল, ডাল, তেল, আলু, পিয়াজ, সাবান ও মাস্ক বিতরণ কার্যক্রম পর্যায়ক্রমে চালু করা হয়েছে। প্রতি পরিবারে গড়ে ৪ জন করে সদস্য হলে প্রায় ৬ লক্ষ মানুষ এক সপ্তাহের খাদ্য সহায়তার আওতায় আসবে।
উল্লেখ্য, বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী সরকারের যথাযথ নির্দেশনা মোতাবেক মহামারী এই করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় দুর্যোগের শুরু থেকেই বিভিন্ন কার্যক্রমে অনন্য ভূমিকা রেখে যাচ্ছে। এই জটিল সংক্রামন রোগের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের পাশাপাশি মানবতার পক্ষে লড়াইয়েও বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনী কাজ করে যাচ্ছে। শুরু থেকেই এই বাহিনী জনসচেতনতায় লিফলেট বিতরণ, ব্যানার প্রদর্শন, সামাজিক দূরুত্ব ও হোমকোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করন, মাস্ক বিতরণ, ঘরে ঘরে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়াসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ কাজে অগ্রণী ভূমিকা পালন করে আসছে এ বাহিনী।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস

২৮ অক্টোবর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন