Inqilab Logo

ঢাকা মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি ২০২১, ০৫ মাঘ ১৪২৭, ০৫ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

নির্ধারিত সময়েই এএফসি কাপ

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ আগস্ট, ২০২০, ৭:৩৯ পিএম

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের কারণে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট সিডিউলে বিধিনিষেধ থাকায় কাতার বিশ্বকাপ ও চায়না এশিয়ান কাপ বাছাইয়ের অক্টোবর ও নভেম্বর মাসের ম্যাচগুলো স্থগিত করেছে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন (এএফসি)। তারা ১২ আগস্ট বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাইয়ের এশিয়া অঞ্চলের ম্যাচ স্থগিত করলেও পূর্ব নির্ধারিত সময়েই আয়োজন করবে এএফসি কাপের গ্রুপ পর্বের খেলা। শুক্রবার এমন তথ্যই দিয়েছেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) সাধারণ সম্পাদক মো. আবু নাইম সোহাগ। তিনি জানান,এখন পর্যন্ত এএফসি কাপের পূর্ব নির্ধারিত সূচিই ঠিক আছে।

এএফসি কাপের ‘ই’ গ্রæপে খেলছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস, ভারতের চেন্নাই সিটি এফসি এবং মালদ্বীপের টিসি স্পোর্টস ও মাজিয়া স্পোর্টস অ্যান্ড রিক্রিয়েশন ক্লাব। করোনাভাইরাসের সংক্রামণ বাড়ার আগে গত মার্চ দু’টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়েছে এই গ্রæপের। এরপরই করোনার প্রভাবে খেলা স্থগিত হয়ে যায়। তবে বিশ্বব্যাপী করোনা সংক্রামণ কিছুটা কমলে গত মাসে নতুন সূচী ঘোষণা করে এএফসি। এই সূচী অনুযায়ী আগামী ২৩ অক্টোবর থেকে ৪ নভেম্বর পর্যন্ত সেন্ট্রাল ভেন্যু মালদ্বীপে অনুষ্ঠিত হবে ‘ই’ গ্রুপের বাকি ম্যাচগুলো।

এএফসি কাপের ম্যাচ মাঠে গড়ানোর সময়েই অর্থাৎ অক্টোবর-নভেম্বরে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল বিশ্বকাপ বাছাইয়ের বাকি ম্যাচগুলো। বাছাইয়ের ম্যাচ পিছিয়ে তা আগামী বছর নেয়া হলেও এএফসি কাপের দিনক্ষণ ঠিকই আছে! এটা কেন?

এই প্রশ্নে বাফুফের সাধারণ সম্পাদক সোহাগ বলেন, ‘এএফসি কাপের খেলা এক ভেন্যুতে হবে বলেই নির্বিঘেœ তা আয়োজন করে ফেলতে পারবে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন। কারণ দলগুলো এবং ম্যাচের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট অন্যান্য অফিসিয়ালরা একবারই মালদ্বীপে যাবেন এবং সব ম্যাচ শেষ করে যে যার দেশে ফিরবেন। এ কাজটি সহজ এএফসির জন্য। কিন্তু বিশ্বকাপ বাছাইয়ের ম্যাচে সেটা সম্ভব না। কারণ আন্তর্জাতিক ফ্লাইটে একেক দেশে একেক রকম বিধিনিষেধ আছে।’

বিশ্বকাপ বাছাইয়ের বাকি ম্যাচগুলো হবে বাংলাদেশ, ভারত, কাতার ও তাজিকিস্তানে (আফগানিস্তানের হোম ভেন্যু)। রেফারি, ম্যাচ কমিশনারসহ দলগুলোর এক দেশ থেকে আরেক দেশে ভ্রমণ করতে হবে। তাই আন্তর্জাতিক ফ্লাইট জটিলতা না কাটলে বাছাইয়ের ম্যাচ আয়োজন সম্ভব নয় বলে জানিয়েছে এএফসি। করোনা পরিরিস্থতি স্বাভাবিক হলে ২০২১ সালের শুরুর দিকে বাছাইয়ের ম্যাচ আয়োজনের নতুন দিনক্ষণ নির্ধারণ করবে তারা।

এএফসি কাপে বসুন্ধরা কিংসের বাকি ৫ ম্যাচ যথাক্রমে ২৩ অক্টোবর ও ৪ নভেম্বর মাজিয়া স্পোর্টস অ্যান্ড রিক্রিয়েশন ক্লাবের বিপক্ষে, ২৬ ও ২৯ অক্টোবর চেন্নাই সিটি এফসি এবং ১ নভেম্বর টিসি স্পোর্টস ক্লাবের বিপক্ষে। গত ১১ মার্চ ঢাকায় প্রথম ম্যাচে বসুন্ধরা কিংস ৫-১ গোলে বিধ্বস্ত করেছে মালদ্বীপের টিসি স্পোর্টস ক্লাবকে। এক ম্যাচে ৩ পয়েন্ট পেয়ে বসুন্ধরাই আছে তালিকার শীর্ষে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল

১৮ জানুয়ারি, ২০২১
১৮ জানুয়ারি, ২০২১

আরও
আরও পড়ুন