Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ৪ কার্তিক ১৪২৭, ০২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

নেত্রকোনার খালিয়াজুরীতে নিখোঁজের তিন দিন পর নৌ-চালকের পা বাঁধা লাশ উদ্ধার

নেত্রকোনা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১০ জুন, ২০২০, ৯:০২ পিএম

নিখোঁজ হওয়ার তিন দিন পর খালিয়াজুরী থানা পুলিশ কাইয়ূম মিয়া (২৫) নামক এক নৌ-চালকের পা বাঁধা লাশ সদর ইউনিয়নের আদাউড়া কুড়ের পানিতে ভাসমান অবস্থায় উদ্ধার করেছে।

খালিয়াজুরী সদর ইউনিয়নের আমানীপুর গ্রামের জয়নাল মিয়ার ছেলে কাইয়ূম মিয়া ইঞ্জিন চালিত একটি ছোট নৌকা ভাড়ায় চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করে আসছিলেন।
কাইয়ূমের বড় ভাই মোবারক মিয়া জানান, প্রতিদিনের ন্যায় ৭ জুন রবিবার সকালে কাইয়ূম ভাড়ায় যাত্রী পরিবহনের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে নৌকা নিয়ে বের হন। রাত সাড়ে ১১টা বাজার পরও সে বাড়িতে ফিরে না আসায় আমি রাত আনুমানিক ১২টার দিকে তাকে ফোন করি। এ সময় কাইয়ুম জানায়, সে তার গ্রামের পাশে কল্যাণপুর বাজার আছে। আধা ঘন্টার মধ্যেই সে বাড়িতে ফিরে আসবে। এরপর থেকেই তার মোবাইল ফোন বন্ধ এবং তার কোন খোঁজ খবর পাওয়া যাচ্ছিল না। পরদিন সকাল থেকেই পরিবারের লোকজন চারপাশে তাকে খোঁজাখুজি শুরু করে। কিন্তু কোথাও তাকে এবং তার নৌকার হদিস পাওয়া যায়নি। বুধবার বিকালে স্থানীয় লোকজন আদাউড়া কুড়ের ভাসান পানিতে গামছা দিয়ে পা বাঁধা অবস্থায় একটি লাশ ভাসতে দেখে থানা পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে।

এ ব্যাপারে খালিয়াজুরী থানার অফিসার ইনচার্জ এ টি এম মাহমুদুল হকের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, লাশের পা গামছা দিয়ে বাঁধা এবং শরীরে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে, পূর্ব শত্রæতার জের ধরে তাকে হয়ত খুন করা হয়েছে। কে বা কারা কি কারণে তাকে খুন করেছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: লাশ উদ্ধার


আরও
আরও পড়ুন