Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ আগস্ট ২০২০, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৭, ২০ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী
শিরোনাম

বগুড়ায় ১৫ দিন বাড়লো রেড জোনের মেয়াদ

বগুড়ায় ১৫ দিন বাড়লো রেড জোনের মেয়াদ

বগুড়া ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ৬ জুলাই, ২০২০, ৬:৫৫ পিএম

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে বগুড়া শহরের পৌর এলাকার জলেশ্বরীতলা, সূত্রাপুর, নারুলী, মালতিনগর, চেলোপাড়া, নাটাইপাড়া, ঠনঠনিয়া, হাড়িপাড়া ও কলোনী এলাকায় রেড জোনের সময়সীমা আরও ১৫ দিন বাড়ানো হয়েছে। সোমবার বিকেল ৫টা থেকে আগামী ২১জুলাই পর্যšত এ নির্দেশনা কার্যকর থাকবে। জেলা প্রশাসক (ডিসি) জিয়াউল হক স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এর আগে গত ২২জুন, বগুড়ার নয়টি এলাকায় করোনা আক্রান্তে র সংখ্যা বাড়তে থাকায়ে রেড জোন ঘোষণা করে প্রজ্ঞাপণ জারি করে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়। রেড জোনের নিয়মানুযায়ী ২১দিন পূর্ণ হয় গত ৫ জুলাই। পরে সোমবার সকালে বগুড়ার জেলা প্রশাসন ও স্বাস্থ্যবিভাগ এই এলাকাগুলোতে আরও ১৫ দিন রেড জোন কার্যকরের সুপারিশ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে পাঠান।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, রেড জোন এলাকায় সব প্রকার ব্যক্তিগত, পারিবারিক, সামাজিক, রাজনৈতিক, গণজমায়েত নিষিদ্ধ করাসহ সব জনসাধারণ আবশ্যিকভাবে নিজ নিজ আবাসস্থলে অবস্থান করবেন। এছাড়া সব প্রকার যানবাহন বন্ধ থাকবে। তবে কোভিড-১৯ মোকাবিলায় দায়িত্বপ্রাপ্ত বেসরকারি গাড়ি চলাচল জেলা প্রশাসকের অনুমতি গ্রহণ করে চলতে পারবে। সব প্রকার দোকান মার্কেট ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে তবে ওষুধের দোকান, ইন্টারনেটসেবা ও মোবাইল ব্যাংকিং পরিসেবা এর আওতার বাইরে থাকবে। কোভিট-১৯ মোকাবিলা ও জরুরি সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান সীমিত আকারে খোলা থাকবে, সব হাসপাতাল চিকিৎসাসেবা দেওয়া প্রতিষ্ঠান ও ব্যাংকিংসেবা এর আওতার বাইরে থাকবে।

এতে আরও বলা হয়, বগুড়া জেলায় আন্তঃ উপজেলা যানবাহন ও জনসাধারণের চলাচল বন্ধ থাকবে। এছাড়া জরুরি প্রয়োজনে বের হলে সবাইকে আবশ্যিকভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে এবং যথাযথভাবে মাস্ক পরিধান করতে হবে। এ দুর্যোগকালীন সময়ে প্রকাশ্য স্থানে বা গণজমায়েত করে কোনো প্রকার ত্রাণ ও খাদ্যসামগ্রী বা অন্য কোনো পণ্য বিতরণ করা যাবে না।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনা


আরও
আরও পড়ুন