Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২৫ জানুয়ারি ২০২১, ১১ মাঘ ১৪২৭, ১১ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয় এশীয় ও শ্বেতাঙ্গ শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে বৈষম্য করছে

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ আগস্ট, ২০২০, ৮:৩৫ পিএম

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ জানায়, টানা দুই বছরের তদন্তে দেখা গিয়েছে, প্রতিবছর স্নাতক পর্যায়ে শত শত শিক্ষার্থীর ভর্তির সময় ‘অবৈধভাবে বর্ণবাদী ও বৈষম্যমূলক আচরণ’ করছে ইয়েলের ফ্যাকাল্টি, যা ১৯৬৪ সালের নাগরিক অধিকার আইনের চতুর্থ ধারার লঙ্ঘন।-বিবিসি, দ্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট, সিএনবিসি
এদিকে ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের মুখপাত্র অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে বলেছেন, হাজারো যোগ্য শিক্ষার্থীদের মধ্য থেকে আমরা প্রার্থী বাছাই করি। আমরা নিজেদের ভর্তির প্রক্রিয়া নিয়ে গর্ববোধ করি, এই ধরণের অযৌক্তিক ও বুদ্ধিহীন অভিযোগের ভিত্তিতে আমরা প্রক্রিয়া পরিবর্তন করবো না।

বিচার বিভাগ বলছে, তাদের তদন্তে দেখা গিয়েছে, প্রাতিষ্ঠানিক যোগ্যতার ভিত্তিতে আফ্রো-আমেরিকান আবেদনকারীদের ১০জনের মধ্যে ৪ জনের বিপরীতে এশীয় ও শ্বেতাঙ্গ আমেরিকানদের আবেদন গ্রহণের হার দশের মধ্যে ১ জন। তারা আরও জানায়, ভবিষ্যত ভর্তি প্রক্রিয়ার সময় বর্ণ বা জাতিগত পরিচয়কে নির্ণায়ক নির্ধারণ করা উচিত নয়।

এর আগে মার্কিন বিচার বিভাগের আওতায় হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বিরুদ্ধে এশীয় আমেরিকান প্রার্থীদের নিয়ে বৈষম্যের অভিযোগ আনে। তবে পরে হার্ভার্ডের আপিলের ভিত্তিতে সুপ্রিমকোর্ট জানায়, শ্বেতাঙ্গ, কৃষ্ণাঙ্গ এবং হিসপানিক প্রার্থীদের বিপরীতে এশীয় প্রার্থীদের বিরুদ্ধে বৈষম্য করে না হার্ভার্ড।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: যুক্তরাষ্ট্র


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ