Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১৪ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

মা দিবসকে ঘিরে নেটিজেনদের অনুভূতি

সোশ্যাল মিডিয়া ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১০ মে, ২০২০, ৬:৪৬ পিএম

যারা গর্ভে জন্ম, যারা হাতে বেড়ে ওঠা; তিনি হলে মা। পৃথিবীর সকল সন্তানের সবচেয়ে কাছের মানুষ ও আপনজন। প্রত্যেকটি মানুষের কাছে ‘মা’ কি বা কে, তা ভাষার প্রকাশ করা সম্ভব নয়। ‘মা’ ডাকের মাধ্যমে হৃদয়ের অতল গহ্বরে এক অনাবিল সুখ পাওয়া যায়। আজ মে মাসের দ্বিতীয় রবিবার। এই দিনটিকে বিশ্ব মা দিবস হিসেবে পালন করা হয়। দিবসটি উপলক্ষে ফেইসবুক, টুইটারসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ‘মা’কে নিয়ে নিজেদের নানা অনুভূতি প্রকাশ করেছে নেটিজেনরা।

সাংবাদিক ও গবেষক মেহেদী হাসান পলাশ তার ফেইসবুক ওয়ালে লিখেন, ‘পশ্চিমা বিশ্বে সন্তান বড় হলে পিতামাতার থেকে আলাদা হয়ে যায়। বছরে একটি বিশেষ দিনে মাকে স্মরণ করার জন্য মা দিবস সৃষ্টি করেছে। কর্পোরেট কোম্পানীগুলো বাণিজ্যিক স্বার্থে এসব দিবস প্রমোট করে। কিন্তু আমাদের কথা আলাদা। তবে বিশ্ব মা দিবসে ফেসবুকে মায়ের ছবি দিয়ে ডিজিটাল ভালবাসা প্রকাশের চেয়ে মায়ের পাশে গিয়ে একটু বসুন, তার সাথে সুন্দরভাবে কথা বলুন, কুশলাদী জানার চেষ্টা করুন, কোনো সমস্যা থাকলে সমাধান করুন। তার প্রতি কৃতকর্মের জন্য ক্ষমা চান। মায়ের সুস্থ জিন্দেগীর জন্য আল্লাহর কাছে দোয়া করুন। যাদের মা কাছে থাকেনা তারা টেলিফোনে এ কাজগুলো করুন যতোটা সম্ভব। যাদের মা বেঁচে নেই তারা মায়ের মাগফেরাত কামনা করে দোয়া করুন, রাব্বির হামহুমা কামা.....। মনে রাখবেন এটা শুধু মা দিবসের জন্য নয়, এটা প্রতিদিনের, প্রতিক্ষণের কাজ।’

‘আমার পৃথিবী....আমার মা... মা দিবসে সকল মাকে শুভেচ্ছা। জন্ম দিয়েছো তুমি মাগো, তাই তোমায় ভালবাসি।’ - লিখেন ফয়সাল ইবনে আলম।

মায়েদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে প্রিন্স আবদুল্লাহ লিখেন, ‘পৃথিবীর সবচেয়ে মধুর শব্দ হচ্ছে ‘মা’। যার মা আছে, সে পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ সুখী। জন্মের পর যে শব্দটি প্রথম বলতে শিখেছি তা হচ্ছে মা। আমি আমার মাকে সবচেয়ে বেশি ভালবাসি। আর মায়ের সাথে পৃথিবীর কোনো কিছুর তুলনা চলে না। মায়ের পায়ের নিচেই রয়েছে সন্তানের বেহেশত। মা দিবসে পৃথিবীর সকল মায়ের প্রতি রইলো আমার ভালোবাসা ও শ্রদ্ধা।’

প্রিয়তমা পল মজুমদার লিখেন, ‘কোনো নির্দিষ্ট দিনকে মাতৃ দিবস পালনের সিদ্ধান্তে আমি নারাজ । মাতৃতের কোনো দিন হয় না।সব মেয়েদের মধ্যেই তা সহজাতভাবেই নিহিত থাকে।তাই তো এই বাড়ি আসার পর কাকিমা আর বৌমা ডাকে আমি তা অনুভব করেছি।তবু আজকের দিনের একটা বিশেষ গুরুত্ব আছে, কোন দিন সেভাবে বলা হয়ে ওঠেনি- অনেক ধন্যবাদ এক মাকে যে আমায় পৃথিবীর আলো দেখিয়েছে।ধন্যবাদ আরেক মাকে যিনি আমাকে এমন একজন জীবন সজ্ঞী উপহার দিয়েছেন। ধন্যবাদ কাকিমা, জেঠীমা ও পিসিমা(পিসিমনি),তোমাদের থেকেও অনেক কিছুই শিখেছি। হ্যাপী মাদারস ডে।’

‘‘৩৬৫ দিনই আমার জন্য মা দিবস, বিশেষ দিন লাগবে কেন মা কে ভালবাসতে! ‘কখনো দেখিনি আমি জান্নাতের সুখ/দেখেছি পরাণ খুলে মায়ের হাঁসি মুখ।’’ - লিখেন সাংবাদিক সায়ীদ আবদুল মালিক।

অভিনেতা আফফান মিতুল লিখেন, ‘সবার মা সবার কাছে সেরা সুন্দরী, সেরা ভালো মানুষ, সেরা রাঁধুনি, আমার মাও এর ব্যতিক্রম নয়। আজ বিশ্ব মা দিবস। পৃথিবীর সব মাকে মা দিবসের শুভেচ্ছা জানাই। আমি অভিনয়শিল্পী হয়েছি, যার পুরোটাই অবদান আমার আম্মুর। ছোটবেলা থেকে পড়াশোনার পাশাপাশি ছবি আঁকা, গান শেখা, পরিপাটি হয়ে থাকা, সবকিছুই শিখিয়েছিলেন আমার মা। আমি শিল্পমনা হয়েছি শুধুমাত্র আমার মায়ের জন্যেই। আমার মা আমার সবচেয়ে বড় শিক্ষক। মা দিবসে আপনাদের সবার কাছে আমার মায়ের জন্য দোয়া চাচ্ছি, আপনাদের মায়েদের জন্যেও আমার অন্তর থেকে দোয়া রইল। ’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সোশাল মিডিয়া


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ