Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট ২০২০, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭, ২০ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

ভারতীয় সীমান্তে চোখ রাঙাচ্ছে নেপালী সেনারা : আলোচনার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ জুন, ২০২০, ২:০০ পিএম

ভারতীয় সীমান্তে চোখ রাঙাচ্ছে নেপালী সেনারা। যা দুশ্চিন্তায় পেলেছে ভারতকে। লাদাখের গারওয়াল উপত্যকায় চিন-ভারত দ্বৈরথের মতই মানচিত্র বিতর্কে অশান্তি চলছে ভারত-নেপাল সীমান্তে। গত শুক্রবারই ভারতীয় কৃষকদের লক্ষ্য করে গুলি চালানোর অভিযোগ উঠে নেপাল পুলিশের বিরুদ্ধে। এবার ভারতের ওপর চাপ বাড়াতে ইতিহাসে প্রথমবার ভারত সীমান্তে হেলিপ্যাড এবং সেনাবাহিনীর তাঁবু বিছিয়ে ফেলেছে নেপাল।
বৃহস্পতিবারই অবশেষে বড় ধাক্কাটা দিয়েছিল নেপাল। নতুন মানচিত্রের বিল নেপালের সংসদের পাস হয়ে যাওয়ার পর গতকাল তা ছাড়পত্র পেয়ে গেছে। নতুন মানচিত্রে উত্তরাখণ্ডের বেশ কিছু এলাকা নেপালের বলে দাবি করা হয়েছে। যা নিয়ে ভারত ও নেপালের মধ্যে কূটনৈতিক উত্তেজনা বৃদ্ধি পেয়েছে।
ভারতের তরফে আলোচনার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল, নেপালও তা গ্রহণ করেছে। কিন্তু নতুন মানচিত্রের নকশা থেকে তারা কোনভাবেই পিছিয়ে আসবে না বলে জানিয়ে দিয়েছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী। এই অবস্থায় সীমান্তে হেলিপ্যাড তৈরির পাশাপাশি সেনা তাবু বানিয়ে নেপাল যে ভারতকেই বার্তা দিতে চাইছে তা স্পষ্ট। সূত্র : পুবের কলম



 

Show all comments
  • liakat ২১ জুন, ২০২০, ২:১৭ পিএম says : 0
    dadagiri ar koto seven sister amader,kokata momtar,chin,nepal o pabe,paki kicui pabe na
    Total Reply(1) Reply
    • Nabil ২১ জুন, ২০২০, ৪:১৮ পিএম says : 0
      Pakistan Ladakh chara kashmir pabe
  • jack ali ২১ জুন, ২০২০, ৪:৩৯ পিএম says : 0
    Our government is the ...... of India.. Our government insulted our country and Bangladeshi people....Our people will never forgive the government.
    Total Reply(0) Reply
  • Zahangir ২১ জুন, ২০২০, ৩:৪২ পিএম says : 0
    মোদিজি এবার নিশ্চয়ই নেপালে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক চালাবে!
    Total Reply(0) Reply
  • Nazrul islam ২১ জুন, ২০২০, ৬:১৩ পিএম says : 0
    সনাতনি সংঘর্ষ প্রত্যক্ষ করার অপেক্ষায় আছি। আমিন
    Total Reply(0) Reply
  • Humayun ২১ জুন, ২০২০, ৮:১৩ পিএম says : 0
    India should respect all small nebour nation with decent attitude and behavior not ugly face and evil heart,which always they show.disrespectful rhetoric by the politician in power which is full of racism and inciting dirty religious slurs.like termite,illegal terrorist.. I request the leaders to stop relentless hate speeches against minorities.. You will earn respect from other nation.now is rating and global image is at the bottom..
    Total Reply(0) Reply
  • Zahangir ২১ জুন, ২০২০, ৪:০৮ পিএম says : 0
    বিগত কয়েক দশক এর উন্নয়ন এবং রাশিয়, ফ্রান্স ও আমেরিকার কিছু উন্নত সামরিক সরঞ্জামাদি পেয়ে ভারতের সামরিক ও রাজনৈতিক নেত্বৃবৃন্ধ নিজেদেরকে সুপার পাওয়ার ভাবতে শুরু করে দিয়েছিল, মিথ্যা অহংকার আর দম্ভে স্ফীত হয়ে তারা ভাবতে শুরু করে দিয়েছিল এই বুঝি তারা চীনকেও ছাড়িয়ে নতুন এক উচ্চতায় উঠে গিয়েছে। তাছাড়া, ট্রাম্প এর মতো আরেক মাথামোটা প্রেসিডেন্ট এর সাথে হাত মেলানো, কোলাকুলি আর দহররম করে উগ্র হিন্দত্ববাদী জাতীয়তাবাদ এর স্লোগান এর মাধ্যমে নিজেদেরকে সুপার পাওয়ার ভাবতে শুরু করে দিয়েছিল। Ranking- চিন- ভারত ৩/৪ হলেও অর্থনৈতিক ও সামরিক ব্যাবধান যে কতো, এটা মোদিজি ভুলে গিয়েছিল। তাই মোদি এবার ঘরে বাইরে একবারি নাস্তানাবুদ। আর বড় ভাইসূলভ আচরণ এর কারণ সকল দুর্বল প্রতিবেশীরাও এখন ভারতের উপর চরমভাবে ক্ষুব্ধ। আর তাই নেপালের মতো ক্ষুদ্র এবং ঘনিষ্ঠ প্রতিবেশীও এখন ভারতের চোখে চোখ রেখে কথা বলছে।
    Total Reply(0) Reply
  • SANKAR ২২ জুন, ২০২০, ৪:৩৫ পিএম says : 0
    ইন্ডিয়া মহান দেশ ।মতভেদ থাকবে আবার মিলন থাকবে। এক বৃন্তে দুটি কুসুম হিন্দু মুসলমান। মন খারাপ করে লাভ নে ই ।ভারতের জয় হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • Ram ২৯ জুন, ২০২০, ১০:১৩ পিএম says : 0
    Gaddar Zahangir, chine o napal ke gaddri tare paba alpo din ma.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারত-নেপাল


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ