Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ২২ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

প্রেসিডেন্টের অধ্যাদেশ চলতি সপ্তাহেই

ভার্চ্যুয়াল আদালত

সাঈদ আহমেদ : | প্রকাশের সময় : ১০ মে, ২০২০, ১২:০১ এএম

ডিজিটাল ফরম্যাটে আদালত চালুর (ভার্চ্যুয়াল কোর্ট) লক্ষ্যে চলতি সপ্তাহেই জারি হতে পারে হাইকোর্টে বিধি সংশোধন সংক্রান্ত অধ্যাদেশ। সাংবিধানিক ক্ষমতাবলে প্রেসিডেন্ট এ অধ্যাদেশ জারি করবেন। আইনমন্ত্রণালয়ের নির্ভরযোগ্য সূত্র জানিয়েছে এ তথ্য।
সূত্রমতে, গত ৬ মে ভিডিও কনফারেন্সসহ অন্যান্য ডিজিটাল মাধ্যমে আদালতের কার্যক্রম চালানোর সুযোগ তৈরি করতে আদালত কর্তৃক তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার অধ্যাদেশ, ২০২০-এর খসড়া নীতিগত ও চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। প্রেসিডেন্ট এ-সংক্রান্ত অধ্যাদেশ জারি করতে পারেন। এ লক্ষ্যে আইনমন্ত্রণালয় মহামান্য প্রেসিডেন্টের কাছে প্রেরণের জন্য সংশোধিত বিধির সার-সংক্ষেপও তৈরি করেছে।
এদিকে ভার্চ্যুয়াল কোর্ট চালুর লক্ষ্যে হাইকোর্ট রুলস সংশোধনে ৫ সদস্যের কমিটি গঠন করেছে সুপ্রিম কোর্ট। গতকাল শনিবার রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন সুপ্রিম কোর্টের মুখপাত্র ও স্পেশাল অফিসার ব্যারিস্টার মোহাম্মদ সাইফুর রহমান। ‘ইনকিলাব’কে তিনি জানান,করোনা পরিস্থিতিতে ভার্চ্যুয়াল কোর্ট সিস্টেম চালু করতে হাইকোর্ট রুলস সংশোধনে কমিটি গঠন করেছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন। হাইকোর্ট বিভাগের সিনিয়র বিচারপতি ফারাহ মাহবুবকে প্রধান করে গঠন করা হয়েছে এ কমিটি। বিচারপতি ওবায়দুল হাসান,বচারপতি জে বি এম হাসান,বিচারপতি সহিদুল করিম এবং বিচারপতি এস এম কুদ্দুস জামান কমিটির অপর চার সদস্য। গত সপ্তাহে গঠিত এই কমিটি ইতোমধ্যে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে দুটি বৈঠক করেছেন। বৈঠকে ভার্চ্যুয়াল কোর্টের নতুন এই কনসেপ্টকে বিচারকাজের সাথে সংশ্লিষ্ট সবার মাঝে পরিচিত করানোর বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। করোনাভাইরাসের কারণে উচ্চ আদালতের কার্যক্রম বন্ধ থাকায় মানুষ দীর্ঘদিন ধরে মৌলিক অধিকার রক্ষায় আইনের আশ্রয় লাভের অধিকার থেকে বঞ্চিত রয়েছেন। তাই ভার্চ্যুয়াল কোার্ট সিস্টেম পরিচালনার মাধ্যমে স্বাস্থ্যঝুঁকি এড়িয়ে সহজে বিচার পাওয়ার পথকে কীভাবে সুগম করা যায় সে বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। ভার্চ্যুয়াল কোর্ট সিস্টেম নিয়ে রাষ্ট্রপতির অধ্যাদেশ জারির পরই হাইকোর্ট রুলসে তা অন্তর্ভুক্ত করা হবে বলে জানান ব্যারিস্টার সাইফুর রহমান।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: প্রেসিডেন্ট


আরও
আরও পড়ুন