Inqilab Logo

ঢাকা রোববার, ০১ নভেম্বর ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭, ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

দক্ষ জনশক্তি তৈরিতে কাজ করছে ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম

প্রকাশের সময় : ৪ আগস্ট, ২০১৬, ১২:০০ এএম

অর্থনৈতিক রিপোর্টার : দেশের ইলেকট্রনিকস ও ইলেকট্রিক্যাল পণ্য খাতে অভিজ্ঞ ও দক্ষ জনশক্তি তৈরিতে কাজ করছে ওয়ালটন গ্রুপ। আইএসও সনদপ্রাপ্ত ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম কর্তৃপক্ষ প্রতি বছর বিপুলসংখ্যক কর্মীকে প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। উচ্চমানের কারিগরি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বেকার ও অদক্ষরা পরিণত হচ্ছেন দক্ষ মানবসম্পদে। প্রশিক্ষণ নিয়ে যাদের অনেকেই দেশীয় প্রতিষ্ঠানের পাশাপাশি বিদেশেও কাজ করার সুযোগ পাচ্ছেন। ওয়ালটন সূত্র মতে, দেশের সম্ভাবনাময় এবং দ্রুত অগ্রসরমান ইলেকট্রনিকস ও ইলেকট্রিক্যাল হোম অ্যাপ্লায়েন্স শিল্পে বিপুল সংখ্যক দক্ষ, অভিজ্ঞ প্রকৌশলী ও টেকনিশিয়ান প্রয়োজন। কিন্তু সেভাবে দক্ষ জনবল তৈরি হচ্ছে না। ফলে ওয়ালটন স্বল্প ও দীর্ঘমেয়াদি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে হাতে-কলমে দক্ষ জনবল তৈরি করছে।
জানা গেছে, চারটি ধাপে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়। এতে বিএসসি প্রকৌশলীদের স্বল্পমেয়াদি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে সরাসরি নিয়োগ, ডিপ্লোমা প্রকৌশলীদের প্রশিক্ষণ এবং নিয়োগ, ইন্টার্নশিপের মাধ্যমে প্রকৌশলীদের ব্যবহারিক প্রশিক্ষণ এবং অন্যটি হচ্ছে অদক্ষ বা বেকার যুবকদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ টেকনিশিয়ানে পরিণত করা।
২০০০ সালে ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম যাত্রা শুরু করে। তখন থেকেই ওয়ালটনের এই প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি পলিটেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটের ডিপ্লোমা প্রকৌশলীদের প্রশিক্ষণ দিচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি। এই প্রকৌশলীরা মূলত ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যাটাচমেন্ট কোর্সের আওতায় ওয়ালটন সার্ভিস সেন্টারে তিন মাস মেয়াদি ইন্টার্নশিপ প্রোগামে অংশ নেন। এছাড়া বিভিন্ন ভোকেশনাল ট্রেনিং ইনস্টিটিউট এবং ইউসেপের মতো কারিগরি প্রতিষ্ঠান থেকেও শিক্ষার্থীরা ইন্টার্নশিপ বা প্রশিক্ষণের জন্য ওয়ালটনে আসেন। প্রতি বছর আগস্ট থেকে নভেম্বর পর্যন্ত ইন্টার্নশিপ প্রোগ্রামের মাধ্যমে শতাধিক ডিপ্লোমা প্রকৌশলীদের উচ্চমানের প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। সূত্র মতে, ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম থেকে ২০১৪ সালে ১১০ জন ও  ২০১৫ সালে ১৯৪ জন ডিপ্লোমা প্রকৌশলী ইন্টার্নশিপ করেন। চলতি বছর ইন্টার্নশিপের জন্য ৫ শতাধিক প্রকৌশলী আবেদন করেছেন। যাদের মধ্যে ৩২০ জনকে ইন্টার্নশিপের সুযোগ দেয়া হচ্ছে। প্রতিদিনই বাড়ছে ইন্টার্নশিপ আগ্রহীর সংখ্যা।
প্রশিক্ষণ প্রদানের আরেকটি ধাপ পরিচালিত হয় মূলত বিভিন্ন কারণে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকের পর শিক্ষাজীবন থেকে ঝরে পড়া বেকার ও কারিগরি শিক্ষায় অদক্ষদের নিয়ে। ফলে একদিকে তাদের জন্য যেমন কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হচ্ছে, অন্যদিকে দেশের সম্ভাবনাময় ইলেকট্রনিকস ও ইলেকট্রিক্যাল শিল্প খাতে তৈরি হচ্ছে দক্ষ ও অভিজ্ঞ টেকনিশিয়ান। প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের উল্লেখযোগ্য অংশ আবার ওয়ালটন সার্ভিস সেন্টারেই নিয়োগ পাচ্ছেন।
ওয়ালটন থেকে আইটি (তথ্যপ্রযুক্তি) বিষয়েও প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে।
সংশ্লিষ্টদের মতে, ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়া তথা ভবিষ্যতের আইটি চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় ওয়ালটনের এই উদ্যোগ দৃষ্টান্ত হিসেবে কাজ করবে। গত বছর ৪ শতাধিক অদক্ষদের ৬ মাস মেয়াদি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষ কর্মীতে পরিণত করা হয়েছে। যাদের মধ্যে প্রায় ৩০০ জনকেই ওয়ালটন সার্ভিস সেন্টারে টেকনিশিয়ান হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়েছে।
ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমের প্রধান নিয়ামুল হক বলেন, বাংলাদেশে ইলেকট্রনিকস ও ইলেকট্রিক্যাল পণ্য খাতের ভবিষ্যৎ খুবই উজ্জ্বল। কিন্তু এ খাতে দক্ষ, অভিজ্ঞ টেকনিশিয়ান ও প্রকৌশলীর যথেষ্ট অভাব রয়েছে। ডব্লিউএসএমএস-এর এইচআরএম ও অ্যাডমিন বিভাগের প্রধান এস এম নাসির উদ্দিন বলেন, সাধারণত সার্ভিস সেন্টারে দক্ষ ও অভিজ্ঞ লোকবল নিয়োগ হয়। এক্ষেত্রে, ওয়ালটন ব্যতিক্রম। অনভিজ্ঞ ও অদক্ষদের সঠিক প্রশিক্ষণ প্রদান করে দক্ষ কর্মী হিসেবে গড়ে তোলা হচ্ছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: দক্ষ জনশক্তি তৈরিতে কাজ করছে ওয়ালটন সার্ভিস ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ