Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৫ মে ২০২০, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০১ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

করোনা ঠেকাতে যা করবেন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০২০, ১২:০২ এএম

করোনাভাইরাস আতঙ্ক চারদিকে বিরাজ করছে। ঘরের বাইরে সুরক্ষা নিশ্চিত করেই বের হতে হয়। কিন্তু ঘরের দিকে কি নজর দিচ্ছেন? এ সময় ঘরবাড়ি পরিষ্কারের দিকে বাড়তি নজর দিতে হবে। প্রতিটি ঘরকেই জীবাণুমুক্ত রাখতে এখন অতিরিক্ত যত্ম প্রয়োজন।

গরম পানিতে গুড়া সাবান মিশিয়ে ঘরের মেঝে, জানলার পাটা, রান্নাঘর, বাথরুম সবই পরিস্কার করা যায়। কিন্তু তাতে শুধু নোংরা পরিষ্কার হয়, জীবাণুমুক্ত নয়। ঘরকে জীবাণুমুক্ত করতে প্রয়োজন কিছু বাড়তি সতর্কতার।
করোনার এই সময় বাড়িতে লোকজনের আনাগোনা নেই। তবে ধীরে ধীরে লকডাউন উঠলে নিয়ম মেনেই হয়তো আমরা স্বাভাবিক জীবনে ফিরব। এরপর বাইরে যাতায়াত বাড়লে, লোকজনের আনাগোনা শুরু হলে, বাড়ির কাজের সহায়করা ফিরলে ঘরবাড়ি পরিষ্কারের প্রয়োজনীয়তা আরও বাড়বে।

ঠিক কী কী উপায়ে ঘরবাড়ি পরিষ্কারের প্রতি বাড়তি নজর দেওয়া সম্ভব? জেনে নিন তেমন কিছু টিপ্স। এই সময় ঘরবাড়ি পরিষ্কারের কাজে ভরসা করতে পারেন অ্যালকোহল, প্যারক্সাইড বা ক্লোরিনযুক্ত কিছু উপাদানের উপর। এককথায় এদের ‘ক্লিনিং এজেন্ট’ বলে। সাধারণ ওষুধের দোকানেই এগুলো পাওয়া যায়। এর সঙ্গে জীবাণুমুক্ত করার উপযোগী ওয়েট টিস্যুও কিনে রাখুন। এ সব দিয়ে ঘরবাড়ি-বাথরুম পরিষ্কার করুন।
ঘর মোছার সংখ্যাটা বাড়িয়ে নিন। দিনে যেখানে দু’বার মুছতেন, সেখানে চারবার মুছুন। ঘর ঝাড়া-মোছার সঙ্গে কিন্তু ফ্যান ও এসি পরিষ্কার করাটাও খুব দরকারি। ঘর ঝাড়ামোছার সময় রোজই ফ্যান মুছে নিন। এসি সার্ভিসিং বন্ধ থাকলেও উপর উপর যতটা পারা যায় পরিষ্কার রাখুন।

সাধারণত, বাড়িতে মেঝে গুড়া সাবান পানিতে মিশিয়ে মুছে নিলেই চলবে। কিন্তু এই সময় বার বার বাড়ির প্রতিটি সারফেসও একই ভাবে জীবাণুমুক্ত করতে হবে। তবে জীবাণুমুক্ত করার আগে জায়গাটা একেবারে পরিষ্কার করে নিন। ময়লা জমে থাকলে কিন্তু জীবাণুমুক্ত করার সলিউশনও কোনও কাজ করবে না।
ঘরবাড়ি পরিষ্কারের ক্ষেত্রে ফ্রিজ-ওয়াশিং মেশিন এগুলোও পড়ে। ফ্রিজের ভিতর লেবু কেটে রেখে দিন। কোনও দুর্গন্ধ হবে না। এ ছাড়া ফ্রিজ ও ওয়াশিং মেশিনের বেলায় প্রয়োজনীয় সলিউশন দিয়ে বাইরের দিকটা মুছে নিন।
বাড়ির চার পাশে কিংবা ছাদ বাগান, টবে আগাছা হলে নিজেই পরিষ্কারের চেষ্টা করুন। না হলে প্রতি দিন জীবাণুনাশক স্প্রে করুন। সূত্র : রিডার্স ডাইজেস্ট।



 

Show all comments
  • Mohammed Kowaj Ali khan ১৭ মে, ২০২০, ৮:৪১ এএম says : 0
    করোনা ভাইরাসমুক্ত থাকিতে পারিবেন। ইনশাআল্লাহ। যে ভাবেই থাকেন ইসলামধর্ম নিয়ে থাকেন দেখিবেন। ইনশাআল্লাহ।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ