Inqilab Logo

ঢাকা সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ১০ কার্তিক ১৪২৭, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
শিরোনাম

যশোর কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রের সহকারী পরিচালকসহ ৫ জন হত্যা মামলায় গ্রেফতার

যশোর থেকে বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৫ আগস্ট, ২০২০, ১২:৩৪ পিএম

যশোর কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রে তিন কিশোরকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলায় কেন্দ্রের সহকারী পরিচালক (তত্ত্বাবধায়ক) আবদুল্লাহ আল মাসুদসহ ৫জন কর্মকর্তা ও কর্মচারিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

কেন্দ্রের অভ্যন্তরে পিটিয়ে ৩জন কিশোরকে হত্যা ও ১৫জনকে আহত করার চাঞ্চল্যকর ঘটনায় তোলপাড়ের সৃষ্টি হলে অভিযোগের তীর কর্মকর্তা ও কর্মচারিদের দিকে যায়। তখন পুলিশ শুক্রবার কেন্দ্রের ১০জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য হেফাজতে নেয়।

ঘটনার সম্পৃক্ততা পাওয়ায় শুক্রবার গভীররাতে যশোরের পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আশরাফ হোসেন পিপিএম ৫জন কর্মকর্তা ও কর্মচারিকে গ্রেফতার দেখানোর কথা নিশ্চিত করেন। শনিবার দুপুরে পুলিশ সুপার এ ব্যাপারে প্রেস ব্রিফিং করছেন। এসপি ঘটনার পর থেকেই দিনরাত সমানতালে মনিটরিং করছেন। তার একাগ্রতায় চাঞ্চল্যকর ঘটনার ২৪ঘন্টার মধ্যেই আদ্যপান্ত উদ্ধার হয়েছে। নেওয়া হয়েছে আইনানুগ ব্যবস্থা। আরো তদন্ত অব্যাহত রয়েছে। কেন্দ্রের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনার ক্ষেত্রেও পুলিশের ভুমিকা প্রশংসনীয়।

এসপি মুহাম্মদ আশরাফ হোসেন ঘোষণা করেছিলেন পুঙ্খানুপুঙ্খ তদন্ত করা হচ্ছে। যারা ঘটনার সাথে জড়িত থাকবে রেহাই পাবে না। বাস্তবেও ঘটেছে সেটি।

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার কর্তৃপক্ষ কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রে বন্দিদের মধ্যে মারামারি প্রচার করে প্রকৃত ঘটনা ভিন্নখাতে প্রবাহের চেষ্টা চালায়। চার দেয়ালের মাঝে ৩জন কিশোর বন্দি নিহত ও ১৫জন আহত হয়। শুক্রবার কোতয়ালি মডেল থানায় নিহত রাব্বির পিতা হত্যা মামলা দায়ের করেন।

ইতোমধ্যেই সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় কেন্দ্রের সহকারি পরিচালক আবদুল্লাহ আল মাসুদকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে। গঠণ করা হয়েছে সমাজ কল্যাণ মন্ত্রণালয় ও সমাজসেবা অধিদপ্তর থেকে পৃথক দুটি তদন্ত কমিটি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গ্রেফতার


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ