Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৪ জুলাই ২০২০, ৩০ আষাঢ় ১৪২৭, ২২ যিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

গত ২৪ ঘণ্টায় ২০৪ পুলিশ করোনায় আক্রান্ত

মোট আক্রান্ত ৫৩৩৩

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২ জুন, ২০২০, ৪:২৯ পিএম

গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরও ২০৪ জন পুলিশ সদস্য করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে ভাইরাসটিতে পুলিশে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫হাজার ৩৩৩জন। গত সোমবার এ সংখ্যা ছিল ৫ হাজার ১২৯ জনে। মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত সারাদেশের পুলিশ ইউনিটের তথ্য বিশ্লেষণে আক্রান্তের বিষয়টি জানা গেছে। আক্রান্তদের মধ্যে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) সদস্য ১ হাজার ৭০৯জন। আক্রান্তদের মধ্যে মাঠপর্যায়ের পুলিশ সদস্যই বেশি। আর এ পর্যন্ত মারা গেছেন ১৫ জন সদস্য। পুলিশ সদরদফতর সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।
সূত্র জানায়, সুস্থ হওয়া বেশিরভাগ পুলিশ সদস্যই পুনরায় দেশ মাতৃকার সেবায় নিয়োজিত হয়েছেন। পুলিশ সদস্যদের সুস্থতার হার ৩৪.৩৯ শতাংশ। আক্রান্তদের মধ্যে মাঠপর্যায়ের সদস্যই বেশি। করোনায় আক্রান্ত পুলিশ সদস্যদের মধ্যে অতিরিক্ত ডিআইজি পদমর্যাদার একজন, পুলিশ সুপার (এসপি) পদমর্যাদার আটজন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (এএসপি) পদমর্যাদার ১৯ জন, সহকারী পুলিশ সুপার পদমর্যাদার ২০ জন, ইন্সপেক্টর পদমর্যাদার ৯৮ জনসহ বাকিরা এসআই, এএসআই এবং কনস্টেবল।
সারাদেশের পুলিশের বিভিন্ন ইউনিটের তথ্য-উপাত্ত থেকে জানা গেছে, করোনা আক্রান্ত সন্দেহে আরও ১ হাজার ৩২২ জনকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। আক্রান্তদের সংস্পর্শে আসায় ৫ হাজার ৩১২ জন কর্মকর্তাকে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। করোনাভাইরাসমুক্ত হয়ে ২ হাজার ৯৩ পুলিশ সদস্য বাড়ি ফিরেছেন। এদিকে করোনা আক্রান্ত পুলিশ কর্মকর্তাদের দেখভালে উচ্চপদস্থ পরিদর্শন টিম গঠন করেছেন আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ। তারা নিয়মিত পুলিশ সদস্যদের খোঁজ-খবর রাখছেন।
পুলিশ সদর দফতরের এআইজি (মিডিয়া) সোহেল রানা দৈনিক ইনকিলাবকে বলেন, মাঠে নিয়োজিত সদস্যরা যেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে ও সুরক্ষিত থাকতে পারেন, সেজন্য সচেতনতার পাশাপাশি সরকার নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি জানানো হচ্ছে। সিনিয়র অফিসাররাও বিভিন্ন ইউনিটে গিয়ে তাদের সঙ্গে এসব নিয়ে কথা বলছেন। সুরক্ষা সামগ্রী ও পর্যাপ্ত জীবাণুনাশক সরবরাহ ও ব্যবহার নিশ্চিত করা হচ্ছে। তিনি বলেন, হাসপাতালগুলোতে পুলিশ সদস্যদের সর্বোচ্চ চিকিৎসা নিশ্চিত করা হচ্ছে। চিকিৎসার পাশাপাশি তাদের মনোবল যেন অটুট থাকে এজন্য ঊর্ধ্বতন অফিসাররা এবং তাদের লাইন চিফরা তাদের হাসপাতালে ভিজিট করছেন। এছাড়া অসুস্থদের পরিবারের সদস্যদের খোঁজ-খবর রাখার জন্য সদরদফতর থেকে স্ব স্ব ইউনিটকে জানানো হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ