Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৫ আশ্বিন ১৪২৫, ৯ মুহাররাম ১৪৪০ হিজরী‌

চট্টগ্রামে চালক ও গাড়িসহ নর্থ সাউথ ভার্সিটির ছাত্র নিখোঁজ

প্রকাশের সময় : ৪ আগস্ট, ২০১৬, ১২:০০ এএম

চট্টগ্রাম ব্যুরো : নগরীতে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এক ছাত্র তিনদিন ধরে নিখোঁজ রয়েছেন। খোঁজ মিলছেনা তার ব্যক্তিগত গাড়ি ও চালকেরও। মো. জুনায়েদ হোসেন আকিব (২৫) নামে ওই শিক্ষার্থী গত এপ্রিল মাসে ঢাকায় নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিবিএ অনার্স শেষ করেন।
বাবা মুক্তিযোদ্ধা আলতাফ হোসেন চৌধুরীর মৃত্যুর কারণে তিনি চট্টগ্রামে ফিরে আসেন বলে জানিয়েছেন আকিবের ভগ্নিপতি এস এম আবুল মঞ্জুর। গতকাল (বুধবার) রাতে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত তাদের কোন সন্ধান মেলেনি। নিখোঁজ আকিবের স্বজনরা জানায়, সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজ-খবর নিয়েছেন তারা। কোথাও তাদের পাওয়া যায়নি। খুলশী থানার ওসি নিজাম উদ্দিন বলেন, এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দায়েরের পর থেকে পুলিশ তাদের সন্ধানে কাজ করছে। খুলশী থানার পাশাপাশি ডিবি পুলিশ এবং পুরো সিএমপি এ বিষয়টি নিয়ে কাজ করছে জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে নিয়েছি। তবে এখনও পর্যন্ত তাদের কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি। নর্থ সাউথের সাবেক ছাত্র জুনায়েদ হোসেন আকিব এবং তার গাড়িচালক মো. মোস্তফা নিখোঁজের ঘটনায় একটি জিডি হয়েছে। আমরা এবং ডিবি সম্মিলিতভাবে বিষয়টি তদন্ত করছি।
আকিবের বাসা নগরীর খুলশী থানার কুসুমবাগ আবাসিক এলাকায়। নিখোঁজের ঘটনায় তার ভগ্নিপতি এস এম আবুল মঞ্জুর সোমবার রাতে খুলশী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) দায়ের করেছেন। জিডি নম্বর ৪৬। এস এম আবুল মঞ্জুর জানান, সোমবার দুপুর ১টার দিকে আকিব তার প্রাইভেট কার (চট্টমেট্রো-গ ১১-৭২৭৯) নিয়ে বাসা থেকে বের হন। গাড়ি চালাচ্ছিলেন চালক মোস্তফা (৩০)। গাড়িতে রাব্বি নামে আকিবের এক বন্ধুও ছিল। ভারতের ভিসা নেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সংগ্রহে দুই বন্ধু আগ্রাবাদ গিয়েছিলেন। ফেরার পথে দুপুর পৌনে তিনটার দিকে নগরীর ওয়াসা মোড়ে রাব্বিকে গাড়ি থেকে নামিয়ে দেয় আকিব। এরপর বাসার উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। কিন্তু এরপর থেকে তার আর কোন খোঁজ মিলছে না। দু’জনের মোবাইলও বন্ধ পাওয়া যাচ্ছে।
প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে তিনি জানান, সোমবার দুপুর তিনটার দিকে নগরীর গরীবউল্লাহ শাহ মাজারের পাশে বিআরটিসি কাউন্টারের অদূরে কুসুমবাগ আবাসিক এলাকার প্রবেশমুখে প্রাইভেট কারটি অবস্থান করছিল। এসময় পাশে দাঁড়ানো একটি পাজেরো জিপের সঙ্গে প্রাইভেট কারটির ধাক্কা লাগে। বাকবিত-ার এক পর্যায়ে পাজেরো গাড়ির লোকজন ক্ষতিগ্রস্ত কারটি মেরামতের আশ্বাস দিয়ে আকিবদের খুলশীর দিকে নিয়ে যায়। এরপর থেকে তাদের আর কোন খোঁজ পাওয়া যাচ্ছেনা বলে জানিয়েছেন এস এম আবুল মঞ্জুর।
নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিবিএ সম্পন্ন করার পর আকিব তার আরেক ভগ্নিপতির সঙ্গে যৌথভাবে ব্যবসা করছিল। একমাত্র ছেলে আকিব বাবার অবর্তমানে তাদের পারিবারিক বিষয়ও দেখাশোনা করছিল বলে জানান এস এম আবুল মঞ্জুর।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ