Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭ আশ্বিন ১৪২৭, ০৪ সফর ১৪৪২ হিজরী

যুগান্তকারী কলম্বাসের আসল রূপ এবং ইতিহাসের পুনর্র্নির্মাণ

দ্য সান | প্রকাশের সময় : ১৩ জুন, ২০২০, ১২:০১ এএম

সমগ্র আমেরিকাতে ক্রিস্টোফার কলম্বাসের মূর্তিগুলিকে উচ্ছেদ করে ফেলা হয়েছে। কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েড হত্যার ঘটনায় দেশটি জাতিগত বৈষম্যের বিরুদ্ধে ভীষণভাবে সোচ্চার উঠেছে দেশটি। ইতিহাসের গোড়া থেকে সহিংস বর্ণবাদী আচরণ পর্যালোচনা করে ইতিহাস পুনর্নির্মাণ করতে চাইছে বর্ণবৈষম্যের বিরুদ্ধে আন্দোলনরত আমেরিকানরা।
গেল বুধবার বিক্ষোভকারীরা বোস্টনে কলম্বাসের একটি মূর্তির শিরচ্ছেদ করার পর মেয়র মার্টি ওয়ালশ বলেন, শহর কর্তৃপক্ষ অস্থায়ীভাবে কলম্বাসের স্মৃতিস্তম্ভটি সরিয়ে নেবে এবং এর ঐতিহাসিক তাৎপর্য পুনরায় মূল্যায়ন করবে। কলম্বাসের জন্য উৎসর্গীকৃত মূর্তিগুলি সরিয়ে নেয়ার জন্য দেশব্যাপী কেন চাপ সৃষ্টি হয়েছে এবং কেন তাকে বর্ণবাদী বলে অভিহিত করা হচ্ছে, তার যথাযথ কারণ দেখিয়েছেন ইতিহাসবিদরা।
ইতিহাস বলছে, কলাম্বাস ছিলেন একজন ইতালীয় পর্যটক যিনি ১৫ শতকের শেষের দিকে ইউরোপ থেকে এশিয়া পর্যন্ত সরাসরি সমুদ্র পথ সন্ধানের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছিলেন। তার ইউরোপ ভ্রমণ, যা বিশ্বজুড়ে খাদ্য ও অন্যান্য সম্পদ বাণিজ্যের বিস্তার ঘটিয়েছিল, সেজন্যই তিনি আমেরিকাতে সর্বাধিক পরিচিত। যুগান্তকারী পর্যটক হিসাবে স্মরণীয় হয়ে থাকলেও ইতিহাস বলছে, কলম্বাসের এই উদ্যোগ আটলান্টিক পাড়ে দাস ব্যবসা, আদিবাসীদের গণহত্যা ও শোষণের পথ উন্মোচন করে দেয়। কলম্বাস নিজেও আদিবাসীদের সাথে তার সহিংস আচরণের জন্য সুপরিচিত ছিলেন।
কলম্বাসের মূর্তিগুলির অপসারণ করাটা বর্ণবাদী হিসাবে চিহ্নিত জোটবদ্ধ আমেরিকার দক্ষিণাঞ্চলের ১১টি রাজ্যের যুদ্ধের প্রতীক পতাকা এবং তথাকথিত যুদ্ধবীরদের প্রতি উৎসর্গকৃত স্মৃতিসৌধগুলি থেকে মুক্তির জন্য একটি বর্ধমান আন্দোলনের অংশ। দেশজুড়ে সমালোচক ও আন্দোলনকারীরা যুক্তি দিয়েছেন, কলম্বাস গণহত্যা এবং দাসত্বের প্রতিনিধিত্ব করেন এবং আদি আমেরিকানদের প্রতি তার সহিংস আচরণের কথা মনে করিয়ে দেন।
আমেরিকার সংবাদপত্র দ্য হিল জানিয়েছে, গেল বুধবার ম্যাসাচুসেটসের বিক্ষোভকারীরা কলম্বাসের মূর্তির শিরচ্ছেদ করার কয়েক ঘণ্টা পর ভার্জিনিয়াতে ‘ব্ল্যাক লাইভস ম্যাটার’র আন্দোলনকারীরা কনফেডারেট প্রেসিডেন্ট জেফারসন ডেভিসের একটি মূর্তি ভেঙে ফেলে। একই দিন বিকেলে মিনেসোটা ক্যাপিটলের বাইরে কলম্বাসের অন্য আরেকটি একটি মূর্তি ভেঙে ফেলা হয়।

 



 

Show all comments
  • jack ali ১২ জুন, ২০২০, ৯:২৮ পিএম says : 0
    When European migrated to America.. The land belonged to Red Indian and the European started grab their land and Killed nearly 17 Millions Red Indian. Like When British send convicts to Australia, they grab the land from Aboriginal people and the British killed more than 4 millions aborigine.. Hence European people claim they are civilized. British came to our country under the guise of Businessmen and they captured our country and they stole nearly 45 Trillion Dollar.
    Total Reply(0) Reply
  • Monjur Rashed ১২ জুন, ২০২০, ১০:৫৬ পিএম says : 0
    Truth is being revealed through disclosing the fact.
    Total Reply(0) Reply
  • নিসারুল ইসলাম ১৩ জুন, ২০২০, ১২:০৮ এএম says : 0
    কলম্বাস মূলতঃ একজন জলদস্যু ছিলেন । তাঁর মতো আরও যেসব বিখ্যাত ব্যক্তিদের কথা ইতিহাসে পাওয়া যায়, তাঁদের অধিকাংশের মূল পেশাই ছিল সমুদ্রপথে ডাকাতি ।
    Total Reply(0) Reply
  • মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম ১৩ জুন, ২০২০, ৪:২০ এএম says : 0
    কলম্বাসকে আমেরিকার আবিস্কারক বলা হয়,কথাটি ভুল। কারণ কলম্বিাসের ইতিহাসের পাতায় আমেরিকাতে মক্কা ও মদিনা নামের জায়গার উল্লেখ আছে।আর এই মক্কা ও মদিনা নাম রেখেছেন মুসলমানরা।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Azizar Rahman ১৩ জুন, ২০২০, ১২:৫৬ এএম says : 0
    Allah can't tolerate statutes praying. In the world so long statutes prayer continuation like coronavirus never gone or out .
    Total Reply(0) Reply
  • Hridoy Shorma ১৩ জুন, ২০২০, ১২:৫৬ এএম says : 0
    যারা মুখে বড় বড় করে মানবতার কথা বলে পৃথিবীর শাসন করছে তারাই আসল বর্নবাদি,জাতীবাদি ,,,
    Total Reply(0) Reply
  • Babu Khan ১৩ জুন, ২০২০, ১২:৫৭ এএম says : 0
    খবরটা শুনে খুব ভালো লাগলো এভাবে করে আমেরিকা যত মূর্তি আছে সব ভেঙে তছনছ করে দিক
    Total Reply(0) Reply
  • Amit Dutta ১৩ জুন, ২০২০, ১২:৫৭ এএম says : 3
    এইসব ঘটনার পেছনে চীন এর হাত রয়েছে... আমেরিকা কে বিপদে ফেলার জন্য চীন এই ইস্যুটা কে কাজে লাগাচ্ছে.....আমি মনে করি
    Total Reply(0) Reply
  • Md Shakif ১৩ জুন, ২০২০, ১২:৫৮ এএম says : 0
    Good news
    Total Reply(0) Reply
  • আপেক্ষিক অধোরায় জনি খান ১৩ জুন, ২০২০, ১২:৫৮ এএম says : 0
    মাশাআল্লাহ আলহামদুলিল্লাহ
    Total Reply(0) Reply
  • Md Sagor Mia ১৩ জুন, ২০২০, ৬:৫১ এএম says : 0
    When Columbus discovered America They killed nearly 17 millions of Red Indians.When The British had gone to Australia they killed about 4 million of aborigines.When The British had come in our Indian subcontinent they came as guise of businessman but they captured our country and stole about 45 trillion dollars.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ