Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

করোনা ঝুঁকিতে খুলেছে সান্তাহারে বিনোদন পার্ক

জেলা-উপজেলা প্রশাসন জানে না

মো. মনসুর আলী, আদমদীঘি (বগুড়া) থেকে : | প্রকাশের সময় : ১১ জুন, ২০২০, ১২:১৪ এএম

প্রতিদিন করোনা রোগী শনাক্তের তালিকা দীর্ঘ হচ্ছে। সে সঙ্গে বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যা। এমন অবস্থায় মারাত্মক ঝুঁকির মধ্যেই খুলে দেওয়া হয়েছে সান্তাহার শহরের বিনোদন পার্ক শখের পল্লী। শহরের বশিপুর এলাকায় এই বিনোদন পার্কে প্রতিদিন শত শত দর্শনার্থী ভিড় করছে।
শখের পল্লী পার্কের আশেপাশে আরও কয়েকটি পার্ক বন্ধ করোনার কারনে বন্ধ রাখা হয়েছে। শখের পল্লী পার্কটি ব্যক্তিগত উদ্যোগে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। গত দু’দিন বিকালে পার্কের অভ্যন্তরে গিয়ে দেখা গেছে সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মানার কোনো নমুনা নেই।

এদিকে সান্তাহার-আদমদীঘিসহ আশপাশ এলাকায় প্রতিদিন করোনা রোগী শনাক্ত হচ্ছে। ইতোমধ্যে বগুড়া জেলাকে রেড জোন ঘোষণা করা হয়েছে। স্থানীয় প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় সান্তাহার রেলওয়ে জংশন হওয়ায় সান্তাহার ও আমদদীঘি ফের লকডাউন করা হতে পারে।
এদিকে শখের পল্লী পার্ক খুলে দেওয়ায় করোনা সংক্রমন ছড়ানোর আশঙ্কা বেড়েছে স্থানীয়দের মাঝে। পার্কের প্রবেশ পথে শরীরের তাপমাত্রা নির্ণয় ও সাবান দিয়ে হাত ধোয়ার পর ভিতরে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়। কিন্তু ভেতরের চিত্র একেবারে ভিন্ন। ছেলেমেয়েরা পরস্পরের হাত ধরে হাঁটা এবং পাশাপাশি বসে গল্প করর ফলে সামাজিক দূরত্বের কোনো বালাই নেই।

পার্কের মালিক ইঞ্জিনিয়ার নজরুল ইসলাম জানান, সরকারি পরিপত্র অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনেই পার্ক খোলা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসকের অনুমতি প্রসঙ্গে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, তাদের কাছ থেকে অনুমতি নেওয়ার দরকার নেই।
বগুড়ার জেলা প্রশাসক ফয়েজ আহাম্মদ ইনকিলাবকে বলেন, সান্তাহারের বিনোদন পার্ক শখের পল্লী খোলার কোনো অনুমতি নেই। তিনি প্রয়োজনে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ করার পরামর্শ দেন। এ ব্যাপারে সান্তাহার পৌর মেয়র তোফাজ্জল হোসেন ভুট্টু বলেন, সরকার স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে বললেও বিনোদন পার্ক খুলতে বলেছে কিনা আমার জানানেই। তবে এমন ঝুঁকিপূর্ণ সময় পার্ক খোলা যুক্তিসঙ্গত হয়নি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ