Inqilab Logo

ঢাকা, রবিবার, ০৯ আগস্ট ২০২০, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৮ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

বায়ার্নের আটে আট

লেভানদোভস্কি যখন ‘লেভানগোলস্কি’

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ জুন, ২০২০, ১২:০০ এএম

উৎসবের মঞ্চ তৈরি ছিল। পূর্ণ পয়েন্ট পেলেই জার্মান বুন্দেসলিগার শিরোপা ধরে রাখা নিশ্চিত। উপলক্ষটা রাঙাতে ভুল করেননি মৌসুম জুড়ে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা রবার্ট লেভান্দোভস্কি। তার লক্ষ্যভেদের কল্যাণে টানা অষ্টমবারের মতো লিগ চ্যাম্পিয়ন হলো বায়ার্ন মিউনিখ।
গতপরশু রাতে ভের্দার ব্রেমেনকে তাদের মাঠেই ১-০ গোলে হারিয়েছে কোচ হ্যান্সি ফ্লিকের দল। ম্যাচের প্রথমার্ধে দুপক্ষের মধ্যে ব্যবধান গড়ে দেন নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে বায়ার্ন শিবিরে ফেরা পোল্যান্ডের স্ট্রাইকার লেভান্দোভস্কি। করোনাভাইরাসের ধাক্কা সামলে জার্মানিতে ফের ফুটবল চালু হওয়ার পর সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে এটি বাভারিয়ানদের টানা অষ্টম জয়।
দুই ম্যাচ হাতে রেখেই বুন্দেসলিগায় ৩০তম শিরোপার স্বাদ নিয়েছে জার্মানির সফলতম ক্লাবটি। তবে দর্শকবিহীন মাঠে খেলা হওয়ায় বায়ার্নের উদযাপন হয়নি বরাবরের মতো। ৩২ ম্যাচে ২৪ জয়, ৪ ড্র ও ৪ হারে তাদের অর্জন ৭৬ পয়েন্ট। এক ম্যাচ কম খেলে ৬৬ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে বরুশিয়া ডর্টমুন্ড।
বল দখল ও আক্রমণে আধিপত্য দেখানো বায়ার্ন জয়সূচক গোলটি পায় ম্যাচের ৪৩তম মিনিটে। ব্রেমেনের রক্ষণভাগের উপর দিয়ে উঁচু করে জার্মান ডিফেন্ডার জেরোম বোয়াটেংয়ের বাড়ানো বল বুক দিয়ে নামান লেভান্দোভস্কি। এরপর তা মাটি ছোঁয়ার আগেই ডান পায়ের কোনাকুনি শটে আগুয়ান গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন তিনি।
চলতি মৌসুমটা দুর্দান্ত কাটছে লেভান্দোভস্কির। মাঝে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে লম্বা সময় খেলা বন্ধ থাকলেও এই পোলিশ স্ট্রাইকারের ছন্দপতন হয়নি। চলমান ২০১৯-২০ মৌসুমের লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতাদের তালিকায় শীর্ষে থাকা লেভান্দোভস্কির এটি ৩১তম গোল। ২০১৬-১৭ মৌসুমে বরুশিয়া ডর্টমুন্ডের হয়ে ৩১ গোল করে রেকর্ডটা গড়েন বর্তমানে আর্সেনালে খেলা পিয়েরে-এমেরিক অবামেয়াং। সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৪০ ম্যাচে তার গোলসংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৪৬টি। দলের সবশেষ ১০ ম্যাচে করেছেন ৯ গোল। শিরোপা জয়ের ম্যাচ শেষে শিরোপা জয়ের অন্যতম নায়ককে স্তুতির জোয়ারে ভাসালেন মিডফিল্ডার আলফুঁস ডেভিস, ‘আমরা তাকে ডাকি ‘লেভানগোলস্কি।’ সেরা স্ট্রাইকার সে, বিশ্বের সেরা। এক মৌসুমে ৩১ গোল করা অবিশ্বাস্য।’

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: জার্মান বুন্দেসলিগা

১৮ জুন, ২০২০
আরও পড়ুন