Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৮ অক্টোবর ২০২০, ১২ কার্তিক ১৪২৭, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

চীনকে শিক্ষা দিয়েছে ভারতীয় সেনারা: মোদি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ জুন, ২০২০, ১০:৩৫ এএম

লাদাখের গালওয়ান উপত্যাকায় চীন-ভারত সংঘর্ষে ভারতের ২৩ সেনা নিহতের ঘটনায় উভয় দেশের সীমান্তে বিরাজ করছে উত্তেজনা। কয়েকদফা সামরিক পর্যায়ে আলোচানাও হয়েছে প্রতিবেশী দুই দেশের মধ্যে।

শুক্রবার এমন পরিস্থিতিতে সর্বদলীয় বৈঠকের ডাক দিয়েছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। দেশটির স্থানীয় সময় বিকাল ৫টায় মোদির ডাকা এই সর্বদলীয় বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন ২০টি দল। বৈঠকে মোদির সঙ্গে ছিলেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

বৈঠকে মোদি বলেন, ‘তারা (চীন) আমাদের সীমান্তে অনুপ্রবেশ করেনি, কোনো তল্লাশি চৌকিও দখল করেনি। আমাদের ২৩ সেনা শহীদ হয়েছে। কিন্তু যারা ভারতমাতার দিকে চোখ তুলে দেখেছেন, তাদের শিক্ষা দিয়ে গেছেন।’

ভারতের সামরিক শক্তি সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘আজ আমরা এমন সামর্থ্য অর্জন করেছি য়ে কেউ আমাদের এক ইঞ্চি জমির দিকেও চোখ তুলে তাকাতে পারবে না। ভারতের সামরিক বাহিনী একই সময় একাধিক সেক্টরে যেতে সক্ষম।’

লাদাখ সীমান্তে নজরদারি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘নতুন পরিকাঠামোর ফলে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর আমাদের টহলদারির ক্ষমতা বেড়েছে। ফলে সতর্কতাও বেড়েছে। প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় কী কী গতিবিধি হচ্ছে, তা সময়ে নজরে চলে আসে। আগে যে এলাকাগুলোতে বেশি নজর রাখা হত না, এখন সেখানে ভালোভাবে নজরদারি চালাচ্ছেন সেনারা। এখনও পর্যন্ত যাদের কেউ আটকাত না, জিজ্ঞাসা করত না, এখন আমাদের সেনারা আটকাচ্ছেন।’

চীনের সঙ্গে সম্পর্ক প্রসঙ্গে মোদি বলেন, ‘ভারত শান্তি ও বন্ধুত্ব চায়। কিন্তু সার্বভৌমত্ব বজায় রাখা সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ।’

সূত্র: এনডিটিভি।



 

Show all comments
  • আবরার সাঈদ ২০ জুন, ২০২০, ১১:০৮ এএম says : 0
    ........... খেলো, আবার বলে শিক্ষা দিলো। বিরোধী দল একথা মেনেও নিলো,,,
    Total Reply(0) Reply
  • জাহিদুল ইসলাম ২১ জুন, ২০২০, ১:৫৩ পিএম says : 0
    চোরের মত হাত গুটিয়ে আছে। আবার বলে শিক্ষা দিয়েছি
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মোদি

২৬ ডিসেম্বর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন