Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ২২ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

ইতিহাস ধরে রাখাতে ফিরছেন রুট

সিরিজ জিতলেই হোল্ডারদের বোনাস

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ জুলাই, ২০২০, ১২:০১ এএম

আজ থেকে ওল্ড ট্রাফোড টেস্ট

সাউদাম্পটনের প্রথম টেস্টে ইংল্যান্ডের হারটা দূর থেকেই দেখেছেন জো রুট। দ্বিতীয় সন্তানের মুখ দেখতে স্ত্রীর পাশে থাকবেন বলে এই টেস্ট থেকে সরে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। তবে আজ থেকে শুরু ওল্ড ট্রাফোর্ডের দ্বিতীয় টেস্টেই সম্ভবত নিয়মিত অধিনায়ককে আবার দলে পাচ্ছে ইংল্যান্ড। ইংল্যান্ডের কোচ ক্রিস সিলভারউডের কথাতেই মিলেছে সে আভাস, ‘ভালো করতে ভীষণভাবে মুখিয়ে আছে রুট। তবে সে কিছুটা হলেও চাপে থাকবে। জ্যাক (ক্রাউলি) ধারাবাহিকভাবে উন্নতি করছে। সর্বশেষ ইনিংসে বোঝা গেছে ও অনেক পরিণত।’
প্রথম টেস্টে রুটের পরিবর্তে ইংল্যান্ডকে নেতৃত্ব দেন বেন স্টোকস। দল হারলেও দুই ইনিংসেই ব্যক্তিগত পারফরম্যান্সে সফল স্টোকস। প্রথম ইনিংসে ব্যাট হাতে ৪৩ রানের পাশাপাশি বল হাতে ৪৯ রানে ৪ উইকেট। দ্বিতীয় ইনিংসে করেন ৪৬ রান। উইকেট নিয়েছেন ৩৯ রানে ২টি।
করোনাভাইরাসের কারণে সিরিজের খেলা হচ্ছে দর্শকবিহীন স্টেডিয়ামে। স্বাগতিক সমর্থকদের সমর্থন থেকে তাই বঞ্চিত হচ্ছে ইংল্যান্ড দল। তবে ওল্ড ট্রাফোর্ডে সেটি সমস্যা হওয়ার কথা নয় রুটের। এটি তার প্রিয় ভেন্যুগুলোর মধ্যেই একটি। ২০১৬ সালের এই জুলাই মাসেই টেস্টে নিজের সর্বোচ্চ ২৫৪ রানের ইনিংসটি রুট এ মাঠেই খেলেছিলেন পাকিস্তানের বিপক্ষে।
সাউদাম্পটনে ৪ উইকেটের জয়ের পর ওল্ড ট্রাফোর্ডে জিতলেই তিন টেস্টের সিরিজ জয় নিশ্চিত হয়ে যাবে ওয়েস্ট ইন্ডিজের। ৩২ বছরের মধ্যে এটিই তখন হবে ইংল্যান্ডের মাটিতে ক্যারিবীয়দের প্রথম টেস্ট সিরিজ জয়। জো রুট ফিরে কি পারবেন ৩২ বছরের ইতিহাসটা ধরে রাখতে?
ইংল্যান্ড দল যখন এই চ্যালেঞ্জের চাপে পিষ্ট ঠিক উল্টো চিত্র ক্যারিবিয়ান শিবিরে। সিরিজটি জিতলে পারলেই বেশ বড় অঙ্কের বোনাস পাবে জেসন হোল্ডারের দল। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ড এমনিতে চুক্তিবদ্ধ ক্রিকেটারদের ম্যাচ জেতার বোনাস দেয় না। তবে টেস্ট সিরিজ জিতলে ২৩৮০০ পাউন্ড বা ২৫ লাখ ৩০ হাজার টাকা দেওয়া হবে, যেটি ভাগ করে দেওয়া হবে পুরো দলকে। এতে একেকজন খেলোয়াড়ের ভাগে পড়বে সর্বোচ্চ ১৮৭৫ পাউন্ড বা ২ লাখ টাকা।
ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেটের প্রেক্ষাপটে টাকাটা একটু বড় মনে হলেও ইংল্যান্ডের খেলোয়াড়দের কাছে সেটি খুব বেশি আকর্ষণীয় নয়। ইংলিশরা যদি পরের টেস্ট জিতে ঘুরে দাঁড়ায়, তারা ম্যাচ ফি হিসেবেই পাবেন সাড়ে ছয় হাজার পাউন্ড বা ৭ লাখ টাকা। ম্যাচ ও সিরিজ জয়ের বোনাস হিসাব করলে জো রুটাদের প্রত্যেকের পাওয়ার কথা আরও ১৯৫০০ পাউন্ড বা ২০ লাখ টাকা করে। সব মিলিয়ে সিরিজ শেষে স্টোকসদের পকেটে ঢুকবে ৩৪ লাখ ৫৮ হাজার টাকা।
ইংল্যান্ডে দল পাঠানোর আগে ওয়েস্ট উইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ডকে যেখানে ইসিবির কাছে ২৪ লাখ পাউন্ড ধার চাইতে হয়, সেখানে ক্রিকেটারদের বড় অঙ্কের বোনাস ঘোষনায় উজ্জ্বীবিত হতেই পারে গ্যাব্রিয়েল-ব্ল্যাকযাডরা। সেই সাথে প্রথমবারের মতো আইসিসি টেস্ট বোলারদের র‌্যাঙ্কিংয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসার সুখবর তো আছেই অধিনায়ক হোল্ডারকে আরো ক্ষুরধার হতে!
এই সুসংবাদটি অবশ্য অভিজ্ঞ সেনানী পেয়েছেন সাউদাম্পটন টেস্টে মোট ৭ উইকেট নেয়ায়। বলতে গেলে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়ে ক্যারিবিয়ানদের ৪ উইকেটের দুর্দান্ত জয় পাইয়ে দেন হোল্ডারই। প্রথম ইনিংসে এই দীর্ঘদেহী তারকা দখল করেন ৪২ রানে ৬ উইকেট, যা বল হাতে সাদা পোশাকে তার সেরা পারফরম্যান্স। এই নৈপুণ্যের পর ক্যারিয়ারসেরা র‌্যাঙ্কিং ও রেটিং পয়েন্ট অর্জন করেছেন হোল্ডার। দুইয়ে থাকা এই তারকার রেটিং পয়েন্ট বেড়ে হয়েছে ৮৬২। তার আগের সেরা ছিল ৮৩০।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন