Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৭ জুলাই ২০২০, ২৩ আষাঢ় ১৪২৭, ১৫ যিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী

সরকারকে মেকি আত্মম্ভরিতা দেশকে ভয়াবহ সঙ্কটের দিকে ঠেলে দিচ্ছে -আ স ম আবদুর রব

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৫ মে, ২০২০, ৪:১২ পিএম

সরকারের মেকি আত্মম্ভরিতা ও একনায়কসুলভ মনোভাব দেশকে ভয়াবহ সঙ্কটের দিকে ঠেলে দিচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল জেএসডি সভাপতি আ স ম আবদুর রব। শুক্রবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তিনি একথা বলেন। তিনি ভয়াবহ করোনা সংকট মোকাবেলায় সরকারকে মেকি আত্মম্ভরিতা ও একনায়কসুলভ মনোভাব পরিহার করে দ্রুত জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলার আহ্বান জানান।

আ স ম আবদুর রব বলেন, দেশে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা, একই সঙ্গে বাড়ছে মৃত্যুও। আমাদের মতো দেশে আক্রান্ত এবং মৃতের সংখ্যা ক্রমাগত বাড়তে থাকলে তা নিয়ন্ত্রণ করা খুবই কঠিন হয়ে পড়বে। ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব সর্বোচ্চ মাত্রায় গেলে আমাদেরকে অনেক মূল্য দিতে হবে।
তিনি বলেন, যথাযথ স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা ব্যবস্থা গড়ে তুলতে না পারলে কমিউনিটি সংক্রমণ ব্যাপকভাবে বৃদ্ধি পাবে এবং তখন এই পরিস্থিতি সামাল দেওয়া খুব কঠিন হয়ে পড়বে। এখনো সংক্রমিত মানুষের সংখ্যা সঠিকভাবে নির্ণয় করার ক্ষেত্রে আমাদের সক্ষমতার যথেষ্ট অভাব রয়েছে। তাছাড়া সরকারের প্রকাশ করা মৃতের সংখ্যা নিয়েও দেশবাসীর মনে শঙ্কা তৈরি হয়েছে। অন্যদিকে করোনা পরিস্থিতি বাংলাদেশের আর্থসামাজিক অবস্থায় বড় ধরনের নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে, লাখ লাখ মানুষকে দারিদ্র্য সীমার নিচে নামিয়ে আনছে। করোনা বিস্তার প্রতিরোধ, আক্রান্তদের চিকিৎসা, মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা এবং এদের কর্মসংস্থান করাই বাংলাদেশের জন্য এখন বড় চ্যালেঞ্জ। করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধ, কর্মহীন মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণ, লকডাউন কার্যকর করাসহ কোনক্ষেত্রেই সরকার সফল হতে পারছেনা। এর মূল কারণ সরকারের মেকি আত্মম্ভরিতা, নিজ সক্ষমতা মূল্যায়নে ব্যর্থতা এবং একনায়ক সুলভ মনোভাব। সরকারের একলা চলো নীতি করোনা সংকটকে ভয়াবহ পরিণতির দিকে ঠেলে দিচ্ছে। তাই সংকটের এই পর্যায়ে অবিলম্বে সকল রাজনৈতিক দল পেশাজীবী সামাজিক সংগঠনের সমন্বয়ে বৃহত্তর জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলতে হবে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আ স ম আবদুর রব


আরও
আরও পড়ুন