Inqilab Logo

ঢাকা শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ১১ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

কোয়ারেন্টিন শেষে ২১৯ প্রবাসী কারাগারে

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৬ জুলাই, ২০২০, ১২:০০ এএম

কুয়েত, কাতার ও বাহরাইন থেকে দেশে ফিরে কোয়ারেন্টিনে ছিলেন ২১৯ প্রবাসী। উত্তরা দিয়াবাড়িতে কোয়ারেন্টিনে থাকা অবস্থায় দেশের ভাবমর্যাদা ক্ষুন্ন করার অভিযোগও রয়েছে এদের বিরুদ্ধে। কুয়েত, কাতার ও বাহরাইনে বিভিন্ন অপরাধে সাজা খাটছিলেন তারা। গতকাল মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে ফৌজদারি কার্যবিধির ৫৪ ধারায় আটক দেখিয়ে হাজির করা হয় বিদেশ ফেরত ওই ২১৯ জনকে। পরে পুলিশি আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।
তুরাগ থানার ওসি নুরুল মুত্তাক্বীন জানান, ওই ২১৯ প্রবাসী কুয়েত, কাতার ও বাহরাইনে বিভিন্ন অপরাধে সাজা খাটছিলেন। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে তাদের মুক্তি দিয়ে দেশে পাঠিয়ে দেয়া হয়। গত শনিবার তাদের ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন শেষ হয়েছে। এখন তাদের বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্ত শেষে অভিযোগের ভিত্তিতে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
আদালত সূত্রে জানা গেছে, তুরাগ থানার পরিদর্শক শফিউল্লাহ তার আবেদনে বলেছেন, ওই ২১৯ জন কুয়েত, কাতার ও বাহরাইনে নানা অপকর্মে লিপ্ত ছিলেন। বিভিন্ন মেয়াদে তাদের সাজাও হয়েছিল। দেশে আসার পর তাদের সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়। এ সময় বিভিন্ন দলে বিভক্ত হয়ে তারা দেশের ভাবমর্যাদা ক্ষুন্ন করার জন্য পরামর্শ করছিলেন বলে গোপন সূত্রে খবর পাওয়া যায়। তাদের ছেড়ে দিলে দেশে চুরি-ডাকাতি বাড়তে পারে বলেও আবেদনে উল্লেখ করা হয়। তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তাদের কারাগারে আটক রাখার আবেদন জানানো হয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কোয়ারেন্টিন


আরও
আরও পড়ুন