Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০, ১৬ আশ্বিন ১৪২৭, ১৩ সফর ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

করোনায় হারিয়ে গেলো অস্ট্রেলিয়ার প্রাচীনতম মাইক্রোনেশন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১১ আগস্ট, ২০২০, ৮:০৪ পিএম

করোনার কারণে হারিয়ে গেলো অস্ট্রেলিয়ার প্রাচীনতম মাইক্রোনেশন।৫০ বছর আগে এক ‘প্রিন্স’ এই মাইক্রোনেশন প্রতিষ্ঠা করেন। হাট রিভার ছিলো স্বঘোষিত প্রিন্সিপালিটি। তারা নিজেদের পাসপোর্ট ইস্যু করেছিলো। এমনকি একবার অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে যুদ্ধও ঘোষণা করেছিলো। -সিএনএন
অস্ট্রেলিয়ান সরকারের স্বীকৃতি না থাকলেও প্রিন্সিপালিটি স্বাধীন দেশের মতোই আচরণ করতো। এদের সরকার ভিসা ও ড্রাইভিং লাইসেন্সও দিতো। ছিলো আলাদা পাসপোর্ট ও মুদ্রা। ছিলো নিজেদের ডাকটিকেট। বিশ্বের ১০টি দেশের ১৩টি বিদেশ কার্যালয়ে তারা নিজেদের পতাকাও ওড়াতো।

অদ্ভূত রাষ্ট্রকাঠামোর জন্য এই ছোট্ট ‘দেশটা’ ছিলো পর্যটকদের জন্য আকর্ষণের স্থান। তবে কোভিড-১৯ সংশ্লিষ্ট অর্থনৈতিক ধাক্কা সামলাতে না পেরে দেশটি অস্ট্রেরিয়ার কাছে ‘আত্মসমর্পণ করেছে। ১৯৭০ সালে প্রিন্স লিওনার্দ ক্যাসলি দাবি করেন, তিনি আইনে একটি ফুঁটো খুঁজে পেয়েছেন। এর সহায়তায় ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়ার রাজধানী পার্থ থেকে ৫০০ কিলোমিটার দূরের এক প্রত্যন্ত এলাকায় একটি ‘রাষ্ট্র’ গঠন করেছেন।

দেশটির আয়তন ছিলো ৭৫ বর্গ কিলোমিটার। ম্যাকাওয়ের দ্বিগুন আকারের হলেও এর জনসংখ্যা ছিলো ৩০ জনেরও কম।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: করোনাভাইরাস


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ