Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২৫ জানুয়ারি ২০২১, ১১ মাঘ ১৪২৭, ১১ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

আফগানিস্তানে ৪০০ তালেবান যোদ্ধার মুক্তি শুরু

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ আগস্ট, ২০২০, ১০:২৫ এএম

এবার হয়তো আফগাগিস্তানে শান্তি ফিরবে। সরকারের সঙ্গে অবশেষে সমঝোতায় পৌঁছতে সক্ষম হয়েছে তালেবান। যার পরিপ্রেক্ষিতে তাদের যোদ্ধাদের মুক্তি প্রক্রিয়া শুরু করেছে সরকার। এদিকে মার্কিন-তালেবান আলোচনার মূল বিষয় ছিলো মার্কিন সৈন্য প্রত্যাহার ও আফগান যোদ্ধাদের মুক্তি।

আফগানিস্তানে তালেবানদের সঙ্গে দীর্ঘ প্রতীক্ষিত শান্তি আলোচনা শুরু করতে শেষ বাধা টুকুও সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। তালেবান যোদ্ধাদের দাবির মুখে তাদের বন্দী ৪০০ হাইপ্রোফাইল সদস্যকে ছাড়তে শুরু করেছে দেশটির সরকার।

বন্দীদের মুক্তি দেওয়ার কার্যক্রমের অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার ৮০ জনকে ছাড়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন আফগানিস্তান সরকারের সিকিউরিটি কাউন্সিলের মুখপাত্র জাভিদ ফয়সাল। এক টুইট বার্তায় খবরটি নিশ্চিত করেছেন বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা এএফপি।

এর ফলে তালেবানদের সঙ্গে শান্তি আলোচনায় বসার প্রচেষ্টা ‘আরও দ্রুততর এবং দেশজুড়ে যুদ্ধ বিরতি আরও দীর্ঘস্থায়ী’ হবে বলে দাবি জাভিদ ফয়সালের।

আফগানিস্তান সরকারের কারাগারে মুক্তি পাওয়ার অপেক্ষায় যে ৪০০ তালেবান জঙ্গি রয়েছেন তাদের বিরুদ্ধে আফগান নাগরিক ও বিদেশিদের হত্যার মতো গুরুতর অভিযোগ রয়েছে।

তিন দিনের আলোচনা শেষে দেশটির আইন সভা লয়া জিরগায় গত শনিবার এসব তালেবান বন্দীদের মুক্তি দেওয়ার সিদ্ধান্ত পাস হয়। সে অনুযায়ীই তাদের মুক্তি দিচ্ছে আফগানিস্তান সরকার।

বন্দীদের ছাড়ার সময়টাতেই আফগানিস্তান সরকার ও তালেবান উভয় পক্ষ কাতারের দোহায় শান্তি আলোচনা শুরু করতে প্রস্তুত হলে জানিয়েছে।

বন্দীদের মধ্যে যারা বিদেশি নাগরিক তাদেরকে নিজ নিজ দেশে হস্তান্তর করা হবে বলেও লয়া জিরগা সমাবেশে সিদ্ধান্ত হয়।

যুক্তরাষ্ট্রের চেষ্টায় আফগানিস্তানে সরকার ও তালেবানবাহিনীর মধ্যে আগেই শান্তি আলোচনা শুরুর কথা থাকলেও তা সম্ভব হচ্ছিল না। আলোচনা শুরুর আগে নিজেদের সকল বন্দীদের মুক্তির দাবি জানিয়ে আসছিল তালেবান।

আফগানিস্তান সরকার এরই মধ্যে প্রায় ৫ হাজার তালেবান বন্দীকে মুক্তি দিয়েছে। তবে শেষ দিকের বন্দীদের ছাড়ার ক্ষেত্রে অনেকটা বেঁকে বসেছিল তারা।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আফগানিস্তান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ