Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২০ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

যুক্তরাষ্ট্র যদি রাজি হয়, তবে আনন্দের সাথেই বসবে চীন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৯ জুলাই, ২০২০, ১২:০০ এএম

যুক্তরাষ্ট্র যদি তার পরমাণু অস্ত্র ভান্ডার কমিয়ে চীনের সমপর্যায়ে নিয়ে আসতে রাজি হয়, তবে ওয়াশিংটন ও মস্কোর সঙ্গে ত্রিপক্ষীয় অস্ত্র নিয়ন্ত্রণ আলোচনায় আনন্দের সঙ্গেই বসবে বেইজিং। বুধবার চীনের এক জ্যেষ্ঠ কূটনীতিক এমন দাবি করেছেন। খবর রয়টার্সের। নতুন কৌশলগত অস্ত্র হ্রাস চুক্তির মেয়াদ বাড়াতে ত্রিপক্ষীয় আলোচনায় যোগ দিতে চীনের প্রতি আহবান জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। রুশ-মার্কিন এই চুক্তির মেয়াদ আগামী বছরের ফেব্রুয়ারিতে শেষ হতে যাচ্ছে। বুধবার বেইজিংয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে চীনা পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অস্ত্র নিয়ন্ত্রণ বিভাগের প্রধান ফু কং বলেন, সাবেক ঠান্ডাযুদ্ধকালীন পরাশক্তিদের সঙ্গে চীন আলোচনায় যোগ দিতে বেইজিংয়ের কোনো আগ্রহ নেই। চীনের চেয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পরমাণু অস্ত্র ভান্ডার যেখানে ২০ গুণ বড়, সেখানে এই আলোচনায় যোগ দেয়ার প্রশ্ন আসে না। তিনি বলেন, আমি আপনাদের নিশ্চিত করে বলতে পারি, যদি যুক্তরাষ্ট্র বলে যে তারা চীনাদের পর্যায়ে নেমে আসবে, তবে পরের দিনই সানন্দে আলোচনায় বসতে রাজি হবে বেইজিং। কিন্তু সত্যিকার অর্থে এমনটি ঘটতে যাচ্ছে না। ফু কং জোর দিয়ে বলেন, চীনকে যুক্তরাষ্ট্র ত্রিপক্ষীয় চুক্তিতে যোগ দিতে বলা হচ্ছে কেবল মনোযোগ অন্যত্র সরিয়ে নিতে। এছাড়া আমেরিকা চুক্তির মেয়াদ না বাড়িয়ে বেরিয়ে আসার অজুহাত হিসেবে এমনটি বলছে। এই চীনা কূটনীতিকের দাবি, যুক্তরাষ্ট্রের মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে সব বিধিনিষেধ থেকে বেরিয়ে আসা। মূলত তারা যে কোনো সত্যিকার কিংবা কাল্পনিক বৈরী শক্তির বিরুদ্ধে ওয়াশিংটন সামরিক শ্রেষ্ঠত্ব অর্জন করতে যাচ্ছে। রয়টার্স।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যুক্তরাষ্ট্র


আরও
আরও পড়ুন