Inqilab Logo

ঢাকা বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮ আশ্বিন ১৪২৭, ০৫ সফর ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

ঈশ্বরগঞ্জে বিচ্ছিন্ন পা উদ্ধার

ঈশ্বরগঞ্জ (ময়মনসিংহ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৭ আগস্ট, ২০২০, ৫:১৮ পিএম

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে বিচ্ছিন্ন পা উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার সকালে উপজেলার ভাষা গোকুলনগর এলাকা থেক ওই বিচ্ছন্ন পা উদ্ধার করা হয়।

জানা যায়, ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ সড়কে ঈশ্বরগঞ্জর মাইজবাগ ইউনিয়নর ভাসা গোকূলনগর এলাকার রাস্তার পাশে বিচ্ছিন্ন পা পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। শুক্রবার সকালে বিচ্ছন্ন পায়ের খবর পেয়ে ময়মনসিংহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গৌরীপুর সার্কেল) সাখের হোসেন সিদ্দিকী ঘটনাস্থলে ছুটে যান। পুলিশ নিশ্চিত হন বিচ্ছিন্ন পা টি গত সোমবার রাতে কেটে নেওয়া শামীম ভুঁইয়ার। শামীম পার্শ্ববর্তী নাদাইল উপজেলার কানুরামপুর গ্রামের নুরুল ইসলাম ভুঁইয়ার ছেলে।

ঈদ উপলক্ষে প্রবাসফেরত শামীম ভূঁইয়া তার ভাই রুবেলকে নিয়ে গত সোমবার সন্ধ্যার দিকে এক আত্মীয়র বাড়িতে যাচ্ছিলেন। পথে তাদের বহন করা সিএনজি চালিত অটোরিকশাটি কানুরামপুর পশ্চিম বাস স্টপেজে থামে। ওই সময় ১০-১২ জন দুর্বৃত্ত সিএনজি চালিত অটোরিকশাটি ঘেরাও করে দুই ভাইকে মারধর করতে থাকে। শামীমকে সিএনজি থেকে টেনে হিঁছড়ে নামিয়ে সড়কের ওপর ফেলে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপাতে শুরু করে। এক পর্যায়ে চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে শামীমের ডান পা কেটে নেওয়া হয়। বা পায়েও কুপিয়ে জখম করা হয়। ওই ঘটনায় শামীমের ভাই রুবেল ভুঁইয়া বাদি হয়ে গত মঙ্গলবার ২৬ জনকে আসামি করে নাদাইল মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।

ঈশ্বরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোখলেছুর ররহমান আকন্দ বলেন, উদ্ধার হওয়া পা নান্দাইল থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ময়মনসিংহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গৌরীপুর সার্কেল) সাখের হোসেন সিদ্দিকী বলেন, পা কেটে নেওয়ার ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। এক আসামিকে পুলিশ গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠিয়েছে। মামলার অন্য ২০ জন আসামি বৃহস্পতিবার আদালত থেকে জামিন নিয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ