Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৬ আশ্বিন ১৪২৭, ০৩ সফর ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

সরকার টেলিভিশন ছাড়া কোথাও নেই সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ মে, ২০২০, ১২:০২ এএম

করোনা মোকাবেলায় সরকারকে টেলিভিশন ছাড়া আর কোথাও পাওয়া যায় না বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, সরকার কোথায়? রাস্তাতেও নেই। অর্থাৎ গোড়ায়-আগায়, মনে-গোপনে, কার্যালয়ে নেই। সরকার এক জায়গায় আছে শুধু টেলিভিশনে। এভরি বডি ইজ ইন দি টেলিভিশন, নো বডি ইজ অ্যানিহোয়্যার। গতকাল মঙ্গলবার গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।
শপিংমল খোলার সিদ্ধান্তের সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল বলেন, মল-শপিং মল খুলে দিচ্ছেন খুব ভালো কথা, ঈদে আপনার মানুষগুলো যারা কাজ করে, কাপড় তৈরি করে, কেনা-বেচা করে, ছোট-বড় ব্যবসায়ী তাদের জন্য প্রয়োজন আছে। সেটা কি মানুষের জীবনের বিনিময়ে। একটা মাস কি সেটা নিয়ন্ত্রণ করা যেত না, একটা মাস নিয়ন্ত্রণ করে সুযোগ সৃষ্টি করা যেত না। আসলে সরকার ব্যর্থ হয়েছে, সমাজিক দূরত্ব বজায় রাখার ব্যর্থতার কারণে আজকে দেশকে এক ভয়াবহ পরিণতির দিকে ঠেলে দিয়েছে।
বিএনপি মহাসচিব বলেন, অর্থনৈতিক কর্মকান্ড চালু রাখতে নাকি শপিং মল খুলছে! আমরাও তো চাই অর্থনৈতিক কর্মকান্ড চালু রাখতে হবে। বাট ওয়াট কজ। সেটা কি জনগণের জীবনের মূল্যে। তাদেরকে বাঁচিয়ে রেখেই তো সব কিছু করবেন। এটা তো রাষ্ট্র, রাষ্ট্র যারা পরিচালনা করেন তাদের দায়িত্ব দেশের মালিক জনগণকে বাঁচিয়ে রেখে কীভাবে তাদের কল্যাণ করা যায় তা দেখতে হবে।
লকডাউনে গার্মেন্টস খোলার বিষয়টি তুলে ধরে বিএনপির এই নেতা বলেন, এখন সবই খুলে দেয়া হয়েছে। আমরা টেলিভিশনের যেটা দেখছি সেটা হচ্ছে-ভয়ঙ্কর পরিস্থিতি একটা। প্রায় বেশির ভাগ কারখানায় নিরাপত্তার যে ন্যূনতম ব্যবস্থা, গার্মেন্টস শ্রমিকদের বেতন-ভাতা পরিশোধের জন্য সরকার ঋণ প্যাকেজ ঘোষণা করলেও শ্রমিকরা ‘এখনো’ বেতন-ভাতা পাননি।
কৃষিখাতে প্রসঙ্গে টেনে ফখরুল বলেন, সরকার বলছেন, ২২ লাখ মেট্রিক টন চাল কিনবেন। এখন পর্যন্ত বোরো ধান কেনার কাজ শুরু হয়নি। যার ফলে কৃষকেরা ক্ষেতের মধ্যে মাত্র ৬শ’ টাকা মূল্যে ধান বিক্রি করছে। ময়মনসিংহ হাওরাঞ্চলে এই দামে ধান কৃষকরা বিক্রি করছে বলে আমার কাছে খবর এসেছে। সরকারের স্বাস্থ্য ব্যবস্থার সমালোচনা করে তিনি বলেন, সবচেয়ে বড় সমস্যা স্বাস্থ্য ব্যবস্থা। এটা সম্পূর্ণভাবে ভেঙে পড়েছে। টেস্ট করাতে গিয়ে তিন ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থেকে পড়ে মারা গেছেন। এটা মর্মান্তিক। হাসপাতালগুলোতে কোন চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে না।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস

২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

আরও
আরও পড়ুন