Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট ২০২০, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭, ২০ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

লাশ হাসপাতালে ফেলে পালিয়েছে স্বজনরা

রাজশাহী ব্যুরো : | প্রকাশের সময় : ৬ জুলাই, ২০২০, ১২:০০ এএম

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে করোনায় মৃত যুবকের লাশ ফেলে পালিয়ে গেছেন স্বজনরা। আজাদ আলী (৩০) নামের ওই যুবক চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত শনিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে রামেক হাসপাতালের আইসিইউতে মারা যান। তিনি নওগাঁর পত্নীতলা উপজেলার জামগ্রাম এলাকার বাসিন্দা।

রামেক হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস বলেন, নওগাঁ থেকে করোনা নিয়ে তিন দিন আগে আজাদ আলী রামেক হাসপাতালে এসেছিলেন। প্রথম দিন তিনি ভর্তি ছিলেন হাসপাতালের ২৯ নম্বর ওয়ার্ডে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় দুদিন আগে তাকে আইসিইউতে নেয়া হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় সেখানেই তিনি মারা যান।
হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র সূত্রে জানা গেছে, শুরু থেকেই রোগীর সঙ্গে তার স্বজনরা ছিলেন। কিন্তু মারা যাওয়ার পর তারা মরদেহ ফেলে চলে যান। মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে প্রথম দিকে লাশ গ্রামের বাড়িতে নিতে চেয়েছিলেন স্বজনরা। কিন্তু গ্রামবাসীর বাধায় নেয়া সম্ভব নয় বলে লাশ রাজশাহীতেই দাফনের কথা জানিয়ে দেন। রোববার বেলা সাড়ে ১২টা পর্যন্ত রোগীর স্বজনদের কেউ আসেনি। পরে হাসপাতাল থেকে রোগীর স্বজনদের সাথে যোগাযোগ করা হলে তারা বলেছেন, আমরা রোগী নেব না। আপনারা দাফন করে দেন।
এ ব্যাপারে হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস বলেন, আমরা রোগীর স্বজনদের সাথে যোগাযোগ করলে তারা রোগী নেবেন না বলে জানিয়েছেন। এখন আমরা কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে লাশ দাফনের চেষ্টা করছি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: স্বজন


আরও
আরও পড়ুন