Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ২২ জানুয়ারি ২০২১, ০৮ মাঘ ১৪২৭, ০৮ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

করোনায় প্রাণ হারালেন বিএনপির ৫৭ নেতাকর্মী

আক্রান্ত ২২১

ফারুক হোসাইন | প্রকাশের সময় : ১৬ জুন, ২০২০, ১২:০০ এএম

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকেই বিএনপি ঘোষিত লিফলেট বিতরণসহ সচেতনতামূলক কর্মসূচি পালন করেছেন দলটির নেতাকর্মীরা। সাধারণ ছুটি ঘোষণার পর শুরু হয় সুরক্ষা সামগ্রী ও খাদ্যসামগ্রী বিতরণ। আর আক্রান্তদের মৃত্যুর পর স্বজনরা যখন দাফন করতে অস্বীকার করেছে তখন এগিয়ে এসেছেন অনেক নেতাকর্মীই। দলীয় এসব নির্দেশনা অনুসরণ, মানুষের পাশে দাঁড়াতে গিয়ে কিংবা নানাভাবেই বিএনপির ২২১ জন নেতাকর্মী প্রাণঘাতি এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে মৃত্যুবরণ করেছেন ৫৭জন। সর্বশেষ গতকাল রোববার করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন পাবনা-৩ আসনের সাবেক এমপি সাইফুল আজম সুজা। এর আগে গত সপ্তাহে মৃত্যুবরণ করেন ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপিসাধারণ সম্পাদক ও সাবেক কমিশনার আহসানউল্লাহ হাসান। এছাড়া করোনায় আক্রান্তের তালিকায় রয়েছেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য আইনজীবী আব্দুর রেজ্জাক খান ও সিলেট সিটি করপোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীর স্ত্রীও। আক্রান্ত হয়ে সুস্থ হয়েছে নারায়ণগঞ্জের আলোচিত কমিশনার যুবদল নেতা মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ। তবে অনেকেই তথ্য গোপন করার কারণে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা আরো বেশি হতে পারে বলে বিএনপির কেন্দ্রীয় দফতর ও সংশ্লিষ্ট একাধিক নেতার সাথে আলাপকালে এসব তথ্য জানা গেছে।
এদিকে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশনা মোতাবেক সারাদেশে বিএনপির যে সকল নেতৃবৃন্দ মহামারী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন তাদের নামের তালিকা প্রকাশ করেছে বিএনপি। শনিবার সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর করোনায় দলীয় নেতাকর্মীদের মৃত্যু ও আক্রান্ত হওয়ার তথ্য তুলে ধরেন।
করোনায় মৃত্যুবরণ করা নেতাকর্মী: বিএনপির তথ্য অনুযায়ী, এ পর্যন্ত সারাদেশে বিএনপির ২২১জন নেতাকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। আর মৃত্যুবরণ করেছেন ৫৭ জন। এর মধ্যে- ঢাকা বিভাগের মৃত্যুবরণ করেছেন ২৭ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ১২ জন, কুমিল্লা বিভাগে ১৩ জন, ময়মনসিংহ বিভাগে ১ জন, সিলেট বিভাগে ২ জন, রাজশাহী বিভাগে ১জন এবং ফরিদপুর বিভাগে ১ জন।
করোনায় মৃত্যুবরণকারী বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে আরও রয়েছেন- নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁওয়ের শহিদুল ইসলাম শিমুল খন্দকার, রুপগঞ্জের হাজী আব্দুল করিম, নবী হোসেন, দুলাল হোসেন, আনিছুর রহমান বাবুল মাস্টার, মুক্তার হোসেন, ঢাকার কেরাণীগঞ্জের নূরুজ্জামান, টাঙ্গাইলের মির্জাপুরের প্রকৌশলী খলিলুর রহমান, রাজবাড়ির পাংশার রুহুল আমিন, কুমিল্লা উত্তরের মিজানুর রহমান, দেবিদ্বারের মনিরুল হক ভুইয়া, রফিকুল ইসলাম, খসরুল আলম রিপন খাঁন, বিল্লাল হোসেন, চান্দিনার নজরুল ইসলাম, কুমিল্লা দক্ষিণের এমদাদ সরকার, আতিকুল ইসলাম, আব্দুল করিম, ফরিদ মিয়া, চাঁদপুর সদরের আবু তাহের ভুইয়া, নূরুল ইসলাম মাল, কচুয়ার আনোয়ার হোসেন আনু, চট্টগ্রাম দক্ষিণের এড. কবির চৌধুরী, লোহাগড়ার এমএ শুক্কুর, চন্দনাইশের আব্দুস শুক্কুর, চট্টগ্রাম মহানগরীর করিম উল্লাহ, ইস্কান্দার উল্লাহ, হাবিব উল্লাহ, নোয়াখালীর সুবর্ণচরের মাঈনুদ্দিন মানিক, আশরাফ হোসেন আবু, নূর মোহাম্মদ, লাতু মিয়া, জাবেদ হোসেন, চৌমুহনীর খায়ের মিয়া, মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলের আব্দুল আহাদ, সিলেটের দক্ষিণের দবিরুল ইসলাম এবং ময়মনসিংহ মহানগরের আজমল হোসাইন খান সহ মোট ৫৬ জন নেতাকর্মীর মৃত্যু হয়েছে।
সারাদেশে আক্রান্ত যত: ঢাকা বিভাগের নারায়ণগঞ্জ জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা ৪ জন, ঢাকা জেলায় ২, মুন্সীগঞ্জে ৭ জন। রাজশাহী বিভাগের নাটোরে ১, সিরাজগঞ্জে ২, বগুড়ায় ১, রাজশাহীতে ১ জন। খুলনা বিভাগে মাগুরায় ২, মেহেরপুরে ২, নড়াইলে ১ এবং ঝিনাইদহে ২ জন। ফরিদপুরে ১ জন, রাজবাড়ী ১১, গোপালগঞ্জে ১, শরীয়তপুরে ১ জন। কুমিল্লা উত্তরে ৪ জন, কুমিল্লা দক্ষিণে ১০, চাঁদপুরে ৩, ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ২, চট্টগ্রাম দক্ষিণে ৬, উত্তরে ৩ এবং চট্টগ্রাম মহানগরীতে ৬ জন। নোয়াখালীতে ৭, ফেনীতে ২, লক্ষীপুরে ১, সিলেট বিভাগে সুনামগঞ্জে ৭ এবং সিলেট জেলায় ১ জন।
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, করোনার সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকেই ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশে নেতাকর্মীরা লিফলেট বিতরণ করেন। সাধারণ ছুটি শুরু হলে ২৬ মার্চ থেকেই চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশনায় সারাদেশে নেতাকর্মীরা ত্রাণ কার্যক্রম শুরু করে, যেটি এখনো চলমান রয়েছে। মানুষের পাশে দাঁড়াতে গিয়ে অনেকেই এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এবং মৃত্যুবরণ করেছেন। কিন্তু গণমানুষের দল বিএনপি কখনো পিছু হটেনি। #



 

Show all comments
  • Md MostafizurRahman Banijjo ১৬ জুন, ২০২০, ১:১৮ এএম says : 0
    আল্লাহ আমরা বড় অসহায়। ক্ষমা করে দাও
    Total Reply(0) Reply
  • Moazzem Hossain ১৬ জুন, ২০২০, ১:১৮ এএম says : 0
    Very sad news, may Allah grant them jannah tul Ferdous, Ameen.
    Total Reply(0) Reply
  • Ali Akbar ১৬ জুন, ২০২০, ১:১৯ এএম says : 0
    চিকিৎসা ব্যবস্থা বলে দেশে কিচু নেই।
    Total Reply(0) Reply
  • Kamal Pasha Jafree ১৬ জুন, ২০২০, ১:১৯ এএম says : 0
    ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাহি রজিউন ,এয়া আল্লাহ আপনি সকলকে মাফ করে দিন সকলের কবরের আজাব মাফ করে দিন ও সকলকে জান্নাতবাসী করুন,আমিন।
    Total Reply(0) Reply
  • Robi Rahi ১৬ জুন, ২০২০, ১:১৯ এএম says : 0
    পরপর আওয়ামীলীগের নেতৃস্থানীয় নেতাদের প্রয়ানে এলাকার অন্য দলের লোকেরা নানান অপবাদ দিতেছে। আল্লার গজব আরো অনেক কিছু। আওয়ামীলীগের নেতা কর্মী বেশি আক্রান্ত হবে এটাই স্বাভাবিক। কারণ তারা তুলনামূলক অন্যান্যদের চেয়ে মাঠে বেশি সক্রিয়। কিন্তু বিএনপির নেতারা যে একবারে আক্রান্ত হচ্ছে না সেটা ভাবার কারণ নেই।তাই কারো মৃত্যুতে পৈশাচিক আনন্দ পরিহার করুন।সবার জন্য দোয়া করুন। আমরা সবাই সবার আত্মীয়।
    Total Reply(0) Reply
  • Mirza Mamun ১৬ জুন, ২০২০, ১:২০ এএম says : 0
    আল্লাহ তুমি তাদের জান্নাতুল ফেরদৌস দান কর।আমিন
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিএনপি

১৬ জানুয়ারি, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন